ঢাকা, বুধবার,২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

ক্রিকেট

আজ বাংলাদেশের একাদশে চমক

নয়া দিগন্ত অনলাইন

২৩ জানুয়ারি ২০১৮,মঙ্গলবার, ১১:১২ | আপডেট: ২৩ জানুয়ারি ২০১৮,মঙ্গলবার, ১১:৩১


প্রিন্ট
বাংলাদেশ দল

বাংলাদেশ দল

ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম দুটি ম্যাচে জিতে ফাইনাল নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ। এখনো বাকি সিরিজের আরো দুটি ম্যাচ। ফলে একাদশ নিয়ে এক্সপেরিমেন্ট করার সুযোগ আছে। সেটাই করার আভাস দিয়েছিলেন দলের টেকনিক্যাল ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদ সুজন। সেই হিসেবে আজ তৃতীয় ম্যাচে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একাদশে চমক থাকতে পারে। দলে জায়গা পেতে পারেন রিসার্ভ বেঞ্চে বসে থাকা কেউ।

বেলা ১২টায় জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ।

এর আগে সিরিজের প্রথম ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে ৮ উইকেটে হারায় বাংলাদেশ। বড় জয়ের পরে দ্বিতীয় ম্যাচে স্পিনার সানজামুল ইসলামের জায়গায় নেয়া হয় অলরাউন্ডার সাইফউদ্দিনকে।

দ্বিতীয় ম্যাচেও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষেও ১৬৩ রানের বড় জয় পায় বাংলাদেশ।

জিম্বাবুয়ে ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে পরবর্তী দুই ম্যাচের স্কোয়াড ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ। ১৬ থেকে ১৫ জনের দল গঠন করা হয়েছে। আগের দল থেকে বাদ পড়েছেন ইমরুল কায়েস। এবার পালা একাদশ গঠনের। সেটা টস হওয়ার পরই জানা যাবে।

ত্রিদেশীয় সিরিজের স্কোয়াডে থাকা তিন ক্রিকেটার এখনো মূল একাদশে সুযোগ পাননি। তারা হলেন উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ মিঠুন, অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজ ও আবুল হাসান রাজু। আজ হয়ত তাদের কপাল খুলতে পারে।

এদিকে ম্যাচ নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে খালেদ মাহমুদ সুজন বলেছিলেন, ‘জয় একটা অভ্যাস। জয়ের থেকে দূরে সরে যাওয়া মানেই সমস্যা। আমরা এই দল নিয়েও হারতে পারি। তারপরও কিছু ট্যাকটিকাল ও টেকনিক্যাল পরিবর্তন তো থাকবে বা থাকতে পারে। তবে উইনিং কম্বিনেশন ধরে রাখাটা গুরুত্বপূর্ণ। আমরা এখনো ফাইনাল জিতিনি। ফাইনাল জেতাটাই গুরুত্বপূর্ণ। হয়তো আমরা দুটি ম্যাচ দারুণভাবে জিতেছি, ভালো একটা অবস্থানে আছি। এখন জয় ধরে রাখতে চাই।’

 

ফাইনাল খেলার বাসনা জিম্বাবুয়ের

তিন জাতি ক্রিকেটে আজই শেষ ম্যাচ খেলে ফেলতে চায় না জিম্বাবুয়ে। ডাবল লিগের এ টুর্নামেন্টে যদি ফাইনালে না উঠতে পারে, তাহলে আজই তাদের শেষ ম্যাচ। কিন্তু এখানে থেমে থাকতে চান না তারা। আজ বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচ। আর এ ম্যাচে বাংলাদেশকে হারাতে দৃঢ়তা দেখাচ্ছে জিম্বাবুয়ের উইকেটরক্ষক কাম ব্যাটসম্যান পিটার মুর। কাল সাংবাদিকদের তিনি বলেন, ‘আমরা এ টুর্নামেন্টের ফাইনালে খেলতে এসেছি। ফাইনালে খেলতে পারলে সেটাই হবে আমাদের জন্য বড় অর্জন। এ জন্য আমাদের বাংলাদেশকে হারাতে হবে। আমরা সে কাজটা করতে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ।’ তিন জাতিতে জিম্বাবুয়ে তাদের প্রথম ম্যাচে বাজেভাবে হেরেছিল বাংলাদেশের বিপক্ষে। সে বাংলাদেশই তাদের আজকের ম্যাচের প্রতিপক্ষ। তিনি বাংলাদেশ বলেই ঘাবড়ে যেতে চায় না আফ্রিকার দলটি। শ্রীলঙ্কাকে প্রথম ম্যাচে যেভাবে হারিয়েছিল, সেভাবেই তারা খেলতে চায় এ ম্যাচও।

তিনি বলেন,‘ঘরের মাঠে বাংলাদেশ কতটা শক্তিশালী তা তাদের ম্যাচ পরিসংখ্যান দেখলেই বোঝা যাবে। দেশের বাইরেও তারা শক্তিশালী এক দল। তবে আমরা তাদের হারানোর যোগ্যতা রাখি।’ বাংলাদেশের শক্তিমত্তার কথা বলতে যেয়ে তিনি বলেন, ‘তাদের শক্তির মূলে স্পিন। তা ছাড়া তাদের মুস্তাফিজ ও রুবেলও চমৎকার বোলিং করেন। আমরা তাদের মোকাবেলার জন্য পর্যাপ্ত প্রস্তুতি নিয়েছি।’ সর্বশেষ ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে হারের কারণ জানাতে গিয়ে পিটার মুর বলেন, ‘আসলে উইকেট আমাদের বিভ্রান্ত করেছিল। আগের ম্যাচের মতোই দেখতে ছিল উইকেট। কিন্তু বাস্তবে সেটা ছিল না।’ বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘আসলে সে ম্যাচে অনেক কিছুই আমাদের কন্ট্রোলে ছিল না। আমরা হোম ওয়ার্ক করে খেলেছি পরের (শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম) ম্যাচ। তা ছাড়া শেষ ম্যাচেও আমরা সেভাবে খেলতে পারিনি। তবে এ ম্যাচে আমরা জয়ে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ। কারণ ফাইনালে যেতে হলে আমাদের এ ম্যাচ জিততেই হবে।’

উল্লেখ্য, ২৯ ওয়ানডে খেলার অভিজ্ঞতাসম্পন্ন এ ব্যাটসম্যান প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে ৩৩ রান করে আউট হন রুবেল হোসেনের বলে। পরের দুই ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে রান করেছেন তিনি যথাক্রমে ১৯ ও শূন্য।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫