জর্জ করোনেস
জর্জ করোনেস

৯৯ বছর বয়সে সাঁতারে বিশ্বরেকর্ড!

নয়া দিগন্ত অনলাইন

৯৯ বছর বয়সে সাঁতারে বিশ্বরেকর্ড গড়েছেন অস্ট্রেলিয়ার সাঁতারু জর্জ করোনেস। বুধবার কুইন্সল্যান্ডে ১০০-১০৪ বছর বয়সভিত্তিক সাঁতারে ৫০ মিটার ফ্রিস্টাইল ৫৬.১২ সেকেন্ডে শেষ করেন তিনি। খবর বিবিসির।

করোনেস এ পথে পেছনে ফেললেন ২০১৪ সালে ব্রিটিশ সাঁতারু জন হ্যারিসনের গড়া রেকর্ড।

কমনওয়েলথ গেমস সাঁতারের এই বাছাইপর্বে হ্যারিসনের চেয়ে ৩৫ সেকেন্ড সময় কম নেন করোনেস। যদিও তার কীর্তিকে বিশ্বরেকর্ড হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার আগে আন্তর্জাতিক সুইমিং ফেডারেশন (ফিনা) তা আনুষ্ঠানিকভাবে যাচাই করে দেখবে।

তবে ১০০ থেকে ১০৪ বছরের বয়সভিত্তিক সাঁতারে করোনেস রেকর্ডটির যোগ্য। কারণ আগামী মাসেই তিনি ১০০ বছরে পা দেবেন।

মজার ব্যাপার হলো, ৫০ মিটার ফ্রিস্টাইল (১০০-১০৪ বছর) ইভেন্টে করোনেসের কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী ছিল না! আয়োজক কর্তৃপক্ষ বিশ্বরেকর্ডটি ভাঙার চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়েছিলেন ব্রিসবেনের এই সাঁতারুকে। করোনেস চ্যালেঞ্জটি নিয়ে সবাইকে হতবাক করে দেন।

অস্ট্রেলিয়ার সাঁতারু দল ডলফিন্স এই ৯৯ বছর বয়সীর কীর্তি দেখে তাদের ফেসবুক পেজে লিখেছে, ‘আমরা এইমাত্র ইতিহাস গড়া দেখলাম।’

আরও আশ্চর্যের বিষয় হলো, করোনেস কিন্তু সাঁতার শুরু করেছেন অনেক দেরিতে। যৌবনে সাঁতার পছন্দ করলেও দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের আগে ছেড়ে দিয়েছিলেন। মানে, পেশাদার ছিলেন না। শরীর ঠিক রাখতে শুধু ব্যায়াম করতে সাঁতার শুরু করেন ৮০ বছর বয়সে!

বিশ্বরেকর্ড গড়া নিয়ে তার ভাষ্য, ‘এই বয়সে গতি তুলতে কিছুটা সময় লাগবেই। কিন্তু একটু বুদ্ধি খাটালেই অবিশ্বাস্য ফল পাওয়া যায়। এই সাঁতারটা ছিল আমার জন্য উদাহরণ।’

করোনেস কিন্তু এখানেই থামছেন না। আগামীকাল তিনি ১০০ মিটার ফ্রিস্টাইল সাঁতারে বিশ্বরেকর্ড গড়ার লক্ষ্যে পুলে নামবেন। এই রেকর্ডটিও হ্যারিসনের দখলে। তা নিজের করে নিতে চান করোনেস। করোনেসের বক্তব্য হলো, ‘তারুণ্য তো পেছনে ফেলে এসেছি। কিন্তু আমি সত্যিই এটা অর্জন করতে চাই এবং সেটা করার আত্মবিশ্বাসও আছে।’

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.