স্বস্তির জয়োৎসবে আত্মবিশ্বাসী বার্সেলোনা

ক্রীড়া প্রতিবেদক

চাপমুক্ত বার্সেলোনা। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের নকআউটের আগেই জয়োৎসবে ফিরল স্পেনের জায়ান্টরা। লা লিগায় পরপর দুই ম্যাচে ড্রয়ের ফাঁদ থেকে বেরিয়ে এলো শীর্ষস্থানে থাকা বার্সেলোনা। শনিবার লায়নেল মেসি ও লুইস সুয়ারেজ রসায়নে দলটি প্রথম জয়োৎসব করল সর্বশেষ তিন খেলায়। ইবার সফর ঘরোয়া টুর্নামেন্টে জয়ে প্রত্যাবর্তনের পাশাপাশি চ্যাম্পিয়ন্স পারফেক্ট প্রস্তুতি সম্পন্নের বাড়তি চ্যালেঞ্জে দাঁড় করায় বার্সেলোনাকে। মাঠের লড়াইয়েও দলটির ফুটবলাররা ঘাম ঝরাতে বাধ্য হলেন স্বাগতিক ইবারের উজ্জীবিত নৈপুণ্যে। শুরুতেই নেয়া লিডের পর সফরকারীদের জয়োৎসব নিশ্চিত ৬৬ মিনিটে ইবার ১০ জনের দলে পরিণত হওয়ায়। একজন কম নিয়ে ম্যাচ শেষ করা স্বাগতিকদের ২-০ গোলে হারিয়ে বার্সেলোনাও ফিরেছে জয়োৎসবে।
আগামীকাল চ্যাম্পিয়ন্স লিগের রাউন্ড অব সিক্সটিনের প্রথম লেগে অংশ নিতে ইংল্যান্ড সফর করবে লা লিগার শীর্ষস্থানে থাকা মেসি অ্যান্ড কোং। তাদের প্রতিপক্ষ ইংল্যান্ডের চ্যাম্পিয়ন অল ব্লুজ খ্যাত চেলসি। মহাদেশীয় সাফল্যের রেসে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচের পারফেক্ট প্রস্তুতি নিশ্চিত হয় লা লিগায় টানা দুই ড্রয়ের ফাঁদ থেকেও বার্সেলোনার মুক্তি। টুর্নামেন্টের ইতিহাসে সর্বোচ্চ একটানা ৩১ খেলায় অপরাজিত থাকার পুরনো রেকর্ডও দলটি স্পর্শ করেছে ইবার সফরের জয়ে। ২৪ ম্যাচে ৬২ পয়েন্ট অর্জনে লা লিগার শীর্ষস্থান সুসংহত হয়েছে বার্সেলোনার। তাদের চেয়ে ১০ পয়েন্ট কম নিয়ে দুইয়ে অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ সমাপ্ত করেছে ২৩ ম্যাচ।
এসপানিওল ও গেটাফের বিপক্ষে টানা ড্রয়ের দুঃস্বপ্ন পেছনে ফেলার মিশনে বার্সেলোনার সাফল্যে এক্স ফ্যাক্টর ভূমিকায় আক্রমণভাগের জুটি মেসি ও সুয়ারেজ। ক্রসবার দুর্ভাগ্যে নিজে গোল না পেলেও সফরকারীদের দুই গোলে অবদান রাখেন আর্জেন্টাইন সুপারস্টার। ১৬ মিনিটে মেসির বাড়ানো পাসে চলতি মওসুমের লা লিগায় সুয়ারেজের ১৭তম গোল এগিয়ে দেয় বার্সেলোনাকে। উরুগুয়ের স্ট্রাইকারের গোল বার্সেলোনা ক্যারিয়ারের সবচেয়ে বেশি অ্যাসিস্টের রেকর্ডও দখলে গেছে মেসির। স্প্যানিশ ক্লাবটির জার্সিতে একক ফুটবলার হিসেবে আর্জেন্টাইন সুপারস্টার সর্বোচ্চ ২৫ গোলের বল জোগান দিয়েছেন সুয়ারেজকে।
ন্যূনতম ব্যবধানে ওই লিডে দ্বিতীয়ার্ধে খেলায় মাঠে ফিরে সফরকারীদের বাড়তি চ্যালেঞ্জে ফেলতে সক্ষম হয় স্বাগতিক ইবার। তবে ৬৬ মিনিটে ফাবিয়ান অরিয়ানার দ্বিতীয় হলুদ কার্ড হজমে মাঠ থেকে বহিষ্কৃত হলে জয়ের হট সিটে বার্সেলোনা। সফরকারীদের দ্বিতীয় গোলেও উপস্থিতি লায়নেল মেসির। নির্ধারিত সময় শেষ হওয়ার ২ মিনিট আগে তার দুর্দান্ত শট ফিরিয়েও দ্বিতীয় গোল হজম থেকে নিজেকে রক্ষা করতে ব্যর্থ ইবারের গোলরক্ষক দিমিত্রভিচ। তাকে পরাস্ত করে ফাঁকায় দাঁড়ানো জোর্ডি আলবা ফিরতি বলে দুর্দান্ত ভলিতে গোল করেন।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.