১৭ অক্টোবর ২০১৯

ক্যাসিনো থেকে দিনে ১২০ কোটি টাকা আসলেও রুগ্নতা কাটেনি ক্লাবগুলোর

ক্লাবের আর্থিক ব্যায় মেটানোর জন্য ক্যাসিনো কোন মাধ্যম হতে পারে না বলে মন্তব্য করেছেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল। তিনি বলেন, ক্লাবগুলো চাইলে সরকারের পক্ষ থেকে তাদের সহায়তা করা হবে। এছাড়াও সত্যিকারের সংগঠকরা যাতে ক্লাবের পরিচলনা পর্ষদে আসতে পারে, এ জন্য আইনের সংশোধন প্রয়োজন বলেও মন্তব্য করেন ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী।

ক্লাব পাড়ায় কেন ক্যাসিনো? এমন প্রশ্নের বিপরীতে এক অদ্ভুত যুক্তি রয়েছে কর্মকর্তাদের। সেটা হলো ক্লাবের ব্যয় মেটানোসহ খেলোয়াড়দের কিনতে যে প্রচুর পরিমাণ অর্থের প্রয়োজন হয় তার যোগান আসে সেখান থেকে। তবে বাস্তবতা বলছে ভিন্ন কথা।

অনুসন্ধান বলছে ঢাকার ক্যাসিনোগুলো থেকে ক্লাবগুলোর প্রতিদিন গড়ে আয় হতো ১২০ কোটি টাকা। অথচ যে দোহাই দিয়ে তারা অবৈধ এই ব্যবসা চালাতো সেখানে খরচ করতো না শিকি ভাগও। তাই বিপুল অর্থের মাঝেও রুগ্নভাব কাটেনি ক্লাবগুলোর।

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল বলেন, 'ক্লাব কিন্তু কখনও ক্যাসিনোর টাকা দিয়ে খেলাধুলা পরিচালনা করিনি। তারা কিন্তু স্পন্সর, উদ্যোক্তাদের থেকে সহযোগিতা নিয়েই কিন্তু ক্লাবগুলো চলেছে।'

বর্তমানে ডোনেশন নির্ভর একটা ক্লাব সংস্কৃতি চালু আছে আমাদের দেশে। যেখানে অর্থের বিনিময়ে যে কারোরই সুযোগ থাকে পরিচালনা পর্ষদে ঢুকে যাওয়ার। এই সুযোগেই অসাধুরা করছে সার্থ সিদ্ধি। আর এই বিষয়টি গুরুত্ব দিয়েই নীতিমালায় একটা পরিবর্তন আনতে চায় যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রনালয়।

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল এ ব্যাপারে বলেন, 'সময় এসেছে আইন পরিবর্তনের পাশাপাশি যোগ্য ব্যক্তিদের ক্লাবগুলোর দায়িত্ব দেয়া।'

তবে জটিলতা আছে সেখানেও। কেননা বানিজ্য ও সমাজকল্যাণ মন্ত্রনালয়ের অধীনে থাকায় যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রনালয়ের এখতিয়ার নেই ক্লাব কার্যক্রমে হস্তক্ষেপ করার। তাই সবার আগে আইনের সংশোধন আনা প্রয়োজন সেখানে।


আরো সংবাদ

টংগিবাড়ীতে ইলিশ কেনায় সাবেক চেয়ারম্যানসহ ২৮ ক্রেতাকে দণ্ড উপেক্ষিত শ্রম আইন; বঞ্চিত কর্মকর্তা কর্মচারীরা রাজশাহীর টিপু সুলতানের বিরুদ্ধে রায় যে কোনো দিন জেমি ডে’র হাত ধরে ফুটবলে বাংলাদেশের উত্থান হেমা মালিনি যে কারণে ধর্মান্তরিত হয়ে ৪ সন্তানের জনককে বিয়ে করেছিলেন কাশ্মির সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ফারুক আবদুল্লার মেয়ে এবং বোনকে ছেড়ে দিল ভারত বিশ্বকাপে সহ-আয়োজক হতে চায় বাংলাদেশ টেকনাফে মাদক মামলার ২ আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত সৎ মায়ের বিরুদ্ধে শিশু স্কুলছাত্রকে হত্যার অভিযোগ সিরিয়ায় যুদ্ধবিরতির মার্কিন আহ্বান তুরস্কের প্রত্যাখ্যান বাবরি মসজিদ মামলার শুনানি শেষ, রায় ১৭ নভেম্বর

সকল

ট্রাম্পের 'অতুলনীয় জ্ঞানের' সিদ্ধান্তে বদলে গেল সিরিয়া যুদ্ধের চিত্র (৩২১৮৮)ভারতের সাথে তোষামোদির সম্পর্ক চাচ্ছে না বিএনপি (১৮৪৫৫)মেডিকেলে চান্স পেলো রাজমিস্ত্রির মেয়ে জাকিয়া সুলতানা (১৪৯৪৬)তুরস্ককে নিজ ভূখণ্ডের জন্য লড়াই করতে দিন : ট্রাম্প (১৪৭০৩)আবরারকে টর্চার সেলে ডেকে নিয়েছিল নাজমুস সাদাত : নির্যাতনের ভয়ঙ্কর বর্ণনা (১৩৮১৫)পাকিস্তানকে পানি দেব না : মোদি (১১২৭৪)১১৭ দেশের মধ্যে ১০২ : ক্ষুধা সূচকে বাংলাদেশ-পাকিস্তানের চেয়ে পিছিয়ে ভারত (৮৯৭০)তুহিনকে বাবার কোলে পরিবারের সদস্যরা হত্যা করেছে : পুলিশ (৮৮৮৫)বাঁচার লড়াই করছে ভারতে জীবন্ত কবর দেয়া মেয়ে শিশুটি (৮৬৮৭)এক ভাই মেডিকেলে আরেক ভাই ঢাবিতে (৮৫২৩)



astropay bozdurmak istiyorum
portugal golden visa