ঢাকা, সোমবার,১১ ডিসেম্বর ২০১৭

নগর মহানগর

প্রশ্নপত্রে সাম্প্রদায়িকতার অভিযোগ

রাবির পরীক্ষা কমিটিতে নিষিদ্ধ হলেন দুই শিক্ষক

রাবি সংবাদদাতা

০৮ ডিসেম্বর ২০১৭,শুক্রবার, ০০:০০


প্রিন্ট

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (২০১৭-১৮) শিক্ষাবর্ষে স্নাতক প্রথম বর্ষে ভর্তি পরীক্ষায় চারুকলা অনুষদের প্রশ্নপত্রে মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলমানদের ওপর নির্যাতন ও ধর্মীয় গ্রন্থ নিয়ে সাম্প্রদায়িক উসকানিমূলক প্রশ্ন প্রণয়নের দায়ে অনুষদটির ডিনসহ দুই শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছে বিশ^বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। আগামী ১০ বছরের জন্য এই দুই শিক্ষক বিশ^বিদ্যালয়ের কোনো ধরনের পরীক্ষা কমিটিতে থাকতে পারবেন না বলে সিদ্ধান্ত হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেন বিশ^বিদ্যালয় সিন্ডিকেট সদস্য প্রফেসর কে বি এম মাহবুবুর রহমান।
নিষিদ্ধ দুই শিক্ষক হলেনÑ বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের ডিন প্রফেসর মোস্তাফিজুর রহমান ও চিত্রকলা, প্রাচ্যকলা ও ছাপচিত্র বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো: জিল্লুর রহমান।
গত বুধবার বিশ^বিদ্যালয়ের ৪৭৪তম সিন্ডিকেট সভায় ভিসি প্রফেসর এম আব্দুস সোবহানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয় বলে জানান তিনি।
এ দিকে প্রশ্ন প্রণয়নের দায়ে জিল্লুর রহমান নামের ওই শিক্ষকের পরবর্তী পদোন্নতির সময় হলে সে সময় থেকে ৫ বছর পরে পদোন্নতি হবে বলেও সিদ্ধান্ত হয়।
অপর এক সিদ্ধান্তে ডিনের পদ থেকে অব্যাহতির জন্য যদি আইনগত বাধা না থাকে তাহলে ডিনকে অব্যাহতি দেয়া হবে জানানো হয়।
অন্য দিকে ইনস্টিটিউট অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের (আইবিএ) শিক্ষক প্রফেসর হাছনাত আলীকে মারধরের ঘটনায় অভিযুক্ত সান্ধ্যকালীন এমবিএ ডে ৯ ব্যাচের শিক্ষার্থী নাহিদ হায়দারকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হয়েছে।
তবে শিক্ষক হাছনাত আলীকে শিক্ষার্থীদের সাথে সদ্ব্যবহার করার বিষয়েও সতর্ক চিঠি দেয়াসহ চারুকলার প্রশ্নপত্র প্রণয়ন কমিটির অন্য সদস্যদের সতর্ক করার বিষয়টি জানানো হয়।
উল্লেখ্য, গত ২৫ অক্টোবর চারুকলা অনুষদের (২০১৭-১৮) শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। চারুকলার ওই পরীার প্রশ্নপত্রের দু’টি প্রশ্নে সাম্প্রদায়িক উসকানি দেয়া হয়েছে বলে প্রশ্ন ওঠে। পরীা অনুষ্ঠিত হওয়ার পর পরীক্ষারকেন্দ্র থেকেই শিার্থীদের অনেকেই ােভ প্রকাশ করেন। এ নিয়ে সমালোচনার মুখে পড়ে বিশ^বিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদ। মানববন্ধনও করেন বিশ্ববিদ্যালয় শাখা প্রগতিশীল ছাত্রজোটের নেতাকর্মীরা।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫