২০ জানুয়ারি ২০২০

আশুলিয়ায় ব্যবসায়ীদের সাথে সংঘর্ষে পুলিশসহ আহত ৩

-

তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আশুলিয়ায় পুলিশ-ব্যবসায়ীদের ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া ও হামলায় পুলিশের একজন এএসআইসহ তিনজন আহত হয়েছেন। পুলিশ আহত দুই ব্যবসায়ীকে আটক করেছে। গতকাল বুধবার বেলা ১টায় আশুলিয়ার জামগড়া চৌরাস্তা এলাকার ওষুধের ফার্মেসিতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আহতরা হলেনÑ শিল্প পুলিশ-১ এর ইন্টেলিজেন্স এএসআই মাহমুদ হাসান (৩২), আশুলিয়ার কান্দাইল এলাকার আমান উল্লাহ মৃধার ছেলে ওষুধ ব্যবসায়ী আল আমিন মৃধা (২৮) এবং তার সেলসম্যান খাদেমুল ইসলাম (২২)।
এ ব্যাপারে আল আমিনের বাবা আমান উল্লাহ বলেন, দুপুরে সিভিল পোশাকে এএসআই মাহমুদ অ্যাবসল নামে একটি ক্রিম নিয়ে জামগড়া চৌরাস্তা এলাকায় তার ছেলে আল আমিনের মৃধা ফার্মেসিতে যান। সেখানে ফার্মেসির সেলসম্যান খাদেমুলের কাছে ক্রিমটি দিয়ে জানতে চান এটি কী কাজ করে। সে জানায়, ডাক্তার ছাড়া এর কার্যকারিতা সম্পর্কে কিছুই বলতে পারবেন না। এতে ওই এএসআই বাগি¦তণ্ডায় জড়িয়ে পড়েন এবং খাদেমুলকে ঘুষি মারেন। এ সময় আল আমিন এগিয়ে এলে তাকেও কিল ঘুষি মারেন। তখন আল আমিন তার দোকানে থাকা রড দিয়ে ওই এএসআইকে মারধর করে। এতে এএসআই মাহমুদের হাতের কব্জির ওপর হাড় ফেটে যায়। এ ঘটনা শিল্প পুলিশকে জানানো হলে কয়েকটি গাড়িতে শিল্প পুলিশের সদস্যরা গিয়ে ওই ফার্মেসিতে হামলা চালায়। এতে ওই দোকানে ব্যাপক ক্ষতি হয় এবং আল আমিন ও খাদেমুল গুরুতর আহত হন। এ সময় ওই এলাকার ব্যবসায়ীরা এগিয়ে এলে শিল্প পুলিশের সদস্যরা তাদের গাড়িতে আল আমিন ও সেলসম্যান খাদেমুল ইসলামকে তুলে নিয়ে শিল্প পুলিশ-১ এর হেড কোয়ার্টার্সে নিয়ে যায়।
স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, পুলিশের এসআই মাহমুদুল ইসলামের নেতৃত্বে পুলিশ সদস্যদের দুই-তিনটি গাড়িতে এসে দোকানে হামলা চালায় এবং আল আমিন ও খাদেমুলকে ব্যাপক মারধর করে রক্তাক্ত অবস্থায় প্রথমে স্থানীয় নারী ও শিশু স্বাস্থ্যকেন্দ্রে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে সেখান থেকে আশুলিয়ার শ্রীপুর এলাকার শিল্প পুলিশ-১ এর হেডকোয়ার্টার্সে নিয়ে যায়।
এ সংক্রান্ত বিষয়ে মোবাইলে জানতে চাইলে শিল্প পুলিশ-১ এর এসপি সানা সামিনুর রহমানের মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়। তবে আহত ইন্টেলিজেন্স এএসআই মাহমুদের কাছে মোবাইলে জানতে চাইলে তিনি বলেন, তিনি ভালো আছেন। তবে তিনি বলেন, এসপি স্যারের সামনে রয়েছি পরে কথা বলবেন বলেও জানান তিনি। এ ছাড়া এ ঘটনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে শ্রীপুর হেডকোয়ার্টার্সে গেলে সাংবাদিক পরিচয়ে কাউকে প্রবেশ করতে দেয়নি শিল্প পুলিশের দায়িত্বরতরা। তারা জানান, এসপি স্যারের অনুমতি নেই।


আরো সংবাদ

সকল

ফেসবুকে আজহারীর আবেগঘন স্ট্যাটাস (২৪৬৫৮)রাশিয়াকে সিরিয়ান তেলক্ষেত্রে যেতে বাধা মার্কিন সৈন্যদের, উত্তেজনা দুপক্ষেই (১০৩৬৪)ইরান সীমান্তে মার্কিন এফ-৩৫ জঙ্গিবিমান (৬৫৮৫)চীনের বিশাল বিনিয়োগ চুক্তি রাখাইনে (৬২৪১)সোলাইমানি হত্যা নিয়ে ট্রাম্পের নতুন তথ্য (৬০৬২)লিবিয়া নিয়ে জরুরী আলোচনায় এরদোগান-পুতিনসহ বিশ্বনেতারা (৫৪৬৭)ভয়ঙ্কর নারী! আই ড্রপ খাইয়ে অত্যাচারী স্বামীকে খুন (৪৭৯১)১৩৬ কেজি ওজনের সেই আইএস নেতা আটক; বহন করতে লাগলো ট্রাক (৪৫৬৩)এবার যুক্তরাষ্ট্রের টার্গেট যে ইরানি কমান্ডার (৪৪১৬)তামিম-মাহমুদুল্লাহদের নিরাপত্তায় পাকিস্তানের আইন-শৃংখলা বাহিনীর ১০ হাজার সদস্য (৪৪১০)



krunker gebze evden eve nakliyat