জাতীয় গ্রিডের তার ছিঁড়ে যাওয়ায় রূপগঞ্জে ৯ ঘণ্টা বিদ্যুৎহীন

পরীক্ষার্থীদের ভোগান্তি
রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) সংবাদদাতা
নারায়ণগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-২ এর অধীনে রূপগঞ্জ উপজেলার সর্বত্র দীর্ঘ ৯ ঘণ্টা বিদ্যুৎহীন থাকায় চরম ভোগান্তি পোহাল স্থানীয় জনসাধারণ। কোনো ঘোষণা ছাড়াই দীর্ঘ সময় বিদ্যুৎহীন থাকায় জনভোগান্তির সৃষ্টি হয়। এসএসসি পরীক্ষার্থীদের লেখাপড়া চরমভাবে ব্যাহত হয়েছে। কর্তৃপক্ষের দাবি, জাতীয় গ্রিডের তার ছিঁড়ে যাওয়ার এ সমস্যা তৈরি হয়েছে। 
স্থানীয় বাসিন্দাদের দেয়া তথ্যে জানা যায়, গত সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় কোনো ঘোষণা ছাড়াই বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়ে রূপগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন ও পৌর এলাকা। এ সঙ্কট কাটে রাত সাড়ে ৩টায়। এতে ভুলতা গ্রিডের অধীনে রূপগঞ্জ উপজেলা ও নরসিংদীর একাংশের কলকারখানা বন্ধ থাকার পাশাপাশি বাসাবাড়ি হয়ে যায় ঘুটঘুটে অন্ধকার। এসএসসি পরীক্ষার্থীরা পড়ে বিপাকে। তাদের পরীক্ষা প্রস্তুতিতে বিঘœ ঘটে বলে জানান অভিভাবকেরা। জনতা উচ্চবিদ্যালয় থেকে অংশ নেয়া এসএসসি পরীক্ষার্থী সাবরিনা রুমি মীম জানায়, তার বাড়িতে বিদ্যুৎ ছাড়া বিকল্প ব্যবস্থা ছিল না। ফলে তার লেখাপড়ায় বিঘœ ঘটেছে। 
এসব বিষয়ে নারায়ণগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-২ এর ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম) লুৎফুল হাসান বলেন, গত সোমবার হঠাৎ জাতীয় গ্রিডের অধীনে ভুলতার গ্রিড আওতাধীন যান্ত্রিক ত্রুটি ও তার ছিঁড়ে যাওয়ায় এ সমস্যা তৈরি হয়েছে। বিষয়টি জাতীয় গ্রিডের অধীনে থাকায় রূপগঞ্জ ও নরসিংদীর একাংশ বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়ে। পরে সমস্যা নিয়ে সংশ্লিষ্ট পাওয়ার সাপ্লিমেন্ট অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট (পিইডিবি) বিভাগকে জানালে তারা দ্রুত কাজ শুরু করেন। তবে রাত হয়ে যাওয়াতে একটু সময় ব্যয় হয়। এ যান্ত্রিক ত্রুটি কাটাতে দু-এক দিন সময় লাগলেও বিশেষ ব্যবস্থায় বিদ্যুৎ সরবরাহ অব্যাহত রাখা হয়েছে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.