২০ নভেম্বর ২০১৮

পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী যৌন হয়রানির শিকার, শিক্ষক সাময়িক বরখাস্ত

অভিযুক্ত শিক্ষকের শাস্তির দাবিতে অভিভাবকসহ স্থানীয়রা মানববন্ধন করেন। - ছবি: নয়া দিগন্ত

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলার ৬১নং শৌলখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রী শ্লীলতাহানীর অভিযুক্ত সহকারি শিক্ষক দেবব্রত সমদ্দারের বিচারের দাবিতে শনিবার সকাল ১১ টায় মানববন্ধন করা হয়েছে। হোগলাপাশা ইউনিয়নের সর্বস্তরের জনগনের ব্যানারে এলাকাবাসীসহ বিদ্যালয়ের অভিভাবক ও শিক্ষার্থীরা এ মানবন্ধন করেছে।

বিদ্যালয়ের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, ইউপি সদস্য দিপক কুমার মাঝি, আওয়ামীলীগ নেতা সফর আলী হাওলাদার, ছাত্রী অভিভাবক অনন্ত বাচার, বিল্লাল মিস্ত্রী, ছাত্র অভিভাবক নজররুল ইসলাম হাওলাদার, মতি হাওলাদার ,জব্বার হাওলাদার, জাকির হাওলাদার, আনছার বেপারী, আব্দুস সত্তার বেপারী।

বক্তরা অনতিবিলম্বে দোষী শিক্ষককে গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান। মানববন্ধনে শতাধিক লোক অংশগ্রহন করেন।

জানা যায়, বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক দেবব্রত সমদ্দার গত ২৭ আগষ্ট সকাল ৭টার দিকে কোচিং সেন্টারে পাঠদানের সময় ৫ম শ্রেণির এক ছাত্রীর সাথে জোরপূর্বক অসৌজন্যমূলক ও অশ্লীল আচরণ করেন। এ ঘটনায় ছাত্রীর পিতা বড় হরিপুর গ্রামের জাহাঙ্গীর মাঝি পরের দিন মঙ্গলবার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মোরেলগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন (মামলা নং-৪২)। এ মামলা দায়ের পর থেকেই শিক্ষক দেবব্রত পলাতক রয়েছে।

প্রধান শিক্ষক শাহানা বেগম বলেন, মামলা দায়েরের পর জেলা শিক্ষা অফিসার অশোক কুমার সমদ্দার ঐ শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত করেছে। উপজেলা শিক্ষা অফিসার আশীষ কুমার নন্দী জানান, অপরাধী যেই হোক তাকে আইনের আওতায় নিয়ে আসতে হবে।

 


আরো সংবাদ