২২ জুলাই ২০১৯

বিএনপির এমপিরা শপথ নিয়েও সংসদকে অবৈধ বলছেন : তথ্যমন্ত্রী

মরহুম এম এ মান্নানের স্মরণসভায় বক্তৃতা করছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ : নয়া দিগন্ত -

বিএনপির বিভিন্ন কর্মকাণ্ডের কড়া সমালোচনা করে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি বলেছেন, তাদের নির্বাচিত সংসদ সদস্যরা শপথ নেয়ার পরও সেই মহান সংসদে দাঁড়িয়ে সংসদকে অবৈধ বলছেন। তাহলে কি তারা নিজেরাও অবৈধ! আসলে তারা সংসদকে নয় বরং নিজেরাই নিজেদের অবৈধ বলছেন।
গতকাল জাতীয় প্রেস ক্লাব মিলনায়তনে এম এ হান্নান পরিষদ আয়োজিত এক স্মরণ সভায় তিনি এ কথা বলেন। আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিনের সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন।
হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে বিজয়ী হয়ে শপথ নিয়েছে। তারপর সংসদে দাঁড়িয়ে তাদের একজন সংরক্ষিত মহিলা এমপি সেই সংসদকেই অবৈধ বলছেন। এর মধ্য দিয়ে তারা যে নিজেরাই অবৈধ সেটাই সংসদে দাঁড়িয়ে ঘোষণা করছেন। আমার মনে হয়, পশু-পাখিও যদি তাদের ভাষা বুঝতে পারত তাহলেও এগুলো বিশ্বাস করত না। আর বিএনপি দলটাই তো আগাগোড়া অবৈধ। কারণ, ক্ষমতা দখল করে ক্ষমতার উচ্ছিষ্ট বিলিয়ে জিয়াউর রহমান যে কর্মকাণ্ড করেছেন সেগুলোর সবই তো অবৈধ।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বাধীনতার ঘোষণা শুধু এদেশে নয়; সিবিএস চ্যানেলসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমে বিশ্বব্যাপী প্রচারিত হয়েছিল। বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমান জীবিত অবস্থায় কখনো নিজেকে স্বাধীনতার ঘোষক দাবি করেননি। কিন্তু জিয়ার মৃত্যুর পর হঠাৎ একদিন শুনতে পেলাম জিয়াউর রহমান নাকি স্বাধীনতার ঘোষক। জিয়াউর রহমান যদি বিএনপির এমন মিথ্যাচার শুনতেন, তাহলে তিনিও লজ্জা পেতেন। তিনি বলেন, এটা ইতিহাস বিকৃতি। বিকৃত ইতিহাস বেশি দিন টিকবে না। বর্তমান প্রজন্ম সঠিক ইতিহাস জানতে পারছে। সুতরাং, ইতিহাস বিকৃত করে আর কোনো কাজ হবে না।
খালেদা জিয়ার মুক্তি প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, বিএনপির অস্তিত্ব এখন মির্জা ফখরুল ইসলাম আর রিজভী সাহেবের সংবাদ সম্মেলনেই পাওয়া যায়। আমি তাদের বলব, খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য সরকারকে অনর্থক দোষারোপ না করে নিজের আইনজীবীদের দুর্বলতা কাটান।

 


আরো সংবাদ

সকল




gebze evden eve nakliyat instagram takipçi hilesi