২৩ জুলাই ২০১৯

শ্রীবরদীতে ৪টি বসতঘর পুড়ে ছাই, ২০ লাখ টাকার ক্ষতি

-

শেরপুরের শ্রীবরদীতে গভীর রাতে আগুন লেগে চারটি বসতঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

ঘটনাটি ঘটেছে রোববার দিবাগত রাত ১টার দিকে উপজেলার শ্রীবরদী সদর ইউনিয়নের মামদামারী নয়াপাড়া গ্রামে।

এলাকাবাসী ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এলাকাবাসী ও ভুক্তভোগী পরিবারগুলো জানায়, এতে প্রায় ২০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, রোববার দিবাগত রাত ১টার দিকে মামদামারী নয়াপাড়া গ্রামের মোস্তফার ছেলে সাইদুর রহমানের বসতঘরের বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। পরে মুহূর্তেই আগুনের লেলিহান শিখা ছড়িয়ে পড়ে। এতে সাইদুর রহমানের দুটি টিনের চৌচালা ঘর ও ঘরে থাকা এক শ’ মণ ধান, ১০ মন চাল, এক ভরি স্বর্ণের চেইন, এনজিও থেকে ঋণ করা ৪০ হাজার টাকা এবং আসবাবপত্রসহ যাবতীয় কাপড়চোপড় ভস্মীভূত হয়।

পরে সাইদুরের বাবা মোস্তফার একটি টিনের চৌচালা ঘরে আগুন লাগে। এসময় ঘরে থাকা ৫০ মণ ধান, ৪ মণ চাল ও নগদ ১২ হাজার টাকা ঘরসহ পুড়ে ছাই হয়।

পরে পার্শ্ববর্তী আহালু শেখের ছেলে ছাবেদ আলীর একটি টিনের চৌচালা ঘর ৫০ মণ ধান, চার মণ চাল ও নগদ পাঁচ হাজার টাকাসহ পুড়ে যায়।

আগুনের শিখায় পার্শ্ববর্তী মামুন, সুমন, আবুল ও ছাবেরন বেগমের ঘরের আংশিক ক্ষতি হয়। এসময় ওই বাড়ির পাশে থাকা নুর মোহাম্মদের কলা বাগানের কলাগাছ কেটে আগুন নিভানোর কাজে ব্যবহার করা হয়।

খবর পেয়ে শ্রীবরদী ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

মহিলা ইউপি সদস্য শিরিনা আক্তার জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি।

এ ব্যাপারে ফায়ার সার্ভিসের লিডার সাইফুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে আটজন কর্মী নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে আধা ঘন্টার মধ্যে আগুন নিয়ন্ত্রণ করতে সক্ষম হই এবং এক ঘন্টার মধ্যে সম্পূর্ণরূপে আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। এতে প্রায় আড়াই লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।


আরো সংবাদ

সকল




gebze evden eve nakliyat instagram takipçi hilesi