সাকিবের রাগ নিয়ে বললেন মাশরাফি
সাকিবের রাগ নিয়ে বললেন মাশরাফি

সাকিবের রাগ নিয়ে বললেন মাশরাফি

নয়া দিগন্ত অনলাইন

উত্তেজনায় ভরা আর স্নায়ুক্ষয়ী ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে দুই উইকেটে হারিয়ে নিদহাস ট্রফির ফাইনালে উঠেছে বাংলাদেশ। তবে এই ম্যাচটিতে ছিল অনেক নাটকীয়তায় ভরা। বিশেষ করে দ্বিতীয় ইনিংসের শেষ ওভারে নো বল কাণ্ডে ম্যাচের উত্তেজনাটা বাড়িয়ে দিয়েছে অনেক বেশি। এমন অবস্থা হয়েছে ম্যাচে দুই দলের খেলোয়াড়রা তর্কে জড়িয়ে পড়েন। মাহমুদউল্লাহ উত্তেজিত হয়ে কথা বলন আম্পায়ারদের সঙ্গে। অধিনায়ক সাকিব আল হাসানও মাঠের বাইরে থেকে উত্তেজিত হয়ে পড়েন। তিনি দুই ব্যাটসম্যান মাহমুদউল্লাহ ও রুবেল হোসেনকে মাঠ থেকে বেরিয়ে আসতেও বলেছিলেন।

শেষ ওভারে প্রয়োজন ১২ রান, পেন্ডুলামের মতো দুলছে ম্যাচের ভাগ্য।  থিসারার পরপর দুটি বাউন্সার।  এর মধ্যে দ্বিতীয় বলে রান আউট হয়ে গেলেন মোস্তাফিজুর রহমান।  কিন্তু টানা দ্বিতীয় বাউন্সারেও নো বল দিলেন না শ্রীলঙ্কান আম্পায়ার।  এ নিয়েই শুরু তর্ক।  পরবর্তী সময়ে যা রূপ নিল হট্টগোলে।

ম্যাচের এ রকম টান টান মুহূর্তে এসে নো বল না পেয়ে সীমানার কাছে এসে উত্তেজিত হয়ে পড়েন অধিনায়ক সাকিব আল হাসান।  মাঠ থেকে ব্যাটসম্যানদের চলে আসার ইঙ্গিতও দিয়েছিলেন সাকিব।  যা হলে টুর্নামেন্ট থেকে ডিসকোয়ালিফাইড হয়ে যেতে পারত বাংলাদেশ।  তিক্ততা ছড়িয়ে পড়ত পুরো টুর্নামেন্টে।  যা শনিবার সকালে ঘুম থেকে উঠেই দেখেছেন বাংলাদেশের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা।  ব্যাপারটাকে সাময়িক উত্তেজনা হিসেবেই দেখছেন ওয়ানডে অধিনায়ক, ‘আজ (শনিবার) সকালে উঠে দেখেছি।  জানি না পুরোপুরি।  না জেনে আমাদের মতামত দেওয়া ঠিক হবে না। আর যেটা হয়েছে মাঠে ‘হিট অব দ্য মোমেন্ট’ বলতে পারেন।  নো বলটা আমাদের পক্ষে আসা উচিত ছিল।  টি-টোয়েন্টিতে দুই বাউন্সার তো নিয়মে নাই।  হয়তো আরেকটু সংযত হলে ভালো হতো।  কিন্তু যেটা বললাম, ‘হিট অব দ্য মোমেন্টে’ হয়ে গেছে।’

এই ঘটনার পরেই দুর্দান্ত ব্যাটিং করে দলকে জিতিয়েছেন মাহমুদউল্লাহ।  যা দেখে এখনো উচ্ছ্বাসে বুঁদ হয়ে আছেন মাশরাফি, ‘চার বলে যখন ১২ লাগবে।  তখন রিয়াদ প্রথম চারটা মারল।  তখন মনে হয়েছে সম্ভব।  তারপর রিয়াদ যেভাবে খেলেছে, অসাধারণ।  ১৮ বলে ৪৩।  প্রথম থেকে এসেই যেভাবে অ্যাটাক করেছে, ওটা ছিল দারুণ।’

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.