১৬ নভেম্বর ২০১৮

যুক্তরাষ্ট্রের নতুন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার

-

বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের নতুন রাষ্ট্রদূত হিসেবে আসছেন আর্ল রবার্ট মিলার। তিনি মার্শা বার্নিকাটের স্থলাভিষিক্ত হবেন। বার্নিকাট তিন বছর আট মাস দায়িত্ব পালন শেষে আগামী মাসে ওয়াশিংটনে ফিরে যাচ্ছেন।

রবার্ট মিলার এখন বতসোয়ানায় মার্কিন রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। বাংলাদেশের পরবর্তী রাষ্ট্রদূত হিসাবে তিনি প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের মনোনয়ন পেয়েছেন। যুক্তরাষ্ট্রের সিনেটে শুনানীর পর এই নিয়োগ চূড়ান্ত হবে।

মিলার বাংলাদেশের আসন্ন জাতীয় নির্বাচনের সময় যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত হিসাবে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করবেন। গাজীপুর ও খুলনার সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে অনিয়মের সমালোচনা করে বার্নিকাট সরকারের রোষানলে পড়েছেন। তবে মার্কিন পররাষ্ট্র দফতর জানিয়েছে, কোনো দেশের রাষ্ট্রদূত যুক্তরাষ্ট্র সরকারের প্রতিনিধিত্ব করেন। কোনো ইস্যুতে রাষ্ট্রদূতের বক্তব্যে যুক্তরাষ্ট্র সরকারের অবস্থানই উঠে আসে।

বতসোয়ানায় রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব নেয়ার আগে মিলার ২০১১ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত দক্ষিণ আফ্রিকার জোহানেসবার্গে কনস্যুল জেনারেল ছিলেন। তিনি দিল্লি, বাগদাদ ও জাকার্তায় আঞ্চলিক নিরাপত্তা কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। মিলার মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরে কূটনীতিক নিরাপত্তা সেবাও কাজ করেছেন।

১৯৮১ থেকে ১৯৮৪ সাল পর্যন্ত মিলার যুক্তরাষ্ট্রের মেরিন সেনা হিসেবে কর্মরত ছিলেন। তিনি মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএ এবং ইউনাইটেড স্টেটস মেরিন কর্পস কমান্ড অ্যান্ড স্টাফ কলেজ থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন।

মিলার স্টেট ডিপার্টমেন্ট অ্যাওয়ার্ড ফর হিরোইজমসহ কয়েকটি পুরস্কার পেয়েছেন। সামরিক বাহিনীর একাধিক পুরস্কারেও তিনি ভূষিত হয়েছেন। মিলার ইংরেজি ছাড়াও ফরাসি, স্প্যানিশ ও ইন্দোনেশীয় ভাষা জানেন।


আরো সংবাদ