মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগ মানতে নারাজ আইনমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিরুদ্ধে মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগ মানতে নারাজ আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। তিনি জানান, ‘আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মানবাধিকার লঙ্ঘন করে, এটা আমি মানতে রাজি নই।’ তিনি দাবি করেন, বাহিনীগুলোর কারো বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ এলেও সরকার তদন্ত করে ব্যবস্থা নিচ্ছে।
আওয়ামী লীগ সরকার আইনশৃঙ্খলা বাহিনীগুলোকে দিয়ে যথেচ্ছভাবে মানবাধিকার লঙ্ঘনের ঘটনা ঘটাচ্ছে বলে বিএনপির অভিযোগের প্রোপটে গতকাল সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আইনমন্ত্রী এ কথা জানান। এ দিন বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে মানবাধিকারবিষয়ক এক সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসবে উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রী।
অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আইনমন্ত্রী জানান, ‘আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মানবাধিকার লঙ্ঘন করে, এটা আমি মানতে রাজি নই।’
আনিসুল হক জানান, ‘সব জায়গায় সব বাহিনীতে কিছু আছেন, যারা হয়তো অতিরিক্ত করেন। সেই েেত্র যখনই কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়, তখনই সেই ব্যক্তির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়, বিভাগীয় ব্যবস্থাও নেয়া হয়।’
সাংবাদিকেরা পুলিশের বিরুদ্ধে গুম-খুনের সুনির্দিষ্ট অভিযোগ তুলে ধরলে তিনি বলেন, ‘এগুলো কিন্তু তদন্ত হচ্ছে। আপনারা চাইলে সপ্তাহ দুয়েকের মধ্যে আপনাদের আপডেট জানাব।’
জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের কথাও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় শুনছে না বলে অভিযোগের পরিপ্রেেিত আনিসুল হক জানান, ‘মানবাধিকার কমিশন যখনই কোনো বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে, তখনই যেই মন্ত্রণালয়ই হোক, এই সরকার কিন্তু সেটা আমলে নেয়। সেই সমস্যা সমাধানে সচেষ্ট হয়।’
সরকারের বিরুদ্ধে মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগের জবাব দিতে মিয়ানমারের নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেয়ার কথা উল্লেখ করে আনিসুল হক জানান, ‘আমরা প্রায় সাত লাখ রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দিয়েছি। এটাও কিন্তু দারুণভাবে মানবাধিকারকে সাহায্য করে। মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় এটাও কিন্তু একটা মাইলফলক।’

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.