শিক্ষার্থীকে বাসচাপার প্রতিবাদ

ক্ষতিপূরণের দাবিতে ইউডা শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

নিজস্ব প্রতিবেদক
রাজধানীর ফার্মগেটে বাসচাপায় ইউনিভার্সিটি অব ডেভেলপমেন্ট অলটারনেটিভের (ইউডা) শিাক্ষার্থী রুনি আক্তার আহত হওয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছেন বেসরকারি ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিার্থীরা। গতকাল বেলা দেড়টা থেকে বেলা ৩টা পর্যন্ত রাজধানীর শংকরে ইউডার ক্যাম্পাসের সামনের সড়কে এই মানবন্ধন করেন তারা। মানববন্ধনে সাধারণ শিক্ষার্থীদের পাশাপাশি শিক্ষকেরাও অংশগ্রহণ করেন। 
মানববন্ধনে অংশ নেয়া প্রিতম চন্দ দে নামে এক শিক্ষার্থী বলেন, নিউ ভিশন পরিবহনের বাসচাপায় রুনি আক্তারের পা সম্পূর্ণ থেঁতলে গেছে। ঘটনার সময় স্থানীয়রা বাস ও এর চালককে আটক করে থানায় সোপর্দ করেছেন। পরে রুনির বাবা তেজগাঁও থানায় মামলা করেন। মামলায় চালককে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করেছে পুলিশ; কিন্তু এ দিকে রুনির পায়ের অবস্থা খারাপ। পা ভালো করতে তিন লাখ টাকা লাগবে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। অথচ বাসমালিক একবারের জন্যও রোগীর কোনো খবর নেননি। রুনির পরিবারের পক্ষে এত টাকা দেয়া সম্ভব হচ্ছে না। একজন শিক্ষার্থী এভাবে পঙ্গু হয়ে বাসায় বসে থাকবে? আর যারা তাকে আহত করল তারা ধরা-ছোঁয়ার বাইরে থাকবে? এটা হবে না।
জানা গেছে, বেলা দেড়টায় শিক্ষার্থী ও শিক্ষকেরা রাস্তা অবরোধ করে মানববন্ধন শুরু করেন। তারা ‘নিরাপদ সড়ক চাই, রুনির দুর্ঘটনার বিচার চাই’ ব্যানার নিয়ে বিভিন্ন স্লোগান দিতে থাকেন। এতে ওই এলাকায় যানজটের সৃষ্টি হয়। মানববন্ধনে অংশ নেয়া শিার্থীরা দোষী চালকের বিচার, রুনির চিকিৎসার ব্যয়ভার বাসমালিকের নেয়ার দাবি জানান। তা না হলে আগামী শুক্রবার ফের মানববন্ধন ও রাস্তা অবরোধ করবেন বলে জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। 
এ দিকে ইবনে সিনা হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, রুনির পায়ের অস্ত্রোপচার করা হয়েছে। যেভাবে পা ভেঙেছে তাতে ভালো হতে সময় লাগবে। চিকিৎসাও ব্যয়বহুল। রুনির পা রক্ষা করতে তিন লাখ টাকা লাগবে বলেও জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। 
গত বুধবার সকাল সাড়ে ৮টায় ফার্মগেটের আনন্দ সিনেমা হলের সামনে নিউ ভিশন নামের একটি যাত্রীবাহী বাস রুনিকে চাপা দেয়। এতে তার ডান পা থেঁতলে যায়।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.