১৯ এপ্রিল ২০১৯

ময়মনসিংহে বিএনপির প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালনে পুলিশের বাঁধা

-

ময়মনসিংহে পুলিশের বাঁধার কারণে বিএনপির ৪০ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন করতে পারেনি দক্ষিণ জেলা বিএনপি। পরে পুলিশী বাঁধার প্রতিবাদে ও বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তির দাবিতে শহরের বিভিন্ন এলাকায় বিএনপি, যুবদল ও ছাত্রদল খন্ড খন্ড বিক্ষোভ মিছিল করেছে। ছাত্রদলের মিছিলে পুলিশ ধাওয়া ও লাঠিচার্জ করলে প্রায় অর্ধশত নেতাকর্মী আহত হয়। পরে পুলিশী বাঁধার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছে দক্ষিণ জেলা বিএনপি।
বেলা ১১টায় নতুনবাজার দলীয় কার্যালয়ে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে দক্ষিণ জেলা বিএনপির উদ্যোগে কেক কাটা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করলে পুলিশ দলীয় কার্যালয় তালাবদ্ধ করে চারদিকে অবস্থান নেয়। এসময় নেতাকর্মীদের কার্যালয়ের আশপাশেও আসতে দেয়নি পুলিশ। পরে বিক্ষিপ্তভাবে পুলিশী বাঁধার প্রতিবাদে ও বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে শহরের বিভিন্ন এলাকায় বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। ছাত্রদলের দক্ষিন জেলা সভাপতি মাহবুবুর রহমান রানা ও সাধারণ সম্পাদক আবু দাউদ রায়হানের নেতৃত্বে একটি মিছিল আমলাপাড়া থেকে বের হয়ে দলীয় কার্যালয়ে যাবার পথে ময়মনসিংহ মহাবিদ্যালয়ের সামনে পুলিশের বাঁধায় ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়।
এসময় পুলিশের ধাওয়া ও লাঠিচার্জে জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম-সম্পাদক কায়জার, সুরুজ, সহ-সম্পাদক মাহমুদ, সৌমিক, নাদিম, রিফাত, বাবু, পল্লব ও আকাশসহ প্রায় অর্ধশত নেতাকর্মী আহত হন। জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক আবুল কাশেমের নেতৃত্বে গফরগাঁও থেকে আগত নেতাকর্মীরা ময়মনসিংহ রেলস্টেশনে বিক্ষোভ মিছিল ও সামবেশ করে। যুবদলের জেলা সভাপতি শামীম আজাদের নেতৃত্বে চরপাড়া থেকে ব্রীজেরমোড় ও জেলা সাধারণ সম্পাদক খন্দাকার মাসুদুর রহমানের নেতৃত্বে জিলাস্কুল বডিং থেকে বাউন্ডারিরোড সাহেবআলী মোড় এবং ছঅত্রদলের সাবে সভাপতি রোকনুজ্জামান সরকার রোকনের নেতৃত্বে পৃথক বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। মিছিলে যুবদল নেতা রিয়াজুল কবির মামুন, দিদারুল ইসলাম রাজু, ছাত্রদলের শামসুল আলম উজ্জ্বল, সোহেল খান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
এদিকে বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও জেলা সভাপতি সাবেক জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী এ কে এম মোশাররফ হোসেন নিজ বাসভবনে সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করে পুলিশী বাঁধার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান। সংবাদ সম্মেলনে জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবু ওয়াহাব আকন্দ বলেন, পুলিশ জেলা বিএনপিকে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন করতে দেয়নি। এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে আগতদেরকে শহরের বিভিন্নস্থানে ধাওয়া করে ছত্রভঙ্গ করে দেয়া হয়েছে। শুক্রবার দিবাগত রাতে নেতাদের বাসায় পুলিশ হানা দিয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।
সংবাদ সম্মেলনে জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আলমগীর মাহমুদ আলম, যুগ্ম-সম্পাদক কাজী রানা ও শিব্বির আহমদ বুলু, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম মাহবুবুল আলম, স্বেচ্ছাসেবকদলের জেলা সভাপতি শহিদুল আলম খসরু, সাধারণ সম্পাদক তানভীরুল ইসলাম টুটুল, মহানগর সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম ফয়সালসহ জেলা বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীগণ উপস্থিত ছিলেন।
অপরদিকে ময়মনসিংহ উত্তর জেলা বিএনপির উদ্যোগে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে তারাকান্দায় আয়োজিত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ময়মনসিংহ উত্তর জেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত আহবায়ক ও তারাকান্দা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোতাহার হোসেন তালুকদার।


আরো সংবাদ

‘পণ্যে পারদের ব্যবহার পরিবেশ ও স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর’ বৈশাখী টিভির মালিকানা ডেসটিনিরই থাকছে সরকার খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে রাজনীতি করছে : ডা: ইরান পরিচ্ছন্নতাই স্বাস্থ্যসেবার প্রধান অংশ : মেনন আ’লীগের কার্যনির্বাহী সংসদ ও উপদেষ্টা পরিষদের যৌথসভা আজ ঢাবির এক-তৃতীয়াংশ পাণ্ডুলিপি ডিজিটাইজ করা হয়েছে : ভিসি অন্তর্ভুক্তিমূলক বাজেটে এমপিদের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ : স্পিকার সেনাবাহিনী প্রধানের কঙ্গো শান্তিরক্ষা মিশনের ফোর্স কমান্ডার ও ডেপুটি এসআরএসজির সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ কাদিয়ানিদের অমুসলিম ঘোষণার দাবি তামাকপণ্যের বিজ্ঞাপনে আইন মানা হচ্ছে না ‘ইস্পাহানি মির্জাপুর বাংলাবিদ’ কুমিল্লা ও নিকটবর্তী জেলাগুলোর বাছাইপর্ব আগামী রোববার

সকল




iptv al Epoksi boya epoksi zemin kaplama Daftar Situs Agen Judi Bola Net Online Terpercaya Resmi

Hacklink

Bursa evden eve nakliyat
arsa fiyatları tesettür giyim
Canlı Radyo Dinle hd film izle instagram takipçi satın al ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme

instagram takipçi satın al