film izle
esans aroma Umraniye evden eve nakliyat gebze evden eve nakliyat Ezhel Şarkıları indirEzhel mp3 indir, Ezhel albüm şarkı indir mobilhttps://guncelmp3indir.com Entrumpelung wien Installateur Notdienst Wien webtekno bodrum villa kiralama
২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০

মোবাইল ব্যাংকিংয়ে লেনদেন সীমা বাড়লো

মোবাইল ব্যাংকিংয়ে লেনদেনে সীমা ৩ গুন পর্যন্ত বাড়ালো বাংলাদেশ ব্যাংক। আগে যেখানে দিনে ২ বারে সর্বোচ্চ ১৫ হাজার টাকা ক্যাশইন করা যেতো। এখন তা বাড়িয়ে দিনে ৫ বার সর্বোচ্চ ৩০ হাজার টাকা ক্যাশ ইন করা যাবে।

আর একজন গ্রাহক তার ব্যক্তি মোবাইল হিসেবে সর্বোচ্চ ৩ লাখ টাকা স্থিতি রাখতে পারবেন। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, মোবাইল ব্যাংকিংয়ে লেনদেনের সীমা বাড়ানোর ফলে হুন্ডি তৎপরতা আরো বেড়ে যেতে পারে। কমে যেতে পারে রেমিট্যান্স প্রবাহ।

জানা গেছে, মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে বিপুল পরিমাণ অর্থ হুন্ডির মাধ্যমে পাচারের প্রমাণ পায় বাংলাদেশ ব্যাংক। এর ফলে বিদেশ থেকে বিশেষ করে মধ্যপ্রাচ্য থেকে রেমিট্যান্স প্রবাহ বিপুল পরিমাণ কমে যায়। একই সাথে অবৈধ পথে বিশেষ করে ব্যাংকিং চ্যানেলের বাইরে মোবাইলে হুন্ডির মাধ্যমে রেমিট্যান্স আসার প্রবানতা বেড়ে যায়। মধ্যপ্রাচ্যের কয়েকটি দেশে বাংলাদেশ ব্যাংকের কর্মকর্তারা সরেজমিনে পরিদর্শনে গিয়ে এমন অভিযোগের সত্যতা পায়।

বৈধপথে বিশেষ করে ব্যাংকিং চ্যানেলে রেমিট্যান্স প্রবাহ বাড়াতে ২০১৭ সালের ১১ জানুয়ারি এক সার্কুলারের মাধ্যমে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের লেনদেনের সীমা কমিয়ে আনে বাংলাদেশ ব্যাংক। ওইসময় দিনে ২ বারে এক জন ব্যক্তির ক্যাশইন করার অনুমোতি দেয়া হয় সর্বোচ্চ ১৫ হাজার টাকা এবং মাসে সর্বোচ্চ মোট ২০ বারে এক লাখ টাকা। আর এক জন ব্যক্তির দিনে ২ বারে ক্যাশ আউট করার অনুমোতি দেয়া হয় সর্বোচ্চ ১০ হাজার টাকা এবং মাসে ১০ বারে সর্বোচ্চ ৫০ হাজার টাকা।

বাংলাদেশ ব্যাংকের এমন নির্দেশণার পর মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে হুন্ডি তৎপরতা অনেকাংশে কমিয়ে এসেছিল। আর বৈধ পথে বিশেষ করে ব্যাংকিং চ্যানেলের মাধ্যমে রেমিট্যান্স প্রবাহ বেড়ে গিয়েছিল। কিন্তু মাত্র ২ বছরের মাথায় বাংলাদেশ ব্যাংক আবারো মোবাইল ব্যাংকিংয়ের লেনদেন সীমা ৩ গুন পর্যন্ত বাড়িয়ে দিলো।

এ বিষয়ে রোববার বাংলাদেশ ব্যাংকের পেমেন্ট সিস্টেমস বিভাগ থেকে এ সার্কুলার জারি করা হয়েছে। তা বিভিন্ন ব্যাংকের প্রধান নির্বাহীকে অবহিত করা হয়েছে।

পুনঃনির্ধারিতসীমা অনুযায়ী এখন একজন ব্যক্তি দিনে সর্বোচ্চ ৫ বারে ৩০ হাজার টাকা ক্যাশ ইন করতে পারবে এবং মাসে ২৫ বারে করতে পারবে ২ লাখ টাকা। আর দিনে ৫ বার সর্বোচ্চ ক্যাশ আউট করা যাবে ২৫ হাজার টাকা এবং মাসে ২০ বার দেড় লাখ টাকা ক্যাশ আউট করা যাবে।

মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে লেনদেনের সীমা বাড়ানোর যুক্তিকতা তুলে ধরে বাংলাদেশ ব্যাংকের সার্কুলারে বলা হয়েছে, দেশের দ্রুত বর্ধনশীল অর্থনীতির সাথে তাল মিলিয়ে চলতে মোবাইল ব্যাংকিং সেবা বর্তমানে নতুন খাত সম্প্রসারণে যেমন রেমিটেন্স বিতরণ, ই-কমার্স, ক্ষুদ্র ব্যবসা, বেতন প্রদান ইত্যাদি খাতে ভূমিকা রাখছে।

পেমেন্ট ইকো সিস্টেমের পরিবর্তিত প্রেক্ষাপটে নতুন নির্দেশনা জারি করা হলো। ব্যক্তিগত অ্যাকাউন্ট টু অ্যাকাউন্ট লেনদেন সীমা দিনে ১০ হাজার টাকা থেকে বাড়িয়ে ২৫ হাজার টাকা এবং মাসিক ২৫ হাজার টাকা থেকে বাড়িয়ে ৭৫ হাজার টাকা করা হয়েছে।

একজন গ্রাহক তার অ্যাকাউন্টে সর্বোচ্চ ৩ লাখ রাখতে পারবেন। আর ৫ হাজার টাকার বেশি লেনদেনে পরিচয়পত্র দেখাতে হবে। একই জাতীয় পরিচয়পত্র একই মোবাইল ব্যাংকিংয়ের সঙ্গে একটির বেশি অ্যাকাউন্ট রাখা যাবে না। গ্রাহকের সঙ্গে যোগাযোগ একটি বাদে অন্যগুলো বন্ধ করে দিতে হবে। এছাড়া এজেন্টরা এজেন্ট অ্যাকাউন্টে লেনদেন করতে পারবেন না। একজন এজেন্ট দিনে সর্বোচ্চ ৫ বার নিজের অ্যাকাউন্টে নগদ অর্থ জমা দিতে পারবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, এর ফলে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে হুন্ডি তৎপরতা আরও বেড়ে যেতে পারে। কমে যেতে পারে বৈধ পথে রেমিট্যান্স প্রবাহ।


আরো সংবাদ