‘অবহেলিত মেলানিয়া, নৈতিকভাবে অযোগ্য ট্রাম্প’
‘অবহেলিত মেলানিয়া, নৈতিকভাবে অযোগ্য ট্রাম্প’

‘অবহেলিত মেলানিয়া, নৈতিকভাবে অযোগ্য ট্রাম্প’

নিউ ইয়র্ক টাইমস ও বিবিসি

ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকেই ফ্যাশন ম্যাগাজিনের সম্পাদকেরা অবহেলা করছেন মেলানিয়া ট্রাম্পকে। সম্প্রতি এমন মন্তব্য করলেন অভিনেতা জেমস উডস। টুইটারে এমন মন্তব্যের পর থেকে ইন্টারনেট দুনিয়ায় শুরু হয়েছে আলোচনার ঝড়। 

টুইটারে অভিনেতা জেমস উডস বলেন, ট্রাম্প যদি ডেমোক্রেট হতেন, মেলানিয়া প্রতিমাসে পৃথিবীর সব অভিজাত নারীদের ম্যাগাজিনগুলোর প্রচ্ছদে জায়গা পেতেন।’

টুইটে মার্কিন ফার্স্ট লেডির একটি ছবি পোস্ট করেন উডস। ওই ছবিতে মেলানিয়াকে একটি নকশা করা চেয়ারের হালকা নীল রঙের পোশাক পরে বসে থাকতে দেখা যায়। ছবিটি এখন পর্যন্ত ৬২ হাজার মানুষ লাইক এবং ২০ হাজার বার রি-টুইট করেছে।

ফার্স্ট লেডি হবার পর মেলানিয়াকে ভ্যানিটি ফেয়ার মেক্সিকো’র প্রচ্ছদে দেখা গেছে। ম্যাগাজিনটির ফেব্রুয়ারি ২০১৭ সংখ্যায় যখন মেলানিয়ার ছবি ছাপা হয়, তখন ট্রাম্প মেক্সিকোর সীমান্তে দেয়াল দেয়ার জন্য মেক্সিকোকেই টাকা দায়ের জন্য চাপ দিচ্ছিলেন।

অন্যদিকে  মার্কিন তদন্ত সংস্থা এফবিআইয়ের সাবেক প্রধান জেমস কোমি বলেছেন, প্রেসিডেন্ট হিসাবে নৈতিকভাবে যোগ্য নন ডোনাল্ড ট্রাম্প, কারণ তিনি নারীদের মাংসের টুকরো হিসাবে মনে করেন।

গত বছর বরখাস্ত হওয়ার পর এই প্রথম টেলিভিশনে কোন বড় সাক্ষাৎকার দিলেন কোমি।

এবিসি নিউজকে তিনি বলেন, ‘ট্রাম্প অব্যাহতভাবে মিথ্যা বলে চলেছেন এবং হয়তো বিচারের কাজেও বাধা তৈরি করছেন। তিনি শারীরিকভাবে অযোগ্য বলে আমি মনে করিনা। আমি মনে করি, নৈতিকভাবে তিনি প্রেসিডেন্ট হওয়ার যোগ্য নন।’

‘আমাদের প্রেসিডেন্টকে অবশ্যই সম্মান অর্জন করতে হবে এবং যে ভিত্তিগুলোর ওপর দেশ গঠিত হয়েছে, তার প্রতি মূল্যবোধ থাকতে হবে। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে সত্যি বলতে হবে। কিন্তু প্রেসিডেন্ট সেটা করতে পারছেন না।’ বলছেন কোমি।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.