১৩ নভেম্বর ২০১৮

রায়পুরার ঝালমুড়ি বিক্রেতা আলমের ব্যতিক্রমী মানবসেবা

মানবসেবা
মো: আলম মৃধা - ছবি : নয়া দিগন্ত

মানুষ মানুষের জন্য। মানুষ নানা ভাবে মানুষের সেবা করে। ঠিক তেমনি নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার হাসনাবাদ বাজারের এক ঝালমুড়ি বিক্রেতা আলম দীর্ঘ দেড় বছর ধরে বাঁশি বাজিয়ে ট্রেনের সর্তকবার্তা দিয়ে এক ব্যতিক্রমী মানবসেবা করছেন।

জানা যায়, ঢাকা-চট্টগ্রাম রেলওয়ের আমিরগঞ্জ রেল স্টেশেনের পূর্ব-দক্ষিণ পাশে রেললাইন সংলগ্ন আবুবক্কর সিদ্দিক ঝালমুড়ির দোকান চালান মো: আলম মৃধা (৩৪)। স্টেশন ও রেল লাইনের দু’পাশেই হাসনাবাদ বাজার অবস্থিত। শিল্পাঞ্চল এলাকা ও জেলা সদর সংলগ্ন এলাকা হিসেবে হাজার হাজার মানুষের চলাচল এই ব্যস্ত জনপথ। দু’পাশেই রয়েছে বিভিন্ন শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান, মসজিদ মাদরাসা ও ব্যাংক বীমাসহ অফিস কারখানা।

বছরখানেক হলো স্টেশনের ফুটওভার ব্রিজ নির্মাণ করা হয়েছে। কিন্তু অতিমাত্রায় উঁচু হওয়ায় কেউ ব্যবহার করছে না ব্রিজটি। ফলে অহরহ ট্রেন দুর্ঘটনায় প্রাণ হারায় রেলপারাপার করা পথযাত্রীরা। তাই দীর্ঘ দেড় বছর ধরে আলম এই ট্রেন দুর্ঘটনা থেকে সাধারণ মানুষের জীবন বাঁচাতে রেফারির মতো বাঁশি বাজিয়ে ট্রেন আসার ব্যাপারে সতর্ক করছেন পথযাত্রীদের। আলমের এ ব্যাতিক্রম সেবায় এখন আর মানুষ ট্রেনের দুর্ঘটনায় পড়ছে না।

সরেজমিনে দেখা যায়, ট্রেন কাছাকাছি আসার আগেই রেফারির ফাউল বাঁশির মতো বিপদ সংকেত দিচ্ছেন আলম। দেখলাম ট্রেন আসছে। মানুষ বুঝতে পারছে আলম বাঁশি বাজিয়েছে, ট্রেন আসছে। হঠাৎ কেউ স্টেশনে দাঁড়ালেই ট্রেন আসার আগে আলমের সতর্কবার্তার বাঁশির আওয়াজ পাবেন।

এ বিষয়ে আলম মৃধা বলেন, ‘দু’পাশেই বাজার। অতিমাত্রায় উঁচু রেলওয়ে ফুটওভার ব্রিজ হওয়ায় কেউ ব্রিজটি ব্যবহার করে না। চার লাইন রেল হওয়ায় মানুষ ট্রেন এলে দিক-বিদিক হয়ে ছুটতে থাকে। ফলে ট্রেন দুর্ঘটনায় অনেকেই প্রাণ হারায়। আমি ট্রেন দুর্ঘটনা থেকে মানুষকে বাঁচাতে স্বেচ্ছায় মানুষের জন্য বাঁশি বাজিয়ে সতর্ক করে থাকি।’

স্থানীয় দক্ষিণ মির্জানগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: শাখাওয়াত হোসেন বলেন, আলম একজন ঝালমুড়ি বিক্রেতা হয়ে মানুষরে কল্যাণে সে যে সেবা দিচ্ছে তা সত্যিই প্রশংসনীয় কাজ। ব্যস্ততম রাস্তায় এমন সেবা থাকায় আগে যে অহরহ দুর্ঘটনা ঘটতো এখন তা কমে গেছে। তাই আলমের মতো নিঃস্বার্থ সমাজসেবককে পুরস্কৃত করে উৎসাহ-উদ্দীপনা দেয়া আমাদের নৈতিক কর্তব্য বলে মনে করি।


আরো সংবাদ

১০ বিশিষ্ট ব্যক্তিকে নির্বাচনে সম্পৃক্ত করতে চান ড. কামাল আস্থা রাখুন, হিন্দু সম্প্রদায়কে ফখরুল ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন আগের চেয়ে বেশি দমনমূলক : অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল আ’লীগের মনোনয়ন বোর্ডের সদস্য হলেন ফারুক খান ও আব্দুর রাজ্জাক সহকর্মীর আঘাতে প্লাস্টিক ফ্যাক্টরির কর্মচারী নিহত শিক্ষাক্ষেত্রে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে হবে : শিক্ষামন্ত্রী সাংবাদিক শিমুল হত্যা মামলায় মেয়র মিরুর জামিন স্থগিত শিশুশ্রম নির্মূলের ল্যমাত্রা অর্জনে দেশ যথেষ্ট পিছিয়ে নির্বাচনী তফসিল পুনর্নির্ধারণ জাপা ইতিবাচকভাবেই দেখছে : জি এম কাদের ৩২ আসনে প্রার্থী চূড়ান্ত করেছে খেলাফত আন্দোলন অভিভাবক ঐক্য ফোরাম চেয়ারম্যানের মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবি

সকল