চ্যালেঞ্জিং পপি

অভি মঈনুদ্দীন

অভিনয় শিল্পের পথে যারা কাজ করেন তাদের মনে অভিনয়কে ঘিরে নানান ধরনের চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে কাজ করার স্বপ্ন থাকে। অনেকের সে স্বপ্ন পূরণ হয় আবার অনেকেরই শেষ বয়সে এসেও পূরণ হয়না। অভিনয়ে পথে চলতে চলতে অভিনয়ে নিজেকে যখন অনেক অভিজ্ঞ করে তুলেছেন ঠিক সে সময়ই তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত নায়িকা পপি নিজের স্বপ্নের একটি চলচ্চিত্রে কাজ করার সুযোগ পেলেন। সেই স্বপ্নপূরণে এগিয়ে এসেছেন নন্দিত চলচ্চিত্র পরিচালক শহীদুল হক খান।

শহীদুল হক খানের নতুন চলচ্চিত্র ‘টার্ন’-এ অভিনয়ের জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন পপি চলতি সপ্তাহেই। এই চলচ্চিত্রে দ্বৈত চরিত্রে অভিনয় করবেন তিনি। একটি স্বাভাবিক চরিত্র অন্যটি প্রতিবন্ধী এক মেয়ের চরিত্রে। স্বাভাবিক অনেক চরিত্রে এর আগে পপি অভিনয় করেছেন কিন্তু প্রতিবন্ধী কোন মেয়ের চরিত্রে এবারই প্রথম তিনি অভিনয় করতে যাচ্ছেন।

বছরের শেষপ্রান্ত নতুন চলচ্চিত্রে চুক্তিবদ্ধ হওয়া এবং চ্যালেঞ্জিং একটি চরিত্রে অভিনয় করা প্রসঙ্গে পপি বলেন,‘ গতানুগতিক অনেক গল্পের চলচ্চিত্রে কাজ করার জন্য প্রস্তাব আসে। কিন্তু সেসব চলচ্চিত্রে কাজ করার আগ্রহবোধই করিনা। ভিন্ন ধরনের গল্প, চ্যালেঞ্জিং চরিত্রেই আমি সবসময় কাজ করে আসছি। টার্ন চলচ্চিত্রের গল্প যেমন অসাধারণ ঠিক তেমনি প্রতিবন্ধী যে মেয়ের চরিত্রে আমি অভিনয় করতে যাচ্ছি তা অনেক চ্যালেঞ্জিং। এই ধরনের চরিত্রে কাজ করার স্বপ্ন ছিলো আমার। আমি সত্যিই নার্ভাস যথাযথভাবে কাজটি করতে পারবো কী না। এই চরিত্রে কাজ করার জন্যই এখন আমার সবধরনের প্রস্তুতি নিতে হচ্ছে।’

পপি জানান ২০১৮ সালের জানুয়ারি মাসেই তার নতুন চলচ্চিত্র ‘টার্ন’র শুটিং শুরু হবে। তবে এতে তার সহশিল্পী হিসেবে কে কে থাকবেন তা এখনো চুড়ান্ত নয়। ‘টার্ন’ চলচ্চিত্রের গল্প লিখেছেন পরিচালক নিজেই। পপি অভিনীত সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত চলচ্চিত্র জাহাঙ্গীর আলম সুমন পরিচালিত ‘সোনাবন্ধু’। ‘পৌষ মাসের পীরিত’। মুক্তির অপেক্ষায় আছে তার অভিনীত ‘শর্ট কাটে বড় লোক’,‘ জীবন যন্ত্রণা’ ও ‘দুই ভাইয়ের যুদ্ধ’।

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পপি’র হাতে প্রথম ওঠে কালাম কায়সার পরিচালিত ‘কারাগার’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করে। এরপর নারগিস আক্তারের ‘মেঘের কোলে রোদ’ এবং সৈয়দ ওয়াহিদুজ্জামান ডায়ম-ের ‘গঙ্গাযাত্রা’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করে একই পুরস্কারে ভূষিত হন তিনি। পপি ‘বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি’র কার্যনির্বাহী পরিষদের একজন সদস্য। 

ছবি : মোহসীন আহমেদ কাওছার

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.