লিওনেল মেসি ও আন্দ্রে ইনিয়েস্তা
লিওনেল মেসি ও আন্দ্রে ইনিয়েস্তা

ম্যাচটা যেন মেসি বনাম চেলসির!

নয়া দিগন্ত অনলাইন

গত শনিবার মালাগার বিরুদ্ধে বার্সেলোনার শেষ ম্যাচে তিনি মাঠে ছিলেন না। তৃতীয় সন্তানের আগমন উপলক্ষে ছুটি নিয়েছিলেন। তিনি- লিওনেল মেসি ফিরবেন বুধবার রাতে। যখন নিজেদের দুর্গে তার দল বার্সেলোনা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে চেলসির সাথে ফিরতি লেগের ম্যাচ খেলতে নামবে। ক্যাম্প ন্যু-তে চলতি মৌসুমে মেসিদের দল অপ্রতিরোধ্য। ২১টি ম্যাচের মধ্যে ১৮টিতে জিতেছে তারা। দুটি ড্র হয়েছে। একমাত্র ম্যাচ তারা হেরেছে রিয়াল মাদ্রিদের কাছে সুপার কাপে। সেটাও সেই আগস্টে।

চেলসির জন্য আর একটা খারাপ খবর হচ্ছে, সম্ভবত আন্দ্রে ইনিয়েস্তা বুধবারের ম্যাচে খেলতে পারবেন। দশ দিন আগে অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ ম্যাচে হ্যামস্ট্রিংয়ে চোট পেয়েছিলেন ইনিয়েস্তা। তার খেলা নিয়ে সংশয় তৈরি হলেও মঙ্গলবার দলের সাথে অনুশীলন করেছেন তিনি।

বার্সেলোনা ম্যানেজার আর্নেস্তো ভালভার্দে জানিয়েছেন, ইনিয়েস্তা এবং মেসি- দু’জনই ফিরছেন। প্রথম লেগে ইনিয়েস্তা-মেসি যুগলবন্দির জাদুতেই ম্যাচে সমতা ফিরিয়েছিল বার্সেলোনা।

গত ম্যাচ পর্যন্ত চেলসি শিবির খুবই গর্বিতভাবে ইতিহাসকে টানতে পারছিল যে, এই একটি ক্লাবের বিরুদ্ধে কখনও গোল করতে পারেননি গোলের জাদুকর। সেই ব্যর্থতার ইতিহাসও প্রথম লেগে পাল্টে দিয়েছেন মেসি। নবম ম্যাচে মিটিয়েছেন চেলসির বিরুদ্ধে গোল খরা। যদিও চেলসি অধিনায়ক গ্যারি ক্যাহিল সেটা মানতে চান না। তিনি বলছেন, ‘‘কেউ আমাদের আশা দেখছে না। সেটাই দলটাকে জাগিয়ে তুলতে পারে। চেলসির ইতিহাসটাও ফেলে দেয়ার মতো নয়। আমি এই ক্লাবে ছয় বছর ধরে আছি। অনেক উত্থান-পতনই দেখেছি। আমরা ক্যাম্প ন্যু-তে আত্মবিশ্বাসী হয়েই যাব এবং নিজেদের সেরাটা দেব।’’

অধিনায়ক যা-ই বলুন, ইপিএলে গতবারের চ্যাম্পিয়নরা এ বারে মোটেও ভালো খেলতে পারছেন না। প্রবল চাপের মুখে রয়েছেন কোচ আন্তোনিও কন্তে। রুদ খুলিটের মতো সাবেক তারকা মনে করছেন, কন্তের অগ্নিপরীক্ষা হতে যাচ্ছে বুধবারের ক্যাম্প ন্যু-তে। যদি হেরে বিদায় নেয় চেলসি, চাকরি হারাতেই পারেন কন্তে। প্রথম লেগ ১-১ হওয়ার পরে শেষ আটে যাওয়ার দরজা খুলে রাখতে গেলে গোল করে অন্তত ম্যাচ ড্র করতে হবে কন্তের দলকে।

২০১২-তে ক্যাম্প ন্যু-তে এসে মেসির স্বপ্নভঙ্গ করে দিয়েছিল চেলসি। পেপ গুয়ার্দিওলার দলকে প্রথম লেগে ১-০ হারানোর পরে সে বার ক্যাম্প ন্যু-তে ২-২ করে চেলসি। পেনাল্টি মিস করা মেসির কাছে সেই ম্যাচ দুঃস্বপ্ন। কেঁদেও ফেলেছিলেন তিনি। অতীতের সেই যন্ত্রণার অভিজ্ঞতা এ বার তিনি আরও বেশি করে মুছে ফেলতে চাইবেন। এ বারে দুর্ধর্ষ ফর্মে রয়েছেন আর্জেন্টাইন তারকা। লা লিগায় শুধু সর্বোচ্চ গোল স্কোরারই নন, গোলের সহায়তাতেও এক নম্বরে তিনি। ভালভার্দে দারুণ ভাবে ব্যবহার করছেন তাকে। সুয়ারেসের সামান্য পিছন থেকে আক্রমণ ভাগে মাঝখানে তাকে রাখছেন বার্সা ম্যানেজার। তার ফলে দলের বেশির ভাগ আক্রমণে মেসিই মধ্যমণি থাকছেন।

দলের খবর -

• বার্সেলোনা জোর চেষ্টা চালাচ্ছে আন্দ্রে ইনিয়েস্তাকে নামানোর। চোটের জন্য বাইরে ছিলেন তিনি।

• তৃতীয় ছেলে হওয়ার জন্য লা লিগায় আগের ম্যাচে বার্সেলোনার হয়ে নামেননি মেসি। তিনি ফিরছেন।

• চেলসি সম্ভবত পাচ্ছে না ডিফেন্ডার দাভিদ লুইজ-কে। তার গোড়ালির চোট এখনও সারেনি।

• হ্যামস্ট্রিংয়ের চোট থাকায় চেলসি পাবে না হয়তো রস বার্কলে-কেও।

এছাড়া -

• চেলসির ঘরের মাঠ স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে প্রথম লেগের ফল ছিল ১-১।

• নবম ম্যাচে এসে চেলসির বিরুদ্ধে প্রথম গোল করেন মেসি। তাঁর দুরন্ত গোলেই সমতা ফেরায় বার্সা।

• ক্যাম্প ন্যু-তে আজ জিতলে টানা এগারো বার চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ আটে যাবে বার্সেলোনা।

• মেসিদের ঘরের মাঠে শেষ চারটি ম্যাচে ড্র করেছে চেলসি। যদি গোল করে ড্র করতে পারে তা হলে পরের রাউন্ডে যাওয়ার আশা থাকবে।

মেসির পরে নতুন এক তারকার উদয়ও দেখছে বার্সেলোনা। তিনি উসমানে দেম্বেলে। মালাগা ম্যাচে ফুটবল ভক্তদের তার স্কিল দিয়ে মন ভরিয়ে দিয়েছেন ফ্রান্সের প্রতিশ্রুতিমান তারকা দেম্বেলে। নেমার ফিরতে পারেন কি না, সেই জল্পনায় অবশ্য পানি ঢেলে দিয়েছে বার্সেলোনা ক্লাব কর্তৃপক্ষ।

অন্যদিকে, মেসির জন্য ঝাঁপাতে পারে ম্যাঞ্চেস্টার সিটি, সেই জল্পনাও উড়িয়ে দিয়েছেন ম্যান সিটির স্পোর্টিং ডিরেক্টর ফেরান সোরিয়ানো স্বয়ং। তার পরেও কৌতূহল থামছে না। কিন্তু বুধবারের ম্যাচ নিয়ে কথা উঠলেই সব কিছু গৌণ হয়ে পড়ছে।

ম্যাচটাই যেন মেসি বনাম চেলসি!

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.