নবম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড গঠিত, কাল সংবাদ সম্মেলন

নিজস্ব প্রতিবেদক

নবম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড গঠন করেছে সরকার। আজ তথ্য মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি মোঃ নিজামুল হককে চেয়ারম্যন করে গঠিত এ বোর্ডে আরো ১২ জন সদস্য রয়েছেন।

পূর্বের সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড রোয়েদাদ, সংবাদপত্রশিল্পের আর্থিক অবস্থা, সক্ষমতা, জীবনযাত্রার ব্যয়, সমতুল্য মজুরিসহ সংশ্লিষ্ট বিষয়াদি পর্যালোচনা করে সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থায় নিয়োজিত সাংবাদিক, কর্মচারী ও প্রেস শ্রমিকদের জন্য বেতন-ভাতা ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা সম্পর্কে ছয় মাসের মধ্যে সরকারের কাছে সুপারিশ পেশ করবে এ বোর্ড।

ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার কর্মীদের বিষয়টিও পরীক্ষা নিরীক্ষা করে এ বোর্ড সুপারিশ প্রণয়ন করবে বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ রয়েছে।

এব্যাপারে সচিবালয়ে তথ্য অধিদপ্তরে আগামীকাল মঙ্গলবার দুপুর দু’টায় তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু ও তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম এবিষয়ে সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখবেন।

তথ্যসচিব মোঃ নাসির উদ্দিন আহমেদ ও প্রধান তথ্য অফিসার কামরুন নাহার এ সম্মেলনে যোগ দেবেন।

এদিকে প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ শ্রম আইন, ২০০৬ এর ১৪৩ ধারা অনুযায়ী একজন চেয়ারম্যান ও সংবাদপত্র প্রতিষ্ঠানের মালিকপক্ষ এবং সামাজিক ও সংবাদপত্র কর্মচারী/শ্রমিকগণের প্রতিনিধিত্বকারী সমসংখ্যক প্রতিনিধি সমন্বয়ে সরকার নবম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড গঠন করলেন।

বোর্ড সদস্য তালিকায় রয়েছেন নিউজপেপার ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ’র সভাপতি মতিউর রহমান, সহসভাপতি এ কে আজাদ, কোষাধ্যক্ষ মতিউর রহমান চৌধুরী, সদস্য মাহফুজ আনাম ও তাসমিমা হোসেন, বাংলাদেশ সংবাদপত্র পরিষদের আহ্বায়ক এম. জি কিবরিয়া চৌধুরী, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মনজুরুল আহসান বুলবুল, মহাসচিব ওমর ফারুক, বাংলাদেশ সংবাদপত্র কর্মচারী ফেডারেশনের সভাপতি মোঃ মতিউর রহমান তালুকদার, মহাসচিব মোঃ খায়রুল ইসলাম, বাংলাদেশ ফেডারেশন ইউনিয়ন অব নিউজপেপার প্রেস ওয়ার্কার্সের সভাপতি মাঃ আলমগীর হোসেন খান ও মহাসচিব মাঃ কামালউদ্দিন।

তথ্য মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব (প্রেস) মোঃ মিজান-উল-আলম নবম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ডের সচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন এবং তথ্য মন্ত্রণালয় বোর্ডকে সাচিবিক সহায়তা প্রদান করবে।

বোর্ডের কার্যপরিধি হিসেবে প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, নবম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড অষ্টম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড রোয়েদাদ পর্যালোচনা করে সংবাদপত্র ও সংবাদ সংস্থায় নিয়োজিত সাংবাদিক, সাধারণ কর্মচারী ও প্রেস শ্রমিকদের জন্য বেতন-ভাতা ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা সম্পর্কে সুপারিশ করবে।

এ সুপারিশ প্রণয়নকালে সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড, সংবাদপত্রে বিদ্যমান আর্থিক অবস্থা ও সক্ষমতা, জীবনযাত্রার ব্যয়, সরকার, কর্পোরেশন এবং ব্যক্তি মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানের সমতুল্য চাকরির মজুরির বিরাজমান হার, দেশের বিভিন্ন অঞ্চল ও এলাকার সংবাদশিল্পের বিদ্যমান অবস্থা এবং বোর্ডের বিবেবচনায় প্রাসঙ্গিক অন্যান্য অবস্থা বিবেচনা করে দেখবে।

প্রস্তাবিত ওয়েজ বোর্ড প্রয়োজনে অন্তর্বর্তীকালীন সংবাদপত্র কর্মচারীদের মহার্ঘ ভাতা প্রদানের বিষয় বিবেচনা করে সরকারের কাছে একটি সুনির্দিষ্ট সুপারিশ পেশ করতে পারবে।

উল্লেখ্য, এর আগে ২০১২ সালের ১৮ জুন অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি কাজী এবাদুল হকের নেতৃত্বে অষ্টম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ডের সুপারিশক্রমে ২০১৩ সালের ১১ সেপ্টেম্বর অষ্টম সংবাদপত্র রোয়েদাদের প্রজ্ঞাপন জারি হয়েছিল।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.