বাংলাদেশ-জাপান যৌথ আয়োজন

গুলশান ইয়ুথ কাবে দুর্যোগ প্রস্তুতি বিষয়ক আলোকচিত্র প্রদর্শনী

নিজস্ব প্রতিবেদক
রাজধানীর গুলশান ইয়ুথ কাবে গতকাল থেকে শুরু হয়েছে তিন দিনব্যাপী দুর্যোগ ঝুঁকি হ্রাসবিষয়ক জাপান-বাংলাদেশ যৌথ আলোকচিত্র প্রদর্শনী। নগর যুব সম্প্রদায় ও শহরবাসীদের দুর্যোগ প্রস্তুতির ওপর সচেতনতা বৃদ্ধির ল্েয ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি), জাপানি উন্নয়ন সংস্থা-সিডস এশিয়া এবং গুলশান ইয়ুথ কাব যৌথভাবে এ প্রদর্শনীর আয়োজন করেছে।
গতকাল এ উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থেকে প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন ডিএনসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো: মেসবাহুল ইসলাম। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে সিডস এশিয়া বাংলাদেশের কান্ট্রি ডিরেকটর মিহারু সাতো উপস্থিত ছিলেন।
প্রদর্শনীটিতে বাংলাদেশের নগর অঞ্চলের বিভিন্ন বিষয়ের মোট ৫০টি ছবি স্থান পেয়েছে। সম্প্রতি ডিএনসিসি ও সিডস এশিয়ার যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত এক আলোকচিত্র প্রতিযোগিতার মাধ্যমে ছবিগুলো বাছাই করা হয়েছে। ওই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারী  পেশাদার ও অপেশাদার আলোকচিত্রীর মোট ২৫০টি  ছবি জমা পড়েছিল; যার মধ্য থেকে দুর্যোগ ঝুঁকি হ্রাসবিষয়ক ৫০টি ছবি নির্বাচন করা হয়। একই সাথে প্রদর্শনীটিতে জাপানের বহুল প্রচারিত দৈনিক সংবাদপত্র ‘কোবে শিম্বুন’ থেকে পাঠানো ২৮টি আলোকচিত্র রয়েছে। 
এসব ছবি মূলত ১৯৯৫ সালে সংঘটিত ‘হানশিন আওয়াজি’ ভূমিকম্পের বিপর্যয় বা য়তির দৃশ্য  ও ভূমিকম্প-পরবর্তী পুনর্গঠন এবং পুনর্বাসন কার্যক্রমের দৃশ্য প্রাধান্য পেয়েছে। প্রদর্শনীতে বাংলাদেশী ছবিগুলোকে ছয়টি ক্যাটাগরিতে ভাগ করা হয়েছেÑ নগরজীবন, পরিবেশ, নগরবন্যা, নগরদূষণ, আগুন ও দুর্যোগ সহনশীলতা। 
আলোকচিত্রগুলোর প্রথম প্রদর্শনী বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রের আর্ট গ্যালারিতে গত ফেব্রুয়ারি মাসের ৯ থেকে ১১ তারিখ পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হয়েছিল। তারই ধারাবাহিকতায় গতকাল গুলশান ইয়ুথ কাবে দ্বিতীয় প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে; যা অবশ্য কমিউনিটি পর্যায়ের প্রথম প্রদর্শনী।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.