প্রধানমন্ত্রীকে সেনা সংস্থার বাস্তবায়নাধীন ২টি প্রকল্প সম্পর্কে অবহিতকরণ

বাসস
বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর বিশেষ পূর্ত সংস্থা (এসডব্লিউও) গতকাল রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী ও দেশের অন্য ভিভিআইপিরা বিদেশ ভ্রমণকালে যেসব উপঢৌকন ও স্মারক গ্রহণ করেন সেসব সংরক্ষণের জন্য নির্মাণাধীন ট্রেজারির নকশা ও নির্মাণ কাজের অগ্রগতি সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রীকে অবহিত করেছে।
প্রধানমন্ত্রী তার তেজগাঁওয়ের কার্যালয়ে রাজধানীর বিজয় সরণিতে নভোথিয়েটার ও সামরিক জাদুঘর এলাকায় বাস্তবায়নাধীন প্রকল্পটির একটি পাওয়ার পয়েন্ট উপস্থাপনা প্রত্যক্ষ করেন।
পরে প্রধানমন্ত্রী পূর্বাচলে ৩০০ ফুট সড়কের উভয় পাশে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর এসডব্লিউও’র বাস্তবায়নাধীন খালের নকশাও প্রত্যক্ষ করেন।
উপস্থাপন প্রত্যক্ষ শেষে প্রধানমন্ত্রী সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা দেন।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে আর্দ্রতা ও আগুনের ঝুঁকির বিষয়টি মাথায় রেখে ট্রেজারির নির্মাণকাজ সম্পন্ন করতে বলেন।
উপস্থাপনা শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম হেলাল সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে বলেন, প্রধানমন্ত্রী নির্মাণকাজের অগ্রগতিতে সন্তোষ  প্রকাশ করেন এবং কিছু নির্দেশনা ও পরামর্শ দেন। সেনাবাহিনী প্রধান আবু বেলাল মোহাম্মদ শফিউল হক ট্রেজারির বিভিন্ন দিক তুলে ধরে স্বাগত বক্তব্য রাখেন।
শেখ হাসিনা বলেন, ট্রেজারি এমনভাবে নির্মাণ করা উচিত যাতে উপঢৌকন ও স্মারকগুলোর ক্ষতি না হয় এবং এতে যাতে প্রয়োজনীয় অগ্নিনির্বাপণ সরঞ্জাম থাকে।
ওপেক বাংলাদেশের সাথে সম্পর্ক সম্প্রসারণে আগ্রহী
ওপেক ফান্ড ফর ইন্টারন্যাশনাল ডেভেলপমেন্টের (ওএফআইডি) মহাপরিচালক ও সিইও সুলেইমান জাসির আল হারবিশ বলেছেন, ওপেক বাংলাদেশের সাথে সহযোগিতা সম্প্রসারিত করতে চায়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে গতকাল তার তেজগাঁও কার্যালয়ে এক সৌজন্য সাক্ষাৎকালে জাসির আল হারবিশ বলেন, বাংলাদেশ হচ্ছে ওপেকের এক বড় অংশীদার এবং ৩২ বছর থেকে উভয়ের মধ্যে সুসম্পর্ক বিদ্যমান। এখন আমরা বাংলাদেশের সাথে সম্পর্ক সম্প্রসারণে নতুন নতুন বিষয় নিয়ে কাজ করতে চাই।
প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ ও কল্যাণ তহবিলে ২০ প্রতিষ্ঠানের অনুদান প্রদান
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার ত্রাণ ও কল্যাণ তহবিলে ২০ সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠান এবং ব্যক্তির কাছ থেকে অনুদানের অর্থ এবং অনুদান হিসেবে প্রদত্ত কম্বল গ্রহণ করেছেন।
প্রধানমন্ত্রী গতকাল তার তেজগাঁওয়ের কার্যালয়ে চার কোটি ২৫ লাখ টাকা অনুদানের চেক ও পাঁচ হাজার পিস কম্বল গ্রহণ করেন। অনুদানের চেক প্রদানকারীরা হচ্ছেনÑ মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়, ইনভেস্টমেন্ট করপোরেশন অব বাংলাদেশ (আইসিবি), ইউএনডিপির কান্ট্রি ডিরেক্টর সুদীপ্ত মুখার্জি, ফরেন অফিস স্পাউজ অ্যাসোসিয়েশন (এফওএসএ), বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম ট্যাংকার্স ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন, হোসাফ গ্রুপ, এইচটিএমএস লিমিটেড, শিপার্স কাউন্সিল অব বাংলাদেশ, হামদর্দ ল্যাবরেটরিজ, বাংলাদেশ টয় মার্চেন্ট ম্যানুফ্যাকচারিং অ্যাসোসিয়েশন, বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন, সুরাইয়া ইন্টারন্যাশনাল ট্রেড কোম্পানি, বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশন, সানি ডেল স্কুল ও গুলশান জগার্স সোসাইটি।
মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দ, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান এবং প্রেস সচিব ইহসানুল করিম এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.