ঢাকা, সোমবার,২৫ মার্চ ২০১৯

শেষের পাতা

উপনির্বাচন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আ’লীগ ও গাইবান্ধায় জাপা প্রার্থী বিজয়ী

নয়া দিগন্ত ডেস্ক

১৪ মার্চ ২০১৮,বুধবার, ০০:০০ | আপডেট: ১৪ মার্চ ২০১৮,বুধবার, ০১:০৯


প্রিন্ট
শামীম হায়দার পাটোয়ারী

শামীম হায়দার পাটোয়ারী

জাতীয় সংসদের গাইবান্ধা-১ ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ আসনের উপনির্বাচন গতকাল অনুষ্ঠিত হয়েছে। নির্বাচনে গাইবান্ধায় জাতীয় পার্টি ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আওয়ামী লীগের প্রার্থী বিজয়ী হয়েছেন।
সুন্দরগঞ্জ (গাইবান্ধা) সংবাদদাতা জানান, গাইবান্ধা-১ সুন্দরগঞ্জ আসনে জাতীয় সংসদের দ্বিতীয় দফা উপনির্বাচনে জাপা মনোনীত প্রার্থী উপজেলা জাপার সভাপতি ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী (লাঙ্গল) আওয়ামী লীগ প্রার্থী আফরুজা বারীর চেয়ে ১০ হাজার ১৩ ভোটের ব্যবধানে বিজয়ী হয়েছেন।
গতকাল দুই-একটি বিছিন্ন ঘটনা ছাড়া নজিরবিহীন নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ভোট গণনার পর বেসরকারি ফলাফলে জাপার প্রার্থী ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী (লাঙ্গল) ৭৮ হাজার ৯২৬ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ প্রার্থী আফরুজা বারী পেয়েছেন ৬৮ হাজার ৯১৩ ভোট। এ ছাড়া এনপিপি প্রার্থী জিয়া জামান খান (আম) মার্কা পেয়েছেন ৪১৭ ও গণফ্রন্ট প্রার্থী শরিফুল ইসলাম (মাছ) মার্কা পেয়েছেন ৭১১ ভোট। আঞ্চলিক নির্বাচন অফিসার ও রিটার্নিং অফিসার সাহতাব হোসেন বেসরকারিভাবে জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী (লাঙ্গল) মার্কাকে নির্বাচিত ঘোষণা করেন। ভোটের হার শতকরা ৪৪.৪৬ ভাগ। মোট ভোটার সংখ্যা তিন লাখ ৩৮ হাজার ৫৫৬ জন এর মধ্যে প্রয়োগ করেছেন এক লাখ ৪৮ হাজার ৯৬৭ ভোট।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া সংবাদদাতা জানান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ (নাসিরনগর) আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বি এম ফরহাদ হোসেন সংগ্রাম নির্বাচিত হয়েছেন।
গতকাল রাতে নাসিরনগর উপজেলা পরিষদ হলরুমে এই আসনে ৭৪টি কেন্দ্রের প্রাপ্ত ফলাফলের ভিত্তিতে তার বিজয়ের ফলাফল ঘোষণা করা হয়। উপনির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা মো: সাহেদুন্নবী চৌধুরী এই ফলাফল ঘোষণা করেন।
রিটার্নিং কর্মকর্তা মো: সাহেদুন্নবী চৌধুরী আরো জানান, নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বি এম ফরহাদ হোসেন সংগ্রাম ৫২ হাজার ১৮৯ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী মো: রেজোওয়ান আহমেদ পেয়েছেন ৩৪ হাজার ১১ ভোট এবং ইসলামী ঐক্যজোট প্রার্থী এ কে এম আশরাফুল হক পেয়েছেন ২ হাজার ৮৯ ভোট।
এই আসনে মোট ১৩টি ইউনিয়ন। ভোটার দুই লাখ ১৪ হাজার ৯ জন। এর মধ্যে নারী ভোটার এক লাখ ৩ হাজার ৫৯৯ জন ও পুরুষ ভোটার এক লাখ ১০ হাজার ৪১০ জন। মোট ভোটকেন্দ্র ছিল ৭৪টি।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫