আগের আসরেও কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটর্সের হয়ে খেলেছেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ
আগের আসরেও কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটর্সের হয়ে খেলেছেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ

পিএসএলে মাহদুল্লাহর খেলার সূচি

নয়া দিগন্ত অনলাইন

সুপার লিগের (পিএসএল) তৃতীয় আসরের পর্দা উঠতে যাচ্ছে আগামীকাল। এতে অংশ নিতে সংযুক্ত আরব আমিরাতের উদ্দেশে মঙ্গলবার রাতে দেশ ছেড়েছেন বাংলাদেশের তিন ক্রিকেটার মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, মোস্তাফিজুর রহমান ও সাব্বির রহমান।

এবার কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটর্সের হয়ে খেলবেন মাহমুদুল্লাহ। আগেরবারও একই দলের হয়ে খেলেছেন তিনি।

গত আসরে ডায়মন্ড ক্যাটাগরিতে ছিলেন মাহমুদুল্লাহ। এই ক্যাটাগরির খেলোয়াড়ের মূল্য ৭০ হাজার মার্কিন ডলার, যা বাংলাদেশী টাকায় প্রায় ৫৭ লাখ।

৬ মার্চ শ্রীলঙ্কায় নিদাহাস ট্রফি শুরু হওয়ায় সব ম্যাচে খেলতে পারবেন না মাহমুদুল্লাহ। পাঁচ ম্যাচে খেলবেন তিনি। এরপর দুবাই থেকে ৪ মার্চ সরাসরি দলের সাথে যুক্ত হবেন।

টুর্নামেন্ট আগামীকাল শুরু হলেও ২৩ তারিখ নিজেদের প্রথম ম্যাচে মাঠে নামবে রিয়াদের দল কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটর্স। বাংলাদেশ সময় বিকাল সাড়ে ৫টায় ম্যাচটি শুরু হবে।

কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটর্সের ম্যাচের সময়সূচি :

তারিখ------------------প্রতিপক্ষ------------সময়----------------------ভেন্যু

২৩ ফেব্রুয়ারি--------করাচি কিংস------- বিকাল ৫ টা ৩০ মিনিটে----দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম

২৪ ফেব্রুয়ারি-------লাহোর কালান্দার্স--- রাত ১০ টায় -----------দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম

২৮ ফেব্রুয়ারি-------ইসলামাবাদ ইউনাইটেড--রাত ১০ টায়--------শারজাহ ক্রিকেট স্টেডিয়াম

১ মার্চ--------------পেশোয়ার জালমি------ রাত ১০ টায়------- শারজাহ ক্রিকেট স্টেডিয়াম

৩ মার্চ---------------মুলতান সুলতান্স----- বিকাল ৫ টা ৩০ মিনিটে--- শারজাহ ক্রিকেট স্টেডিয়াম

 

আইপিএল থেকে মুনাফা ২ হাজার কোটি রুপি!

পরীক্ষামূলকভাবেই শুরু হয়েছিল ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) প্রথম আসর। সেটি ২০০৮ সালের কথা। সেই টুর্নামেন্টই এখন বোর্ড অব কন্ট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়ার (বিসিসিআই) আয়ের মূল অবলম্বন। বোর্ডের যে আয় এবং লাভ, তার ৯৫ শতাংশই নাকি আসে এই টুর্নামেন্ট থেকে! বোর্ডের একটি সূত্র অন্তত তেমনটাই জানাচ্ছে।

একাদশতম আইপিএলে তাই কোমর বেঁধে নামছে বিসিসিআই। অন্যবারের তুলনায় এ বারের আইপিএল থেকে অনেকটাই বেশি আয় করতে চায় তারা।

আগামী আর্থিক বছরে আয়-ব্যয়ের যে আনুমানিক হিসাব কষেছে বোর্ড, তাতে দেখা গেছে, আইপিএল খাত থেকেই তারা কমপক্ষে দুই হাজার ১৭ কোটি টাকা ঘরে তুলতে চায়।

প্রিমিয়ার লিগ থেকে বোর্ড যখন প্রায় দু’হাজার কোটি টাকা লাভের চিন্তাভাবনা করছে, তখন অন্য উৎসগুলো থেকে সব মিলিয়ে আয় হবে মোটে ১২৫ কোটি টাকা!

এই হিসাব থেকেই স্পষ্ট, বাকি ৩২০ দিনের তুলনায় আইপিএলের ৪৫ দিনে মোট ১৬ গুণ বেশি আয় করবে ভারতীয় ক্রিকেটের সর্বোচ্চ ওই সংস্থা।

লাভই যদি হয় দুই হাজার কোটি টাকা, তাহলে আইপিএল থেকে আয় হবে কত টাকা?

বিসিসিআই-এর ওই সূত্রটি জানাচ্ছে, একাদশ আইপিএল থেকে প্রায় সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকা আয় করবে বোর্ড। যার মধ্যে প্রায় ১২ শ' কোটি টাকা খরচ হবে টুর্নামেন্টেরই বিভিন্ন খাতে। আর বাকিটা আসবে ঘরে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.