যতদিন প্রয়োজন ততদিন ইরাকে থাকবে ন্যাটো সেনা
যতদিন প্রয়োজন ততদিন ইরাকে থাকবে ন্যাটো সেনা

আমরা এখানে ইরাকের আমন্ত্রণ ছাড়া আসিনি, যতদিন প্রয়োজন ততদিন থাকব : ন্যাটো

নয়া দিগন্ত অনলাইন

মার্কিন নেতৃত্বাধীন ন্যাটো সামরিক জোটের প্রধান জেন্স স্টোলটেনবার্গ বলেছেন, যতদিন প্রয়োজন ততদিন ইরাকে থাকবে এ জোটের সেনারা।

দেশটি থেকে ন্যাটো সেনাদের সরিয়ে নেয়ার জন্য ইরাকের সংসদ সদস্যরা আহ্বান জানানোর কয়েকদিন পর ন্যাটো মহাসচিব একথা বললেন। তিনি দাবি করেন, ‘আমরা এখানে রয়েছি কারণ ইরাক চায় আমরা এখানে থাকি। আমরা এখানে ইরাকের আমন্ত্রণ ছাড়া আসিনি।’

ন্যাটো মাহসচিব দাবি করেন, ইরাকে সেনা রাখার বিষয়ে দেশটির প্রধানমন্ত্রী হায়দার আল-এবাদির কাছ থেকে ন্যাটো সামরিক জোট আনুষ্ঠানিক অনুরোধ পেয়েছে। তিনি বলেন, ‘আমরা প্রয়োজনের চেয়ে বেশি থাকব না এবং যতদিন প্রয়োজন আমরা ইরাকের প্রশিক্ষকদেরকে প্রশিক্ষণ দেব যাতে সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর আর উত্থান হতে না পারে।’

ইরাকে নয় হাজার মার্কিন সেনা, স্থায়ী সামরিক ঘাঁটি নির্মাণের চেষ্টা

ইরাকে বর্তমানে প্রায় নয় হাজার মার্কিন সেনা রয়েছে এবং তারা সেখানে স্থায়ী সামরিক ঘাঁটি নির্মাণের চেষ্টা চালাচ্ছে। ইরাকের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইব্রাহিম আল জাফারি বলেছেন, আমেরিকাকে স্থায়ী ঘাঁটি নির্মাণের অনুমতি দেওয়া হবে না। শুক্রবার রাতে রাশিয়ার রাজধানী মস্কোতে তিনি এ কথা বলেন।

ইব্রাহিম জাফারি ইরাক থেকে বিদেশি সেনা প্রত্যাহারের সময়সীমা নির্ধারণের জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি আরো বলেছেন, ইরাক সরকার নিজের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বের বিষয়ে কারো সঙ্গে আপোষ করে না।

তিনি বলেন, ২০১৪ সালে আমরা যখন জাতিসঙ্ঘ নিরাপত্তা পরিষদের কাছে আন্তর্জাতিক সহযোগিতার আবেদন জানিয়েছিলাম তখনো এ কথা জোর দিয়ে বলেছিলাম, যেকোনো সহযোগিতা হতে হবে ইরাকের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বের প্রতি সম্মান বজায় রেখে।

ইব্রাহিম জাফারি দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতা জোরদারের জন্য রাশিয়া সফর করেছেন।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.