ঢাকা, শনিবার,২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

শিক্ষা

ঢাবির আরবি বিভাগের প্রথম আন্তর্জাতিক সম্মেলন সোমবার

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮,রবিবার, ২০:৪৪


প্রিন্ট

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) আরবি বিভাগে প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে দুই দিনব্যাপী আন্তর্জাতিক সম্মেলন।
আগামীকাল সোমবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবনে ‘লিভিং ইন পিচ অ্যান্ড হার্মোনি : দ্য রিসাল-ই-নুর পারসপেক্টিভ’ শীর্ষক এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।

ঢাবির আরবি বিভাগ এবং ইস্তাম্বুল ফাউন্ডেশন ফর সায়েন্স অ্যান্ড কালচার যৌথভাবে এ সম্মেলন আয়োজন করছে।
আজ রোববার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের কলাভবনের ৪০০১ নাম্বার কক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে জানানো হয়।

বিভাগের সহকারি অধ্যাপক মুহা. রফিকুল ইসলামের সঞ্চালনায় সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে ছিলেন প্রথমবারের এ সম্মেলনের সভাপতি ও আরবি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ ইউছুফ, সম্মেলন কমিটির সাধারণ সম্পাদক ও বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. আবদুল্লাহ আল মারুফ, বিশ্বধর্ম ও সংস্কৃতি বিভাগের সহকারি অধ্যাপক আবদুল্লাহ আল মাহমুদ প্রমুখ।

এছাড়া তুরস্কের সংসদ সদস্য সায়ীদ ইউজে ও অধ্যাপক ড. আলফ আলসালান সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন।

এ সময় সম্মেলনের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে ড. মুহাম্মদ ইউসুফ বলেন, বাংলাদেশ ভ্রাতৃপ্রতিম দেশ। সে হিসেবে সব দেশের সাথে আমাদের সম্পর্ক অনেক ভালো।

তিনি বলেন, ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে ইসলামের নামে আজ বিশ্বব্যাপী জঙ্গিবাদ ছড়ানো হচ্ছে। এ সম্মেলনের মাধ্যমে আমরা সে ভুলগুলো সবার সামনে তুলে ধরতে চাই। সম্মেলনে আটটি দেশ থেকে আসা শিক্ষাবিদ এবং বিশেষজ্ঞদের ৪৮ প্রবন্ধ উপস্থাপন করা হবে।

দু’দিনব্যাপী এ সম্মেলন উদ্বোধন হবে সোমবার সকাল ১০টায়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. আবদুল মান্নান এবং সমাপনী পর্বে সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নুর প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন।

সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ডক্টর মো. আখতারুজ্জামান।

এছাড়া তুরস্কের কয়েকজন সংসদ সদস্য ও কয়েকটি দেশের রাষ্ট্রদূত অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫