১৪ নভেম্বর ২০১৯

টঙ্গীতে পুলিশের সোর্সকে কুপিয়ে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা

-

টঙ্গীতে আল আমিন (৩৪) নামে পুলিশের এক সোর্সকে কুপিয়ে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা। গত বৃহস্পতিবার রাতে মোক্তার বাড়ি জামতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আল আমিন কুমিল্লা জেলার বাঙ্গুরা বাজার থানার দৌলতপুর এলাকার সরু মিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য স্থানীয় সন্ত্রাসী সবুজের মা সুলতানা আক্তার ও নিহত আল আমিনের বন্ধু হাবীবুর রহমানকে আটক করেছে টঙ্গী পশ্চিম থানা পুলিশ।
ঘটনাস্থলের দোকান মালিকরা জানান, মোক্তার বাড়ি রোডের জামতলায় বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টায় চার-পাঁচজন যুবক অতর্কিতে ছোরা, রাম দা নিয়ে আল আমিনের ওপর চড়াও হয়। সন্ত্রাসীরা তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে দ্রুত দৌড়ে পালিয়ে যায়। পরে আশপাশের লোকজন তাকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি প্রাইভেট হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। স্থানীয়রা জানান, আল আমিন টঙ্গী পশ্চিম থানা পুলিশের সোর্স হিসেবে কাজ করত। তার দেয়া তথ্যে থানার একজন এএসআই এক মাদক কারবারিকে আটক করে। পরে ওই মাদক কারবারি পুলিশের কাছ থেকে ছাড়া পেয়ে সহযোগী মাদক কারবারিদের নিয়ে সঙ্ঘবদ্ধ হয়ে সোর্স আল আমিনকে কুপিয়ে হত্যা করে।
এ ব্যাপারে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই বিল্লাল হোসেন বলেন, একটি মোবাইল সংক্রান্ত ঘটনার জেরে এ হত্যাকাণ্ড হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। তবে তদন্তের পর হত্যাকাণ্ডের প্রকৃত কারণ জানা যাবে। এ ঘটনায় মামলার আসামি সন্ত্রাসী সবুজের মা সুলতানা আক্তার ও নিহত আল আমিনের বন্ধু হাবীবুর রহমানকে আটক করা হয়েছে।


আরো সংবাদ