০৬ ডিসেম্বর ২০১৯

কোনো সরকারের পক্ষেই সমালোচনার ঊর্ধ্বে ওঠা সম্ভব নয় : তথ্যমন্ত্রী

মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের নবনির্বাচিত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠানে তথ্যমন্ত্রী - ছবি : নয়া দিগন্ত

কোনো সরকারের পক্ষেই সমালোচনার ঊর্ধ্বে ওঠা সম্ভব নয় বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। তিনি সমাজের মূল্যবোধের অবক্ষয় রোধে গণমাধ্যমকে ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়ে বলেন, ‘মানুষ যন্ত্র হয়ে যাচ্ছে। মানবিকতা হারিয়ে যাচ্ছে। মূল্যবোধ হারিয়ে যাচ্ছে। মানুষ শুধু নিজেকে নিয়ে ভাবে। এমনকি মা-বাবাকে নিয়ে ভাবার সময়ও মানুষের নেই। এটা শুধু সমাজের জন্য নয়, মানুষের জন্যও অশুভ। সেক্ষেত্রে গণমাধ্যম ভূমিকা পালন করতে পারে।

মঙ্গলবার রাতে মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের নবনির্বাচিত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। জেলা শিল্পকলা অ্যাকাডেমিতে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘উন্নত জাতি গঠনে সাংবাদিকদের ভূমিকা রয়েছে। সাংবাদিকরা গণমাধ্যম চালায়, গণমাধ্যম সমাজের দর্পণ। সাংবাদিকরা মানুষের মনন তৈরি করার ক্ষেত্রে, সরকারকে দিকনির্দেশনা দেয়ার ক্ষেত্রে, সমাজের অসঙ্গতি তুলে ধরার ক্ষেত্রে, সমাজকে প্রতিবাদী হওয়ার ক্ষেত্রে ভূমিকা রাখতে পারেন।’

তিনি বলেন, ‘কোনো সরকারের পক্ষেই শতভাগ নির্ভুল কাজ করা সম্ভব নয়। পৃথিবীতে অতীতে এমন কোনো সরকার ছিল না, ভবিষ্যতেও এমন কোনো সরকার থাকবে না, যারা শতভাগ নির্ভুল কাজ করবে।’

সমালোচনার পাশাপাশি ভালো কাজের প্রশংসার আহ্বান জানিয়ে এ সময় সাংবাদিকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘ভুল সবার থাকবে, সমালোচনাও থাকবে। কিন্তু কিছু সাংবাদিক বন্ধুর মধ্যে ধারণা আছে, ব্যাড নিউজ ইজ গুড নিউজ, গুড নিউজ ইজ নো নিউজ। এই মানসিকতা পরিহার করার জন্য বিনীত অনুরোধ সবার কাছে। সরকারের ভুল-ত্রুটি তুলে ধরতে হবে, একই সাথে সরকারের ভালো কাজের প্রশংসা করতে হবে।’

সমালোচনাকে ইতিবাচকভাবে গ্রহণ করার কথা উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘সমাজে অবশ্যই সমালোচনা থাকতে হবে। অবশ্যই সরকারের সমালোচনা হবে, মন্ত্রীর সমালোচনা হবে। এই সমালোচনাকে সমাদৃত করার সংস্কৃতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার সরকার লালন করে। আমাকে যখন পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেয়া হয়েছিল তখন কোথায় পরিবেশ বেশি নষ্ট হচ্ছে, কোথায় সরকার নজর দিচ্ছে না- এসব নিয়ে যে পত্রিকা লিখেছে এবং আমাকে নিয়ে কার্টুন পর্যন্ত বানিয়েছে, সেই পত্রিকাকে ডেকে আমি জাতীয় পরিবেশ পদক দিয়েছি।’

তিনি বলেন, ‘আমাদের লক্ষ্য হচ্ছে উন্নত দেশ গঠনের পাশাপাশি উন্নত জাতি গঠন করা। শুধু বস্তুগত উন্নয়ন দিয়ে উন্নত জাতি গঠন সম্ভব না। আমরা দেখতে পাচ্ছি ইউরোপে অনেক বস্তুগত উন্নয়ন হয়েছে। কিন্তু, ইউরোপের সব জাতি কি উন্নত জাতি হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে? সেখানে পরিবার ভেঙে গেছে, মানুষ আত্মকেন্দ্রিক হয়ে গেছে। একে অপরের প্রতি সহমর্মিতা কমে গেছে।’

অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের নবনির্বাচিত সভাপতি মীর নাসির উদ্দিন উজ্জ্বল, সাধারণ সম্পাদক মামুনুর রশীদ খোকা, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ভবতোষ চৌধুরী নুপুর, সাবেক সভাপতি কাজী সাব্বির আহম্মেদ দীপু, সাবেক সভাপতি শহীদ-ই-হাসান তুহিন প্রমুখ।

মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের বিদায়ী সভাপতি রাসেল মাহমুদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস, মুন্সীগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য অধ্যাপিকা সাগুফতা ইয়াসমিন এমিলি, বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার (বাসস) ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি সাইফুল আলম, জাতীয় প্রেসক্লাবের সিনিয়র সহ-সভাপতি ওমর ফারুক, মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসক মো: মনিরুজ্জামান তালুকদার ও পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জায়েদুল আলম।

অনুষ্ঠানে মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সফিউদ্দিন আহম্মেদের দশম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।


আরো সংবাদ

সকল




Paykwik Paykasa
Paykwik