২৬ মে ২০১৯

প্রেসিডেন্ট বনাম অলিম্পিক চ্যাম্পিয়ন লড়াই

জুডোর কোর্টে ভ্লাদিমির পুতিন ও অলিম্পিক চ্যাম্পিয়ন বেসলান মাদরানোভ - ছবি : সংগ্রহ

অলিম্পিকে স্বর্ণ জয়ী জুডো তারকার সাথে লড়াইয়ে নেমে আহত হয়েছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। বিশ্বচ্যাম্পিয়নের বিরুদ্ধে লড়তে গিয়ে হাতের আঙ্গুলে আঘাত পান তিনি। বৃহস্পতিবার রাশিয়ার কৃষ্ণসাগর উপকূলীয় নগরী সোচির জুডো সেন্টারে এই লড়াইয়ে নেমেছিলেন প্রেসিডেন্ট।

সিরিয়া নিয়ে ইরান, তুরস্ক ও রাশিয়ার ত্রিদেশীয় সম্মেলন উপলক্ষে সোচি গিয়েছিলেন পুতিন। সম্মেলনের পরদিন জুডো সেন্টারে হাজির হন পুতিন। সেখানে তখন প্র্যাকটিস চলছিলো রাশিয়ার জাতীয় দলের। ৬৬ বছর বয়সী পুতিন এক পর্যায়ে জুডো লড়াইয়ে নামেন ২০১৬ অলিম্পিকের স্বর্ণপদক জয়ী রুশ জুডো তারকা বেসলান মাদরানোভের বিরুদ্ধে। খেলার মাঝপথেই পুতিন তার আঙ্গুলে ব্যথা পাওয়ার কথা জানান। তবে এরপর তিনি আবার খেলা চালিয়ে গেছেন।

ভিডিওতে দেখা গেছে খেলায় পুতিন একবার মাদরানোভকে ভূপাতিত করেন। তবে এরপরই তিনি আঙ্গুলে ব্যথা পান, তাৎক্ষণিকভাবে ব্যান্ডেজ করা হয় ব্যথাস্থানে।

দক্ষ অ্যাথলেট হিসেবে ভ্লাদিমির পুতিনের সুনাম আছে। জুডোতে ব্ল্যাকবেল্টধারী তিনি। এছাড়া মার্শল আর্টের বেশ কয়েকটি শাখায় দক্ষতা আছে তারা। দারুণ আইস হকি খেলতে পারেন এই বয়সেও। পাহাড়ি অঞ্চলে ঘোড়ায় চড়া, লেকের পানিতে নেমে মাছ ধরার ছবি প্রায়ই আসে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে।

জুডোতে আহত হওয়ার পরদিন শুক্রবারই আবার আইস হকি খেলতে নামে গোয়েন্দা এজেন্ট থেকে রাজনীতিতে আসা ভ্লাদিমির পুতিন। এক সময়ে দুর্ধর্ষ কেজিবি এজেন্ট পুতিন রাশিয়ার রাষ্ট্রক্ষমতায় আছেন ২০০০ সাল থেকে।

শুক্রবার আইস হকি খেলতে নেমে পুতিন তার আঙ্গুলের ইনজুরি নিয়ে কৌতুক করেন। সে সময় তার সাথে ছিলেন বেলারুশের প্রেসিডেন্ট আলেকজান্ডার লুকাশেঙ্কো। তিনি কৌতুক করে তাকে বলেন, ‘খুব বেশি কিছু হয়নি, একটি আঙ্গুল মচকে গেছে আর নখ উঠে গেছে কিছুটা। আমি ঠিক আছি। আমি তো আর মেয়ে মানুষ নই যে কাঁদবো।


আরো সংবাদ

Instagram Web Viewer
agario agario - agario