১৯ আগস্ট ২০১৯

চিকিৎসা শেষে দেশে ফিরেছেন সিরাজুল আলম খান

-

নিউক্লিয়াস-বিএলএফ’র প্রতিষ্ঠাতা এবং স্বাধীনতা সংগ্রাম ও সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের প্রধান সংগঠক সিরাজুল আলম খান দেশে ফিরেছেন। বুধবার ভোরে নিউইয়র্ক থেকে চিকিৎসা শেষে ঢাকা তিনি ফেরেন। যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থানকালে তিনি তিনবার প্রাইভেট ক্লিনিকে পায়ের ব্যথার চিকিৎসা গ্রহণ করেন।
এরআগে গত ৭ জুলাই আকস্মিক মস্তিষ্কে প্রচন্ড ব্যথা অনুভব করলে তাৎক্ষণিকভাবে তাঁকে নিউইয়র্কের এলমহার্ষ্ট হাসপাতালের জরুরিবিভাগে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে কম্পিউটড টমোগ্রাফি স্ক্যান অর্থাৎ সিটি স্ক্যানিংসহ রক্ত ও হৃদযন্ত্রের বিভিন্ন ধরনের পরীক্ষা নেয়া হয়। হাসপাতালের জরুরি বিভাগে ২৪ ঘণ্টা অবস্থানের পর চিকিৎসকরা তাঁকে পূর্ণ বিশ্রাম ও নিয়মিত ঔষধ সেবনের পরামর্শ দেন।
প্রসঙ্গত. গত বছর ১৭ আগস্ট উত্তর সাইপ্রাসের নিয়ার ইস্ট ইউনিভার্সিটি হাসপাতালে তাঁর কোমর ও নিতম্বে (উরুসন্ধি) ঝুঁকিপূর্ণ জটিল অস্ত্রোপচার পর গত ৫ মে তিনি আবার সেখানে ১৮ দিন ধরে ফলোআপ চিকিৎসা গ্রহণ করেন। সেখানে তাঁর দুই হাঁটু ও দুই কাঁধের চিকিৎসাও করা হয়। এছাড়াও তিনি ওই হাসপাতালের অর্থোপেডিক, ফিজিক্যাল মেডিসিন, ডেন্টিস্ট্রি, ইউরোলজি, কার্ডিওলজিস্ট ও গ্লুকোমা বিশেষজ্ঞদের কাছে চিকিৎসা ও পরামর্শ নিয়েছেন এবং তাঁর কাঁধের চিকিৎসার জন্য তাঁকে ‘সোল্ডার রিপ্লেসমেন্ট’-এর জন্য চিকিৎসকরা পরামর্শ দিয়েছেন।
তিনি গত ২ মে চিকিৎসার উদ্দেশ্যে সাইপ্রাস যান।


আরো সংবাদ

bedava internet