১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

চিকিৎসা শেষ না করে খালেদা জিয়াকে কারাগারে নেয়ার বিরুদ্ধে রিটের আদেশ বৃহস্পতিবার

-

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) হাসপাতালে খালেদা জিয়ার চিকিৎসা শেষ না করে থেকে কারাগারে পাঠানোর বৈধতা চ্যালেঞ্জ ও হাসপাতালে চিকিৎসা অব্যাহত রাখার আর্জি জানিয়ে দায়ের করা রিটের শুনানি শেষ হয়েছে। এ বিষয়ে আগামী ১৫ নভেম্বর বৃহস্পতিবার আদেশ দিবেন হাইকোর্ট।

আজ মঙ্গলবার বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ আদেশের জন্য এ দিন ধার্য করেন।

আদালতে খালেদার পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট এ জে মোহাম্মদ আলী। তাকে সহায়তা করেন, ব্যারিস্টার নওশাদ জমির ও ব্যারিস্টার কায়সার কামাল। আদালতে খালেদা জিয়ার আইনজীবী হিসেবে ছিলেন- সুপ্রিম কোর্ট বারের সভাপতি জয়নুল আবেদীন, সম্পাদক মাহবুবউদ্দিন খোকন, জামিল আক্তার এলাহী, আনিছুর রহমান খান প্রমুখ। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা।

এর আগে গত ১১ নভেম্বর বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) থেকে কারাগারে পাঠানোর বৈধতা নিয়ে রিট আবেদন করা হয়। রিট আবেদনে খালেদা জিয়াকে বিশেষায়িত হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা অব্যাহত রাখার কথা বলা হয়েছে।

স্বরাষ্ট্রসচিব, কারা কর্তৃপক্ষ, বিএসএমএমইউ কর্তৃপক্ষসহ নয়জনকে বিবাদী করা হয়েছে রিটে।

এ বিষয়ে খালেদা জিয়ার আইনজীবী ব্যারিস্টার নওশাদ জমির বলেন, আমরা আদালতে বলেছি খালেদা জিয়ার চিকিৎসা শেষ না করে মামলার কথা বলে কারাগারে নেয়া হয়েছে। আদালত শুনানি শেষে ১৫ নভেম্বর আদেশের দিন ধার্য করেছেন।

বিশেষায়িত হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা দিতে নির্দেশনা চেয়ে এর আগে খালেদা জিয়ার করা রিট আবেদনটি গত ৪ অক্টোবর নিষ্পত্তি করে কিছু নির্দেশনা ও পর্যবেক্ষণসহ আদেশ দেন হাইকোর্ট। হাইকোর্টের আদেশের পর চিকিৎসার জন্য ৬ অক্টোবর তাকে বিএসএমএমইউতে নেয়া হয়। এরপর থেকে তিনি ওখানে চিকিৎসাধীন ছিলেন। প্রায় এক মাস চিকিৎসার পর ৮ নভেম্বর বিএসএমএমইউ থেকে তাকে নাজিমুদ্দিন রোডের পুরনো কারাগারে ফিরিয়ে নেয়া হয়।


আরো সংবাদ

নাসা স্পেস অ্যাপস চ্যালেঞ্জে বিশ্বসেরা বাংলাদেশী ৫ তরুণ বেসরকারি হজ প্যাকেজ মূল্য ৩ লাখ ৪৫ হাজার ৮০০ টাকা খুলনায় ইবনে সিনা ফার্মাসিউটিক্যালের রিজিওনাল কনফারেন্স শশুরের মৃত্যুর পর জামাই প্রার্থী সংরক্ষিত আসনে বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বীতায় নির্বাচিত ৪৯ নারী এমপি শ্রীনগরে তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রীকে বিয়ে পাগলার হুমকি স্ত্রীকে হত্যা করে লাশ পাঠালেন শ্বশুরবাড়ি পাঠালেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ট্রাকের চাপায় দুই নৃত্যশিল্পীর মর্মান্তিক মৃত্যু জামায়াত ক্ষমা চাইলেও যুদ্ধাপরাধের বিচার চলবে : কাদের ঈশ্বরদীতে বিদ্যুস্পৃষ্টে রুশ নাগরিকের মৃত্যু প্রেমঘটিত বিরোধের জের ধরে মাদ্রাসা ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যা

সকল




Hacklink

ofis taşıma