০৬ ডিসেম্বর ২০১৯

পেঁয়াজের বাজার ‘অতিদ্রুত’ স্বাভাবিক হবে : বাণিজ্য সচিব

-

সরকারের উদ্যোগের ফলে অতিদ্রুত পেঁয়াজের বাজার স্বাভাবিক হয়ে আসবে বলে দাবি করেছেন বাণিজ্য সচিব ড. জাফর উদ্দিন। আজ সোমবার সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ দাবি করেন।

বাণিজ্য সচিব বলেন, সম্প্রতি মিয়ানমার পেঁয়াজের রফতানিমূল্য চারগুণ বৃদ্ধি করায় এবং ঘুর্ণিঝড় বুলবুলের কারণে ২/১ দিন যাবৎ বাজারে পেঁয়াজের মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে।

‘আবার সমুদ্রপথে বিদেশ থেকে পেঁয়াজ আমদানিতে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে দেড় মাসের মতো সময় লেগে যাচ্ছে। বর্তমানে উল্লেখযোগ্য পরিমাণ পেঁয়াজের চালান বাংলাদেশের উদ্দেশে সমুদ্রপথে রয়েছে,' যোগ করেন তিনি।

এমন পরিপ্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী আপৎকালীন সমস্যা নিরসনে তড়িৎগতিতে কার্গো বিমানযোগে মিসর, তুরস্ক, চীনসহ বিভিন্ন দেশ থেকে পেঁয়াজ আমদানির উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে বলেও জানান বাণিজ্য সচিব।

কার্গো বিমানের প্রথম চালান মঙ্গলবার দেশে এসে পৌঁছাবে জানিয়ে সচিব বলেন, ‘ইতোমধ্যে দেশের বিভিন্ন জেলায় নতুন পেঁয়াজ বাজারে আসতে শুরু করেছে। টিসিবির কার্যক্রম ঢাকাসহ সারাদেশে জোরদার করা হয়েছে।’

এছাড়া, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও জেলা প্রশাসনের তদরকি অব্যাহত রয়েছে দাবি করে তিনি বলেন, ‘এ পর্যন্ত প্রায় আড়াই হাজার অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। এসব উদ্যোগের ফলে অতিদ্রুত পেঁয়াজের বাজার স্বাভাবিক হয়ে আসবে।’

এর আগে সচিব জানান, দেশের আমদানিকৃত পেঁয়াজের সিংহভাগ ভারত থেকে আসলেও চলতি বছর বন্যার কারণে ভারতে পেঁয়াজের উৎপাদন ব্যাহত হওয়ায় সেপ্টেম্বরের শেষ সপ্তাহে ভারত পেঁয়াজ রফতানি সম্পূর্ণভাবে বন্ধ ঘোষণা করে।

ভারত থেকে রফতানি বন্ধের পরই বাণিজ্য মন্ত্রণালয় বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করেছে দাবি করে তিনি বলেন, আমদানিকারকদেরকে ভারতের বাইরে বিভিন্ন দেশ হতে পেঁয়াজ আমদানিতে উদ্বুদ্ধ করা হয়।

- ইউএনবি


আরো সংবাদ




Paykwik Paykasa
Paykwik