প্রিয় মা

আবদুর রহমান

পৃথিবীর সব মায়েরাই তোমার মতো হয় কি না জানি না। একজন সন্তানের জন্য তুমি যা কিছু করো সত্যিই তার কোনো তুলনা হয় না। আচ্ছা মা, নিজের চেয়ে সন্তানকে বেশি ভালোবাসার মধ্যেই কি তোমার জীবনের স্বার্থকতা লুকিয়ে আছে? তুমি না খেয়ে থাকলেও আমার খাওয়া হলো কি না ভেবে অস্থির হয়ে পড়ো। তুমি কখনও অসুস্থ হয়ে পড়লেও আমাকে বুঝতে দিতে চাও না। সব সময় নির্দ্বিধায় বলো তোমার কোনো সমস্যা হচ্ছে না, তুমি ঠিক আছ।
জানো মা, তোমাকে ছেড়ে এই দূরের ক্যাম্পাসে থাকতে একটুও ভালো লাগে না। তোমার হাতের রান্না খুব মিস করি। যখনই খেতে বসি তখনই তোমার কথা বেশি মনে হয়। কেউ তোমার মতো দুধের গ্লাস হাতে পাশে এসে দাঁড়িয়ে থাকে না। মমতাময়ী কণ্ঠে খেতে বলে না। সব কিছু ভুলে হাসিখুশি থাকতে চেষ্টা করেও পারি না; বারবার তোমার কথা মনে হয়। তোমারও নিশ্চয় আমার জন্য মন কাঁদে। খুব কষ্ট পাও আমার জন্য, তাই না? ইচ্ছে থাকলেও আর আগের মতো খুঁটিনাটি কাজে তোমাকে সাহায্য করতে পারি না। দোয়া কোরো মা, তোমার স্বপ্ন যেন পূরণ করতে পারি।
ঈশ্বরদী, পাবনা

 

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.