গণতন্ত্রের সূতিকাগার (!) এখন ডলার দিয়ে মানুষের ইচ্ছে কিনতে চাচ্ছে : এরদোগান
গণতন্ত্রের সূতিকাগার (!) এখন ডলার দিয়ে মানুষের ইচ্ছে কিনতে চাচ্ছে : এরদোগান

গণতন্ত্রের সূতিকাগার (!) এখন ডলার দিয়ে মানুষের ইচ্ছে কিনতে চাচ্ছে : এরদোগান

নয়া দিগন্ত অনলাইন

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেব এরদোগান বলেছেন, জনাব ট্রাম্প, তুরস্কের গণতান্ত্রিক ইচ্ছে আপনি ডলার দিয়ে কিনতে পারবেন না। যুক্তরাষ্ট্রকে অন্য দেশগুলো কী বলে ডাকে? গণতন্ত্রের সূকিতাকাগার। গণতন্ত্রের সূতিকাগার এখন ডলার দিয়ে মানুষের ইচ্ছে কিনতে চাচ্ছে।

গণতন্ত্রের লড়াইয়ে নিজেদের ইচ্ছে বিক্রি না করার জন্য বিশ্বের দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানান এরদোগান।

ইতোপূর্বে এরদোগান বলেছিলেন, জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ একটি ‘খ্রিস্টান সংস্থা’। এখানে মুসলমানদের কোনো প্রতিনিধিত্ব নেই। জাতিসংঘকে আরো সংহত করতে সংস্থাটির কাঠামোগত সংস্কার প্রয়োজন রয়েছে। বিশ্বে শান্তি প্রতিষ্ঠায় জাতিসংঘ তার মিশন পরিচালনা করতে সক্ষম- সে বিষয়টি নিশ্চিত করা প্রয়োজন। জাতিসংঘের সবচেয়ে প্রভাবশালী অঙ্গ নিরাপত্তা পরিষদের গঠন অন্যায্য। এটি বৈশ্বিক এই প্রতিষ্ঠানটিকে অকার্যকর করে রেখেছে। এই অঙ্গ সংস্থাটির কারণে বিশ্ব শান্তির অতন্ত্র প্রহরী হিসেবে জাতিসংঘ তার কর্তব্য পালন করতে সক্ষম হচ্ছে না।

তিনি আরো বলেছিলেন, বায়তুল মুকাদ্দাস হচ্ছে মুসলামনাদের জন্য 'রেড লাইন'। ইসরাইল দখলদার রাষ্ট্র। জেরুসালেম মুসলিম, ইহুদি ও খ্রিস্টানদের পবিত্র শহর। আমরা সবাইকে জানিয়েছি মার্কিন সিদ্ধান্ত আন্তর্জাতিক আইন, কূটনীতি বা মানবিকতাকে সমর্থন করে না। এ ব্যাপারে মুসলিম উম্মাহকে ঐক্যবদ্ধ ভুমিকা রাখতে হবে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.