১৯ এপ্রিল ২০১৯

কেমন চলছে বিশ্বকাপ ফাইনালের প্রস্তুতি?

ফুটবল
ক্রোয়েটদের উপস্থিতি চোখে পড়ার মত - ছবি : বিবিসি

২০১৮ ফুটবল বিশ্বকাপ শেষের পথে। ফাইনাল ম্যাচ উপলক্ষে প্রস্তুত হচ্ছে মস্কো ও দু দলের সমর্থকরা।

ক্রোয়েশিয়ার জন্য উৎসবের মঞ্চটা বড়, প্রথমবারের মতো ফাইনালে ওঠার আনন্দে উদ্বেলিত দেশটির ফুটবল ভক্তরা।

মস্কোর লুঝনিকিতে ফাইনাল, তবে উৎসব আছে শহরের বিভিন্ন জায়গায়।

ক্রেমলিন, রেড স্কয়ারের মতো জায়গাগুলোতে ভিড় জমাচ্ছেন ফুটবল ভক্তরা।

রাশিয়ানদের মধ্যে বিশ্বকাপ নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া, রাশিয়ার এক শিক্ষার্থী সাশা বিবিসি বাংলাকে বলেন, ‘রাশিয়া গর্বিত। এখানকার পরিস্থিতি গেলো মাসে খুব সুন্দর ছিল, আমরা আসলেই গর্বিত এমন আসর আয়োজন করে।’

বিশ্বকাপ এখন শেষ বাঁশির অপেক্ষায়, তাই শেষ আমেজটুকু উপভোগ করছেন স্থানীয় ও বিভিন্ন দেশ থেকে খেলা দেখতে আসা ফুটবল ভক্তরা।

পুরো মাস জুড়ে চলা ফুটবল মেলা ক্ষান্ত হবার আগে পুরোটা মন ভরে উপভোগ করতে চান রাশিয়ানরা। তারা মনে করেন রাশিয়ার জন্য এটা অনেক বড় একটা আসর। বিভিন্ন দেশের অতিথিদের আতিথেয়তা দিয়ে তারা গর্বিত।

রাশিয়া বিশ্বকাপের এক স্বেচ্ছাসেবক দারিয়া আন্দালফ বলেন, ‘আমরা খুব উপভোগ করেছি। এখানে বিভিন্ন দেশের খেলোয়াড় এসেছে, বিভিন্ন দেশের মানুষের সাথে কথা বলেছি। রাশিয়ার জন্য এটা অনেক বড় ইভেন্ট। আমরা এই সময়টা মনে রাখবো।’

রাশিয়া বিশ্বকাপের সবচেয়ে বড় চমক ক্রোয়েশিয়া, নক আউট পর্বের ২টি ম্যাচ পেনাল্টি শুটআউট ও একটি ম্যাচ অতিরিক্ত সময়ের উত্তেজনায় পাড় করে নিজেদের প্রথম বিশ্বকাপ ফাইনালে উঠেছে ক্রোয়েটরা।

এর আগে সংখ্যায় কম দেখা গেলেও সেমিফাইনালের পর লাল সাদা জার্সির আধিক্য চোখে পড়ার মতো।

একজন ক্রোয়েট নারী দারিয়া রাদালজভ বলেন, ‘আমি আসলেই খুব আনন্দিত, 'এটা আমাদের জন্য অনেক বড় কিছু। আমি বিশ্বাস করি, ক্রোয়েশিয়া জিতবে, এটা আমাদের সময়।’

ক্রোয়েশিয়ার আরেক সমর্থক মনে করেন ক্রোয়েশিয়ার মতো দেশের জন্য উপলক্ষটা অনেক বড়।

তিনি বলেন, ‘আমরা খুবই উত্তেজিত, লুকা মদ্রিচ শুধু আমাদের না বিশ্বে সেরা মিডফিল্ডার আমরা ওদের ওপর ভরসা রাখি। আমরা অনেক ছোট দেশ মাত্র ২৮ বছর হল স্বাধীনতার। আমরা গোটা সময়টা উপভোগ করতে চাই।’

১৫ই জুলাই মস্কোর লুঝনিকি স্টেডিয়ামে আয়োজিত হবে ফ্রান্স ও ক্রোয়েশিয়ার মধ্যকার বিশ্বকাপ ফাইনাল।

ফরাসি সমর্থকরা শুরু থেকেই সংখ্যায় অনেক বড় থাকলেও, এবার বাড়তে শুরু করেছে ক্রোয়েশীয় ঢল। রাশিয়ানরাও প্রস্তুত আয়োজন ও আতিথেয়তা দিয়ে। প্রশ্ন একটাই, লুঝনিকিতে কে হাসবে শেষ হাসি? ফ্রান্স নাকি ক্রোয়েশিয়া?। সূত্র: বিবিসি

আরো পড়ুন :
১৩তম দেশ হিসেবে বিশ্বকাপের ফাইনালে ক্রোয়েশিয়া
ইংল্যান্ডকে হারিয়ে রাশিয়া ফুটবল বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেছে ক্রোয়েশিয়া। বিশ্বকাপের ইতিহাসে এই প্রথম ফাইনালে উঠলো ক্রোয়েশিয়া। নিজেদের ইতিহাসে প্রথম হলেও বিশ্বকাপ ইতিহাসে ১৩তম দেশ হিসেবে ফাইনাল খেলার যোগ্যতা অর্জন করলো ক্রোয়েশিয়া।

বিশ্বকাপের ইতিহাসে এখন পর্যন্ত ফাইনাল খেলেছে ১২টি দল। দলগুলো হলো- ব্রাজিল, জার্মানি, আর্জেন্টিনা, উরুগুয়ে, ইতালি, ফ্রান্স, ইংল্যান্ড, স্পেন, নেদারল্যান্ডস, হাঙ্গেরি, চেকোস্লাভিয়া ও সুইডেন।

চারবারের চ্যাম্পিয়ন জার্মানি সর্বোচ্চ আটবার বিশ্বকাপের ফাইনালে খেলে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সাতবার বিশ্বকাপের ফাইনাল খেলে পাঁচবারের চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিল। তৃতীয় সর্বোচ্চ ছয়বার বিশ্বকাপের ফাইনাল খেলার স্বাদ নেয় চারবারের চ্যাম্পিয়ন ইতালি। দু’বারের চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনার ফাইনালে খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে পাঁচবার। একবারের চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্সের মত তিনবার ফাইনাল খেলে নেদারল্যান্ডস। দু’বার করে ফাইনাল খেলে হাঙ্গেরি-চেকোস্লাভিয়া। একবার করে ফাইনাল খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে ইংল্যান্ড-স্পেন-সুইডেনের।

ফাইনালে উপস্থিত থাকবেন আইওসি সভাপতি
রাশিয়া ২০১৮ ফুটবল বিশ্বকাপের ফাইনালে উপস্থিত থাকবেন আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির (আইওসি) সভাপতি থমাস বাখ। সংগঠনের পক্ষ থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে।

আগামী রোববার মস্কোর লুজনিকি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে বিশ্বকাপের ফাইনাল ম্যাচ। এতে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে ফ্রান্স ও ক্রোয়েশিয়া। ঐতিহ্যগত ভাবেই বিশ্বকাপের ফাইনাল ম্যাচ দেখার জন্য ফিফার পক্ষ থেকে আইওসি সভাপতিকে আমন্ত্রণ জনানো হয়। চার বছর আগে ব্রাজিলে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপের ফাইনালেও উপস্থিত ছিলেন আইওসি সভাপতি বাখ।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বিশ্বকাপ ফাইনাল ম্যাচ দেখার জন্য মাঠে উপস্থিত থাকার পরিকল্পনা রয়েছে বলে এর আগে জানিয়েছিলেন ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ। রাশিয়ায় প্রথমবারের মত আয়োজিত বিশ্বকাপ ফুটবলের উদ্ধোধনী অনুষ্টানও অনুষ্ঠিত হয়েছিল লুজনিকি স্টেডিয়ামে। ১৪ জুন জমকালো অনুষ্ঠানমালার মধ্য দিয়ে পর্দা উঠে ‘গ্রেটেস্ট শো অন দ্য আর্থ’ খ্যাত এই টুর্নামেন্টের। দেশটির ১১টি ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত হয় টুর্নামেন্টের খেলাগুলো।

উপস্থিত থাকবেন উ. কোরিয়ার উপ-প্রধানমন্ত্রী
আগামী ১৫ জুলাই ফিফা বিশ্বকাপের সমাপনী অনুষ্ঠানে অংশ নিতে রাশিয়া সফর করবেন উত্তর কোরিয়ার উপ-প্রধানমন্ত্রী এবং ডিপিআর’কে ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি রি রিয়ং ন্যাম। দেশটির দূতাবাস একথা জানিয়েছে।

দূতাবাসের ফেসবুক একাউন্টে বলা হয়, ‘উত্তর কোরিয়ার উপ-প্রধানমন্ত্রী ও ডিপিআর’কে ফুটবল এসোসিয়েশনের সভাপতি রি রিয়ং ন্যাম ফিফার আমন্ত্রনে বিশ্ব ফুটবল চ্যাম্পিয়নশীপের সমাপনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত হবেন।’

আগামী ১৫ জুলাই রোববার মস্কোর লুজনিকি স্টেডিয়ামে বিশ্বকাপের ফাইনালে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে ফ্রান্স ও ক্রোয়েশিয়া।


আরো সংবাদ

iptv al Epoksi boya epoksi zemin kaplama Daftar Situs Agen Judi Bola Net Online Terpercaya Resmi

Hacklink

Bursa evden eve nakliyat
arsa fiyatları tesettür giyim
Canlı Radyo Dinle hd film izle instagram takipçi satın al ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme

instagram takipçi satın al