সুনামগঞ্জ-৪ আসন

বিএনপির প্রার্থী হতে চান উপজেলা চেয়ারম্যান দেওয়ান জাকেরীন

সুনামগঞ্জ সংবাদদাতা

মরমী কবি হাসনরাজার প্রপৌত্র সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির সহসভাপতি ও সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান দেওয়ান জয়নুল জাকেরীন আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সুনামগঞ্জ-৪ (সদর-বিশ্বম্ভরপুর) আসনে বিএনপির মনোনয়ন নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে চান। সম্প্রতি সুনামগঞ্জ শহরে হাসনরাজার বাড়িতে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময়কালে তিনি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার আগ্রহ ব্যক্ত করে তিনি বলনে, নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পরপরই তিনি দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার সাথে দেখা করে দলীয় মনোনয়ান চাইবেন।
সদর উপজেলা পরিষদে চারবার বিপুল ভোটে নির্বাচিত হয়ে জনপ্রতিনিধিত্ব করার অভিজ্ঞতা রয়েছে তার। তিনি বলেন, আগামী জাতীয় নির্বাচনে যদি বিএনপি অংশগ্রহণ করে এবং দল থেকে তাকে মনোনয়ন দেয়া হয়, কেবল তা হলেই তিনি নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। বিএনপি নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করলে বা দল মনোনয়ন না দিলে তিনি দলের বিরুদ্ধে যাবেন না। দেওয়ান জয়নুল জাকেরীন বলেন, আমি সুনামগঞ্জ পৌরসভার চেয়ারম্যান ছিলাম। চারবার সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছি। আমার বাবা মরহুম দেওয়ান আনোয়ার রাজা চৌধুরী ১৯৭০ সালের নির্বাচনে ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টির মনোনীত প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করেন। ১৯৭৯ সালের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমার বড় ভাই দেওয়ান সামছুল আবেদীন বিএনপির প্রার্থী হয়ে এমপি নির্বাচিত হন। ১৯৯১ সালের নির্বাচনে তিনি বিএনপির প্রার্থী হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। ১৯৯৬ সালের নির্বাচনে তিনি সুনামগঞ্জ-৩ আসন থেকে বিএনপির প্রার্থী হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। তার ছোট ভাই মমিনুল মউজদীন সুনামগঞ্জ পৌরসভার টানা তিন বারের চেয়ারম্যান ছিলেন।
তিনি বলেন, মানুষের আস্থা ও ভালোবাসায় আমি স্থানীয় সরকারের পাঁচটি নির্বাচনে বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়েছি। আমি শত প্রতিকূলতা উপেক্ষা করে বিএনপি করছি। আগামী জাতীয় নির্বাচনে সুনামগঞ্জ সদর-বিশ্বম্ভরপুর সংসদীয় এলাকা থেকে নির্বাচন করতে চাই। স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানে দীর্ঘ দিনের কাজের অভিজ্ঞতা সঞ্চয় করে এই এলাকার জনগণের জন্য জাতীয়পর্যায়ে কাজ করার আশা নিয়ে আমি আগামী সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণের প্রত্যাশা করছি।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.