১৫ অক্টোবর ২০১৯

কুমিল্লায় বাসের ধাক্কায় ৪ জন নিহত

অন্যান্য স্থানে নিহত আরও ৪
-

কুমিল্লার লালমাইতে বাসের ধাক্কায় চারজন নিহত হয়েছেন। এছাড়া খুলনায় সড়ক দুর্ঘটনায় দুই মাছ ব্যবসায়ী এবং দেশের অন্যান্য স্থানে সড়কে আরো দু’জন নিহত হয়েছেন।
কুমিল্লা সংবাদদাতা সংবাদদাতা জানান কুমিল্লার লালমাইতে দাঁড়ানো ট্রাককে পেছন থেকে একটি বাস ধাক্কা দিলে চার যাত্রী নিহত হয়েছেন। গত রাত ৮টার দিকে উপজেলার কেশনপাড় এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে। এ সময় আরো ১৫ জন যাত্রী আহত হন। নিহতরা হলেন, বরুড়া উপজেলার নশরতপুর গ্রামের আলী হোসেন (৬০), চেঙ্গাহাটা গ্রামের আবুল বাশার (৩৭), চৌদ্দগ্রাম উপজেলার ছোটচলুন্ডা গ্রামের হাসিনা বেগম (২৫) ও লালমাই উপজেলার কাপাশতলা গ্রামের নুরজাহান বেগম (৪৭)।
লালমাই হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ জিয়াউল চৌধুরী জানান, কুমিল্লা থেকে দোয়েল সুপার নামে একটি বাস উপজেলার বরুড়া উপজেলার একবালিয়ায় যাচ্ছিল। কেশনপাড় এলাকায় এসে বাসটি দাঁড়ানো একটি ট্রাককে পেছন থেকে ধাক্কা দেয়। ঘটনাস্থলে চার যাত্রী নিহত হন। এ সময় মুষলধারে বৃষ্টি হচ্ছিল। পুলিশ দুর্ঘটনাকবলিত বাস উদ্ধার করেছে।
খুলনা ব্যুরো জানায়, খুলনায় সড়ক দুর্ঘটনায় দুই পোনা মাছ ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। গতকাল দুপুরে নগরীর বাইপাস সড়কের আড়ংঘাটা শহীদের মোড়ে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেনÑ আরিফুল ইসলাম (১৫) ও ইনসান (২৫)। নিহত আরিফুল দিঘলিয়া উপজেলার ব্রহ্মগাতী গ্রামের হান্নানের ছেলে ও ইনসান একই গ্রামের ইমারত মোড়লের ছেলে।
এলাকাবাসী ও পুলিশ জানায়, খুলনা থেকে একটি নছিমন যশোরের দিকে যাচ্ছিল। নছিমনটি বাইপাস সড়কের শহীদের মোড়ে পৌঁছালে দ্রুতগামী কোনো একটি পরিবহনের সাথে ধাক্কা লেগে ছিটকে পড়ে। এতে ঘটনাস্থলেই নছিমনে থাকা ইনসান নিহত ও আরিফুল গুরুতর আহত হন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় আরিফুলকে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানে তিনিও মারা যান।
মুন্সীগঞ্জ সংবাদদাতা জানান, মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে টেম্পুর (নছিমন, করিমন) নিচে চাপা পড়ে বৃদ্ধা জরিনা বেগম (৭৫) আহত হয়ে মুমূর্ষু অবস্থায় ঢাকা মিটফোর্ড হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। গতকাল সকালে উপজেলার মালখানগর চৌরাস্তায় সড়ক পারাপারের সময় দ্রুত গতিতে আসা টেম্পোর চাপায় গুরুতর আহত হন তিনি। তিনি মালখানগর গ্রামের মৃত শেখ সদর আলীর (সাদা মিয়া) স্ত্রী।
জরিনা বেগমের ছোট ছেলে শেখ কামাল উদ্দিন জানান, সকালে তার মা কিছু কিনতে মালখানগর চৌরাস্তায় যান। সেখানে রাস্তা পারাপারের সময় একটা টেম্পো তাকে চাপা দেয়।
মাধবপুর (হবিগঞ্জ) সংবাদদাতা জানান, ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার শাহপুর এলাকায় দ্রুতগামী বাসের চাপায় ফিরোজ মিয়া (৪৫) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, গতকাল দুপুরে রাস্তা পারাপারের সময় দ্রুতগামী কুমিল্লা ট্রান্সপোর্টের একটি যাত্রীবাহী বাস তাকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই ফিরোজ মিয়া মারা যান। নিহত ফিরোজ মিয়া উপজেলার বাঘাসুরা ইউনিয়নের আলীনগর গ্রামের মৃত ফজলু মিয়ার ছেলে ও স্থানীয় একটি মসজিদের মুয়াজ্জিন।
ঠাকুরগাঁও সংবাদদাতা জানান, ঠাকুরগাঁওয়ে যাত্রীবাহী বাসের ধাক্কায় এক মোটরচালক নিহত হয়েছেন। গতকাল সকালে জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার তেঁতুল তলা (ভাতার মারি ইক্ষুখামার) নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতের নাম রমজান আলী (২৭)। তিনি পীরগঞ্জ উপজেলার জনগাঁও ইউনিয়নের চাঁদগাঁও গ্রামের বাসিন্দা ভুবন মিয়ার ছেলে।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী জানান, সকালে মোটরসাইকেলে ঠাকুরগাঁও শহরের উদ্দেশ্যে যাচ্ছিলেন রমজান আলী। ঠাকুরগাঁও থেকে পীরগঞ্জগামী যাত্রীবাহী বাসটি তাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দিলে ঘটনাস্থলেই মারা যান রমজান আলী।


আরো সংবাদ




astropay bozdurmak istiyorum