ঢাকা, রবিবার,২২ এপ্রিল ২০১৮

খুলনা

সুন্দরবনে বন্দুকযুদ্ধে বনদস্যু নিহত : অপহৃত ৬ জেলে, অস্ত্র ও মালামাল উদ্ধার, আস্তানা ধ্বংস

বাগেরহাট ও শরণখোলা সংবাদদাতা

০৯ জানুয়ারি ২০১৮,মঙ্গলবার, ১১:৫৫ | আপডেট: ০৯ জানুয়ারি ২০১৮,মঙ্গলবার, ১৪:৪০


প্রিন্ট
উদ্ধার হওয়া ৬ জেলে

উদ্ধার হওয়া ৬ জেলে

বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবনে নৌ-পুলিশের সাথে বন্দুবযুদ্ধে ফরিদ হোসেন (৩৫) নামের এক বনদস্যু নিহত হয়েছেন। তিনি সুন্দরবনের বনদস্যু ছোট্ট বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড বলে জানা গেছে।

সোমবার দিনগত রাত আড়াইটার দিকে চাঁদপাই রেঞ্জের ধানসাগর স্টেশনের শ্যালা নদী সংলগ্ন কাতিয়ার খালে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

পরে দস্যুদের কাছে বন্দি থাকা ছয় জেলেসহ দুটি আগ্নেয়াস্ত্র, ৬টি মোবাইল ফোন, একটি ডিঙ্গি নৌকা ও বিভিন্ন মালামাল উদ্ধার করা হয়। এসময় দস্যুদের একটি আস্তানা গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে।

উদ্ধার হওয়া জেলেরা হলেন, শরণখোলা উপজেলার দক্ষিণ বাধাল গ্রামের ইসমাইল ফকিরের ছেলে শাহ্ আবুল ফকির (২৮), উত্তর রাজাপুর গ্রামের ইসমাইল খানের ছেলে সুমন খান (২০), একই গ্রামের মোফাজ্জেল আকনের ছেলে সুমন আকন (২৮), রতিয়া রাজাপুর গ্রামের রুহুল পহলানের ছেলে ইসরাফিল পহলান (২৩), মোংলা উপজেলার খাসেরডাঙ্গা গ্রামের নিরোধ হালদারের ছেলে প্রতুল হালদার (২৮) এবং জয়মনি গ্রামের ছত্তার হাওলাদারের ছেলে হাফিজ হাওলাদার (২৫)।

অভিযানের নেতৃত্বে থাকা শরণখোলা উপজেলার ধানসাগর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এএসআই আকবর আলী জানান, অপহৃত জেলেদের উদ্ধারে সোমবার রাতে নৌ-পুলিশের পাঁচ সদস্য নিয়ে সুন্দরবনে অভিযান চালানো হয়। রাত আনুমানিক আড়াইটার দিকে শ্যালা নদীর কাতিয়ার খালে পৌঁছলে বনের ভেতর থেকে জেলেদের চিৎকার ভেসে আসে। এসময় সামনের দিকে অগ্রসর হলে পুলিশকে লক্ষ্য করে দস্যুরা গুলি ছুঁড়তে থাকে। পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। প্রায় আধা ঘন্টা গোলাগুলির পর টিকতে না পেরে দস্যুরা বনের গহীনে পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থলে তল্লাশি চালিয়ে গুলিবিদ্ধ ওই দস্যুর লাশ উদ্ধার করা হয়।

এসময় দস্যুদের আস্তানা থেকে বন্দি ছয় জেলে, একটি টুটুবোর রাইফেল, একটি এয়ারগান, ৬টি মোবাইল ফোনসেট, একটি ডিঙ্গি নৌকাসহ বিভিন্ন মালামাল উদ্ধার করা হয়। নিহত দস্যু ফরিদের বাড়ি মোংলা উপজেলার চিলা ইউনিয়নের বৌদ্দমারী গ্রামে বলে জানান তিনি।

শরণখোলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: কবিরুল ইসলাম জানান, নিহত দস্যুর লাশ ময়না তদন্তের জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। উদ্ধার হওয়া জেলেদেরকে তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত রোববার ও সোমবার পূর্ব সুন্দরবনের চাঁদপাই রেঞ্জের ধানসাগর স্টেশনের বিভিন্ন এলাকা থেকে মুক্তিপণের দাবিতে ৭ জেলেকে অপহরণ করে বনদস্যু ছোট্ট বাহিনী।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫