গাজীপুরে সন্ত্রাসী ভাঙাড়ি মিলন র‌্যাবের হাতে অস্ত্রসহ গ্রেফতার

টঙ্গী সংবাদদাতা

র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) -১ এর সদস্যরা গাজীপুর মহানগরীর বোর্ড বাজারে অভিযান চালিয়ে এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী ফরদুল ইসলাম মিলন ওরফে ভাঙাড়ি মিলন ওরফে ইয়াবা মিলনকে (৩০) গ্রেফতার করেছে। এ সময় তার কাছ থেকে চার রাউন্ড গুলি ও একটি ম্যাগাজিনসহ একটি অত্যাধুনিক বিদেশী পিস্তল উদ্ধার করে র‌্যাব। মিলন গাজীপুর মহানগরীর গাছা বা বোর্ড বাজার এলাকায় যুবলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত।
র‌্যাব জানায়, গত মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১১টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১ জানতে পারে সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজির উদ্দেশে সন্ত্রাসী মিলন সহযোগীদের নিয়ে বোর্ড বাজারে প্রাইভেটকার নিয়ে অবস্থান করছে। এ সংবাদ পেয়ে র‌্যাবের একটি দল ওই এলাকায় তল্লাশি শুরু করে মিলনকে অস্ত্র ও মাদকসহ আটক করে।
এ দিকে সন্ত্রাসী মিলনকে গ্রেফতারের সংবাদে এলাকাবাসীর মধ্যে স্বস্তি ফিরে এসেছে। এলাকাবাসী জানান, গ্রেফতারকৃত ভাঙাড়ি মিলন এলাকার চিহ্নিত চাঁদাবাজ ও অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী। সে যুবলীগের নাম ভাঙিয়ে ব্যবসার অন্তরালে চাঁদাবাজি ও মাদক ব্যবসাসহ বিভিন্ন অপরাধমূলক কর্মকাণ্ডে জড়িত। বিতর্কিত ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের কারণে প্রায় চার বছর আগে তাকে ছাত্রদল থেকে বহিষ্কার করা হলে যুবলীগে তার আশ্রয় হয়।
এলাকার বিভিন্ন শিল্পপ্রতিষ্ঠান থেকে সন্ত্রাসী মিলন নিয়মিত মোটা অঙ্কের মাসোয়ারা ও চাঁদা আদায় করত। এ ছাড়া বিভিন্ন মার্কেটের দোকান বরাদ্দ পাওয়ার জন্য তাকে মোটা অঙ্কের চাঁদা দিতে হতো। সম্প্রতি সে ডিস লাইনের ব্যবসায় আধিপত্য বিস্তার ও একক নিয়ন্ত্রণ গ্রহণের উদ্দেশ্যে সহযোগীদের নিয়ে এলাকায় কয়েক দফা অস্ত্রের মহড়া প্রদর্শন করে। তার বিরুদ্ধে গাজীপুরের বিভিন্ন থানায় মারামারি, ছিনতাই, চাঁদাবাজি, গাড়ি পোড়ানোসহ ১০টি মামলা ও ১৭টি সাধারণ ডায়েরি রয়েছে।
এলাকাবাসী আরো জানান, টাঙ্গাইলের সন্তান মিলন স্থানীয় কলমেশ্বরে নানান বাড়ির ওয়ারিশ সূত্রে প্রাপ্ত দেড় শতক জমিতে বাড়ি করে পরিবারের সদস্যদের সাথে বাস করে। ভাইসহ তার পরিবারের সদ্যরাও মাদক ব্যবসায় জড়িত।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.