২০ মে ২০১৯

ববিতে উপচার্য বিরোধী আন্দোলনে ডাকসুর একাত্মতা

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (ববি) উপচার্য বিরোধী আন্দোলনে একাত্মতা ও সংহতি প্রকাশ করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু)। বৃহস্পতিবার সহ সভাপতি মোঃ নুরুল হক ও সাধারণ সম্পদক গোলাম রাব্বানির স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই একাত্মতা পোষণের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

বিজ্ঞপ্তিতে তারা বলেন, বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে ৩১ দিন যাবত উপচার্য বিরোধী শান্তিপূর্ণ আন্দোলনে চলমান। যার পরিপ্রেক্ষিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে কার্যত অচলাবস্থা সৃষ্টি হয়েছে। এই আন্দোলনকে যৌক্তিক বিবেচনা করে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকমন্ডলী ক্লাস বর্জন করেছেন। ইতোমধ্যে ৫৬ জন শিক্ষক প্রশাসনিক পদ থেকে পদত্যাগ করেছেন। বুধবার থেকে শুরু হয়েছে শিক্ষক ও শিক্ষর্থীদের আমরণ অনশন। অনশনে ৩ শিক্ষক ও ৬ শিক্ষার্থী ইতেমধ্যে অসুস্থ্য হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। শিক্ষার্থীদের দাবি না মেনে উপচার্য নানাভাবে তাদের হুমকি দিচ্ছে এবং শিক্ষকদের বেতন-ভাতা বন্ধ করে দেয়ার মতো হটকারী সিদ্ধান্ত দিচ্ছেন যা আরো গভীর উদ্বেগের।

আমরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের এই যৌক্তিক আন্দোলনে একাত্মতা ও সংহতি প্রকাশ করছি। এবং উদ্ভুত সমস্যা সমাধানের জন্য কর্তৃপক্ষকে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়ার উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি।

প্রসঙ্গত, বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. ইমামুল হক স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ক্যাম্পাসে নানা কর্মসূচির ঘোষণা দিলেও ফুল দেয়া ছাড়া আর কোনও অনুষ্ঠানে (মধ্যাহ্নভোজন ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান) শিক্ষার্থীদের রাখা হয়নি। এর প্রতিবাদ করা হলে ২৬ মার্চ দুপুরে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ডিবেটিং সোসাইটির (বিইউডিএস) একটি প্রোগ্রামে ভিসি আন্দোলনকারীদের ‘রাজাকারের বাচ্চা’ বলে সম্বোধন করেন।


আরো সংবাদ




agario agario - agario