২৩ জুন ২০১৮

কিমের সাথে বৈঠক শেষে যা বললেন ট্রাম্প

কিমের সাথে বৈঠক শেষে যা বললেন ট্রাম্প - সংগৃহীত

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সিঙ্গাপুরের সেন্টাসা দ্বীপে উত্তর কোরীয় নেতা কিম জং উনের সাথে একান্ত বৈঠক শেষ করেছেন।

এরপর সাংবাদিকদের তিনি বলেছেন, ‘এটা দারুণ বৈঠক হয়েছে। আমরা অনেক উন্নতি করেছি। বৈঠক খুবই ভালো ছিল। বৈঠক ইতিবাচক ছিল, আমাদের মধ্যে দুর্দান্ত সম্পর্কের সূচনা হয়েছে। আমাদের মধ্যে দারুণ সম্পর্কের শুরু হয়েছে।’

ট্রাম্প বলেন, ‘আলোচনা প্রত্যাশার চেয়েও খুবই ভালো হয়েছে। যে কারো ধারণার চেয়েও এটা ভালো হয়েছে। এতটা ভালো কেউ কল্পনাও করতে পারেনি। উত্তর কোরিয়ার সাথে চুক্তির দ্বারপ্রান্তে পৌঁছে গেছি।’

ট্রাম্প নিজেই চুক্তির কথা বলে চমকে দেন সাংবাদিকদের। তবে সেটা কিসের সমঝোতা তা নিয়ে জানা যায়নি। সাংবাদিকরা জিজ্ঞাসা করলে ট্রাম্প বলেন, কিছুক্ষণের মধ্যেই আপনারা জানতে পারবেন।

বৈঠক শুরুর প্রথমেই দুই দেশের পতাকার সামনে দাঁড়িয়ে হাত মেলান ট্রাম্প-কিম। ১২ সেকেন্ড ধরে হ্যান্ডশেক করেন তারা। কিমই প্রথম এসে ট্রাম্পের জন্য অপেক্ষা করতে থাকেন। এসময় তাদের সাথে শুধুমাত্র একজন দোভাষী ছিলেন। বৈঠকের আগে দুই নেতাই হাত মেলান এবং হাসতে থাকেন।

বৈঠক শুরুর আগে থেকেই ট্রাম্প বলেছিলেন, এটা দুর্দান্ত বৈঠক হবে। আর কিম বলেন, ‘এই অবস্থায় আসা আমাদরে জন্য সহজ ছিল না। সবসময়ই অতীত আমাদের টেনে ধরছিলো। তবে সবকিছু অতিক্রম করে আমরা ঠিকই আজ ইতিহাস তৈরি করেছি।’

সাংবাদিকদের তিনি বলেন, শান্তি জন্য বড় এক ঘটনা ছিল আজকের দিনটি। শুরুতেই হয় ৪০ মিনিটের একান্ত বৈঠক করেন দুই নেতা। পরে শীর্ষ কর্মকর্তাদের নিয়ে খাবারের টেবিলে আরো দুদফা বৈঠক করেন এই দুই নেতা।

একান্ত বৈঠকের পর দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষে অংশ নেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও, হোয়াইট হাউসের চিফ অব স্টাফ জন কেলি ও জাতীয় নিরাপত্তা পরামর্শক জন বোল্টন। স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ১১টায় শেষ হয় এই বৈঠকটি।


আরো সংবাদ