ট্রাম্পের অফার বিল গেটসের প্রত্যাখ্যান
ট্রাম্পের অফার বিল গেটসের প্রত্যাখ্যান

ট্রাম্পের অফার বিল গেটসের প্রত্যাখ্যান

নয়া দিগন্ত অনলাইন

বিশ্বের দ্বিতীয় শীর্ষ ধনী ব্যবসায়ী মাইক্রোসফটের সহ-প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটস বলেছেন, তাকে হোয়াইট হাউজে কাজের জন্য প্রস্তাব দিয়েছিলেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আমি সেই প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছি।

মার্চ মাসে হোয়াইট হাউজে গেটস ও প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের মধ্যে ৪০ মিনিটব্যাপী কথোপকথন হয়। সেখানেই হোয়াইট হাউজের বিজ্ঞান উপদেষ্টার পদ নিয়ে আলোচনা হয়।

গেটস বলেন, আমি প্রেসিডেন্টকে বললাম, হয়তো আমাদের একজন বিজ্ঞান উপদেষ্টা থাকা উচিত। প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেন, আমি কী হোয়াইট হাউজের বিজ্ঞান উপদেষ্টা হতে চাই কিনা? তবে আমি প্রেসিডেন্টের ওই প্রস্তাব নাকচ করে দিই। আমি তাকে বলেছিলাম, এতে ‘আমার সময়ের সদ্ব্যবহার হবে না’।

গেটস বলেন, আমি প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে পরীক্ষা করে দেখিনি যে উনি সিরিয়াস ছিলেন কিনা। তিনি হয়তো নিজেও জানেন না যে, তিনি সিরিয়াস ছিলেন কিনা। এটা একটা বন্ধুত্বপূর্ণ বিষয়। তিনি বন্ধুত্বপূর্ণ হওয়ার চেষ্টা করছিলেন।

প্রাণঘাতী রোগে ৬ মাসেই মরবে ৩ কোটি মানুষ: বিল গেটস
বিজনেস ইনসাইডার ও দ্য ইন্ডিপেনডেন্ট

মাইক্রোসফটের সহ-প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটস বলেছেন, পৃথিবীতে আসছে নতুন এক প্রাণঘাতী রোগ। এ রোগ মহামারী আকারে ছড়িয়ে পড়বে দেশে দেশে। অপ্রতিরোধ্য এ রোগের কারণ বুঝে ওঠার আগেই ৬ মাসের মধ্যে মারা যেতে পারে ৩ কোটি মানুষ।

শুক্রবার ম্যাসাচুসেটস মেডিকেল সোসাইটি ও দ্য নিউ ইংল্যান্ড জার্নাল অব মেডিসিন আয়োজিত মহামারী বিষয়ক এক আলোচনায় এমনটা বললেন তিনি।

তিনি বলেন, এ রোগ আগামী দশকের মধ্যে ছড়িয়ে পড়তে পারে দেশে দেশে। এ মরণব্যাধি মোকাবেলায় প্রস্তুত নয় বিশ্ব।

তিনি আরো বলেন, আমরা বিশ্বব্যাপী শিশুদের দারিদ্রমুক্ত করছি। পোলিও ও ম্যালেরিয়ার মত রোগ নির্মূলে ভালো কাজ করছি। কিন্তু একটি ক্ষেত্র রয়েছে যেখানে বিশ্ব বেশি এগোতে পারেনি। তা হচ্ছে মহামারি বিষয়ে প্রস্তুতি। যদিও বর্তমান বিশ্বে মানুষ মাত্র কয়েক ঘণ্টার মধ্যে এক মহাদেশ থেকে অন্য মহাদেশে পৌঁছে যাচ্ছে।

বিল গেটস ইন্সটিটিউট ফর ডিজিজ মডেলিং’র একটি রিপোর্টের অনুলিপি উপস্থাপন করেন। তাতে দেখা যায় যে ১৯১৮ সালে প্রাদুর্ভাব ঘটা এক মহামারি ফ্লুতে ৫ কোটি লোক মারা গিয়েছিল। আর ওই রকম একটি নতুন ফ্লুতে মাত্র ৬ মাসের মধ্যে ৩ কোটি মানুষের মৃত্যু হতে পারে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.