esans aroma gebze evden eve nakliyat Ezhel Şarkıları indir Entrumpelung wien Installateur Notdienst Wien webtekno bodrum villa kiralama
২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০

সিরাজদিখানে নারীর বিরুদ্ধে যুবককে অপহরণের অভিযোগ

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক গৃহবধূ কর্তৃক ইমরান বেপারী (২৪) নামে এক যুবককে অপহরণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ অভিযোগে দায়ের করা মামলার আসামি মায়া আক্তারকে (২৯) গ্রেফতার ও ভিকটিম ওই যুবককে উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

জানা যায়, গত ১৫ জানুয়ারি শ্রীনগর উপজেলার কয়কীর্ত্তন এলাকা থেকে আসামি মায়া আক্তারকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে ইমরান বেপারীকে গত ১৯ জানুয়ারি উপজেলার জৈনসার ইউনিয়নের খিলগাঁও গ্রাম থেকে উদ্ধার করা হয়। পরে তাদের আদালতে সোপর্দ করা হয়।

ওই গৃহবধূ খিলগাঁও গ্রামের আবু বক্করের স্ত্রী ও এক সন্তানের জননী এবং ভিকটিম যুবক একই গ্রামের ছোবাহান বেপারীর ছেলে।

এ ঘটনায় ভিকটিমের বড় ভাই মনির হোসেন গত বছরের ২৫ নভেম্বর আদালতে মায়া আক্তারসহ অজ্ঞাতনামা বেশ কয়েকজনকে বিবাদী করে একটি সিআর মামলা দায়ের করেন। আদালতের নির্শনা অনুযায়ী সিআর মালাটি থানায় গৃহীত হওয়ার পর নিয়মিত মামলা হিসেবে রেকর্ড কর হয়।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মায়া আক্তার ও ইমরান বেপারীর মধ্যে প্রায় সময় মোবাইল ফোনে কথোপকথন হতো। সেই সুবাদে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। ইমরান বেপারী প্রবাস থেকে দেশে ফেরার পর প্রেমের জালে ফাঁসিয়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে গত ২৩ অক্টোবর সন্ধ্যায় ইমরান বেপারীর বসতবাড়ির সামনের রাস্তা থেকে মায়া আক্তার ও তার সহযোগীরা মিলে ইমরান বেপারীকে অপহরণ করে নিয়ে যায়।

সিরাজদিখান থানার অফিসার ইনর্চাাজ (ওসি) মো: ফরিদ উদ্দিন জানান, দুজনই প্রাপ্তবয়স্ক। প্রেমের সম্পর্কের কারণে ঘটনাটি ঘটেছে। ছেলের ভাইয়ের দায়ের করা আদালতের মামলার প্রেক্ষিতে আমরা ছেলেকে উদ্ধার ও মহিলাকে গ্রেফতার করে দু’জনকেই সোমবার আদালতে পাঠিয়েছি।

দেখুন:

আরো সংবাদ