২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮

দাকোপে ভাঙ্গন আতংকে নির্ঘুম রাত

-

দাকোপ উপজেলাধীন সুতারখালী ইউনিয়নে এক রাতে ৫ পরিবারের বসতবাড়ী নদীগর্ভে বিলীন হয়েছে। আশ্রয়হীন খোলা আকাশের নিচে তারা বসবাস করছেন । ভাঙন আতংকে নির্ঘুম রাত কাটাচ্ছে আরও অনেক পরিবার।
গত ২৮ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার দিবাগত রাতে ইউনিয়নের ৯ নম্বর কালাবগী ওয়ার্ডের শিবসা নদীর তীরবর্তি ফকিরকোনা এলাকার ৫ টি বসতভিটার গাছপালাসহ সব কিছু নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যায়। ক্ষতিগ্রস্থরা হল আরশাদ মোল্যা, তাজমল মোল্যা, আছাদুল শেখ, লোকমান সরদার ও সোহেল সরদার। এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, গভীর রাতে ভাঙ্গনের ফলে এসব পরিবারের বসতবাড়ী ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সকল আসবাব ও মালামাল নদীতে চলে যায়। তবে হতাহতের কোন ঘটনা ঘটেনি। ক্ষতিগ্রস্থরা দিনে খোলা আকাশের নিচে এবং রাতে গ্রামবাসী ও স্বজনদের বারান্দায় জীবন কাটাচ্ছেন। এখন পর্যন্ত তারা কোন ধরনের সাহায্য সহায়তা পায়নি বলে জানা গেছে।
অপরদিকে সুতারখালী ইউনিয়নের কালাবগী, নলিয়ান, কালীবাড়ী, সুতারখালী এবং কামারখোলা ইউনিয়নের বেশ কয়েকটি এলাকা বর্তমানে এখন ঝুকিপূর্ন অবস্থায় আছে। যে কোন সময় ঘরবাড়ি নদীগর্ভে চলে যেতে পারে আতংকে নির্ঘুম রাত কাটছে তাদের । তারা এ বিষয়ে প্রশাসনের দ্রুত পদক্ষেপের অপেক্ষায় আছে।
এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান মাসুম আলী ফকির আশ্রয়হীন ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের কথা উল্লেখ করে বলেন, ঘটনার পর পরই আমি সরেজমিন গিয়ে তাদের জীবন যাপনের দূর্দশা দেখেছি। উপজেলা পরিষদ এবং এমপি বরাবর ক্ষতিগ্রস্থদের পূর্নবাসনের দাবি জানিয়েছি। এ ছাড়া নলিয়ান এবং কালীবাড়ী এলাকার ভীতিকর অবস্থার কথা তুলে ধরে তিনি দ্রুত ভাঙ্গনরোধের ব্যবস্থা নেয়ার দাবী জানান।


আরো সংবাদ

দুর্নীতিগ্রস্থ শক্তিকে নিয়ে জাতীয় ঐক্য কেউ মেনে নিবে না:  শহীদুল ইসলাম দেশে ওয়ান ইলেভেনের ষড়যন্ত্র চলছে : নাসিম আটক ৫ জনকে আদালতে হাজির না শিবিরের উদ্বেগ এই অধিকার কে দিয়েছে আপনাদের, সরকারকে বি. চৌধুরীর প্রশ্ন কালীগঞ্জে জাতীয় পার্টির বহরে হামলা মার্কিন সিনেট ও কংগ্রেসের সামনে বিক্ষোভ করবে বিএনপি সিরাজগঞ্জে শিবির কর্মীদের মসজিদ থেকে ধরে নিয়ে প্রেট্রোলবোমার নাটক সাজানো হয়েছে : শিবির 'আমি হাউজ হাজবেন্ড, তা নিয়ে অন্য লোকের সমস্যা কেন?' যেকোন মূল্যে খালেদা জিয়াকে ক্ষমতার বাইরে রাখতে হবে : ইনু আ’লীগ ছাড়া জাতীয় ঐক্য হবে না : ওবায়দুল কাদের এশিয়া কাপ : ৩ ক্রিকেটারের শাস্তি

সকল