১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আড়াই কোটি অ্যান্ড্রয়েড ফোনে এজেন্ট স্মিথের হানা

আড়াই কোটি অ্যান্ড্রয়েড ফোনে এজেন্ট স্মিথের হানা - আড়াই কোটি অ্যান্ড্রয়েড ফোনে এজেন্ট স্মিথের হানা

নতুন এক ম্যালওয়্যার হানায় বিশ্বের প্রায় আড়াই কোটি অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন ব্যবহারকারী বিপাকে পড়েছেন। এর মধ্যে শুধু ভারতেরই প্রায় দেড় কোটি স্মার্টফোন রয়েছে। নতুন এই ম্যালওয়্যারের নাম ‘এজেন্ট স্মিথ’। ম্যালওয়্যার হলো একধরনের সফ্টওয়্যার যা ভাইরাসের মতোই কাজ করে। মোবাইল অথবা কম্পিউটারে একবার ঢুকলে, তা ব্যবহারকারীর সমস্ত ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করে নিতে পারে। থার্ড পার্টি অ্যাপ্লিকেশন ৯ অ্যাপ্স.কম থেকেই প্রথম এই ভাইরাস স্মার্টফোনে ছড়ায় বলে জানিয়েছে গবেষণা সংস্থা চেক পয়েন্ট রিসার্চ। বিশেষ করে আরবি, হিন্দি এবং মালয় ভাষাভাষির মানুষকেই সবচেয়ে বেশি টার্গেট করেছে এই ভাইরাস। ভারত, বাংলাদেশ, পাকিস্তানের মতো উন্নয়নশীল দেশগুলোর পাশাপাশি অস্ট্রেলিয়া, ব্রিটেন এবং আমেরিকার মতো প্রথম বিশ্বের দেশও এই ভাইরাস হানার শিকার হয়েছে। সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, শুধু এজেন্ট স্মিথই নয়, গত জুনে গোটা বিশ্বে এরকম অন্তত তিনটি ভাইরাস সক্রিয় ছিল।

নতুন এই ম্যালওয়্যার সম্পর্কে সংস্থাটি জানিয়েছে, আর্থিক লাভের লোভ দেখানো বিজ্ঞাপনের মধ্যেই লুকিয়ে থাকে এজেন্ট স্মিথ। ইন্টারনেট ব্যবহারকারী সেই বিজ্ঞাপনে ক্লিক করলেই, ভাইরাসটি স্মার্টফোনে ঢুকে পড়ে। সংশ্লিষ্ট ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর ব্যাঙ্কিং তথ্য জেনে নিতেই এইধরনের বিজ্ঞাপনের আড়ালে ভাইরাসটিকে রাখা হচ্ছে বলে মত সংস্থাটির।
চেক পয়েন্ট রিসার্চের তরফে প্রকাশিত প্রেস বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘গুগল-এর সঙ্গে সম্পর্কিত বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশনের ছদ্মবেশে থাকা এই ম্যালওয়্যার অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমের খামতিগুলিকে হাতিয়ার করে কাজ সারে। ব্যবহারকারীর অজান্তেই সে ফোন থেকে আসল অ্যাপ্লিকেশনটি সরিয়ে তার জায়গায় ভাইরাসযুক্ত অ্যাপ্লিকেশন ইনস্টল করে দেয়।


আরো সংবাদ