১৯ অক্টোবর ২০১৯

পুলিশের পোশাক পরে দুর্ধর্ষ ডাকাতি

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলায় পুলিশের পোশাকধারী একদল ডাকাত নৈশপ্রহরীর হাত-পা বেঁধে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে দুর্ধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটিয়েছে। এ সময় তিনটি স্বর্ণের দোকান থেকে ৯০ ভরি স্বর্ণালংকার, ৭৫ কেজি রুপা, নগদ টাকা ও একটি মোবাইলের দোকান থেকে প্রায় ৫০টি মোবাইল সেট লুট করে নিয়ে যায়।

তবে ডাকাতির ঘটনার স্থল থেকে মাত্র ৫০-৬০ গজ দূরে স্থানীয় পুলিশ ফাঁড়ি হওয়া সত্বেও ডাকাতির ঘটনা সংঘঠিত হওয়ায় এলাকাবাসীর মাঝে দেখা দিয়েছে আতঙ্ক। ডাকাতির ঘটনায় নগদ টাকাসহ ৭০ লাখ টাকার মালামাল লুটে নিয়ে যায় বলে ক্ষতিগ্রস্তরা দাবি করেন।

মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) দিনগত রাত আড়াইটায় উপজেলার কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়নের রাধানগর এলাকায় ডাকাতি সংঘঠিত হয়েছে।

স্বর্ণের দোকানদার উজ্জল জানান, প্রতিদিনের ন্যায় দোকানের কাজ শেষ করে রাতের বেলা দোকান বন্ধ করে বাড়িতে চলে যাই। গভীর রাতে মার্কেটের নৈশ্যপ্রহরী আব্দুল ও হাশেমের হাত পা বেঁধে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ৩০/৩৫ জনের একটি ডাকাতদল মার্কেটের তিনটি স্বর্ণের দোকান ও একটি মোবাইলের দোকানের তালা ভেঙ্গে ডাকাতি করে। এসময় ডাকাতদল তার স্বর্ণের দোকান হতে ৭০ ভরি স্বর্ণালংকার, ৪০ কেজি রুপা ও নগদ ৭ লাখ টাকা লুটে নিয়ে যায়। আর সকালে নৈশপ্রহরীদের কাছে জানতে পারি ডাকাতদল পুলিশের পোশাকধারী হয়ে মুখোশ পরে স্পীটবোট দিয়ে এসে ডাকাতি করে আবার স্পীটবোট দিয়ে চলে যায়।

তিনি আরও জানান, আমার পাশের মোস্তফার দোকানে ১০ ভরি স্বর্ণ ও ২০ কেজি রুপা, শাহিনের স্বর্ণের দোকান থেকে ১০ ভরি স্বর্ণ ও ১৫ কেজি রুপা ও মোক্তার হোসেনের মোবাইলের দোকান হতে ২০টি অপো, ১০ স্যামসাং ও ১৫/২০টি অন্যান্য মোবাইল সেট নিয়ে যায়।

নৈশপ্রহরী হাশেম জানান, পুলিশের পোশাক পড়ে একদল ডাকাত অস্ত্র হাতে নিয়ে প্রথমে আমাকে হাত-পা বেঁধে মাটিতে ফেলে রাখে। পরে আব্দুলের হাত-পা বেঁধে রেখে আমার সামনে ফেলে রাখে। পরে ডাকাতরা অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে কোন শব্দ করতে নিষেধ করে। ডাকাতরা আমাদের চোখের সামনে মার্কেটের তিনটি স্বর্ণের দোকান ও একটি মোবাইলের দোকানের তালা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে। পরে তারা দুটি বস্তা করে সর্বস্ব লুটে নিয়ে যায় এবং স্পীটবোর্ড দিয়ে চলে যায়। তারা সবাই মুখোশধারী ছিলো। কাউকে চেনা যায়নি।

আড়াইহাজার কালাপাহাড়িয়া পুলিশ ফাঁড়ি তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ ইন্সপেক্টর আব্দুল খালেক জানান, ঘটনার সংবাদ পেয়ে সকাল বেলা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিদর্শন করা হয়। উপজেলার রাধানগর এলাকার তিনটি স্বর্ণের দোকান ও একটি মোবাইলের দোকানের মালামাল লুটে নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা।

আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম জানান, উপজেলার কালাপাহারিয়ার রাধানগর এলাকায় মার্কেটের দুইজন নৈশপ্রহরীকে হাত-পা বেঁধে তিনটি স্বর্ণের দোকান ও একটি মোবাইলের দোকান হতে মালামাল লুটে নিয়ে গেছে। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে এবং যাদের দোকানের মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে তাদের সাথে আলোচনা করে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। আর ঘটনার সাথে সম্পৃক্তদের চিহ্নিত করে তাদেরকে গ্রেফতার ও লুন্ঠিত মালামাল উদ্ধারের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

আর পুলিশের পোশাক পড়ে ঘটনা ঘটিয়েছে এলাকার লোকজন জানিয়েছে আমরা সেই বিষয় নিয়েও তদন্ত করে দেখছি। এদিকে এর আগে জাঙ্গালিয়া গ্রামে ডাকাতির ঘটনা ঘটলেও মামলা কিংবা আসামী গ্রেফতার হয়নি।


আরো সংবাদ

দেশী-বিদেশী পাইলটরা লেজার লাইট আতঙ্কে (৩৯৯৩৬)পাকিস্তান বনাম ভারত যুদ্ধপ্রস্তুতি : কে কতটা এগিয়ে (২৮৪৮৪)ভারতীয় বিমানকে ধাওয়া পাকিস্তানের, আফগানিস্তান গিয়ে রক্ষা (২১৮৯৮)দুই বাঘের ভয়ঙ্কর লড়াই ভাইরাল (ভিডিও) (২০৬১৪)শীর্ষ মাদক সম্রাটের ছেলেকে আটকে রাখতে পারলো না পুলিশ, ব্যাপক দাঙ্গা-হাঙ্গামা (১৪৭১৯)রৌমারী সীমান্তে বিএসএফ’র গুলি ও ককটেল নিক্ষেপ! (১৪৫৭২)বিশাল বিমানবাহী রণতরী নির্মাণ চীনের, উদ্বেগে যুক্তরাষ্ট্রসহ অনেকে (১৪৩৩৮)‘গরু ছেড়ে মহিলাদের দিকে নজর দিন’,: মোদির প্রতি কোহিমা সুন্দরীর পরামর্শে তোলপাড় (১৩৫৮২)বিএসএফ সদস্য নিহত হওয়ার বিষয়ে যা বললো বিজিবি (১১৮৬৩)লেন্দুপ দর্জির উত্থান এবং করুণ পরিণতি (৯৩৩৫)



astropay bozdurmak istiyorum
portugal golden visa