ঢাকা, সোমবার,১১ ডিসেম্বর ২০১৭

রাজনীতি

খুনের রাজত্বে মেতেছে ভোটারবিহীন সরকার : রিজভী

নিজস্ব প্রতিবেদক

০৪ ডিসেম্বর ২০১৭,সোমবার, ১৩:৩৮


প্রিন্ট
ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

ক্ষমতাসীন সরকার খুনের রাজত্বে মেতেছে অভিযোগ করে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, আওয়ামী দুঃশাসনকে টিকিয়ে রাখতে বিরোধী দল দমনে হামলা-মিথ্যা মামলা ও জেলজুলুমের পাশাপাশি খুনের রাজত্বে মেতে উঠেছে বর্তমান ভোটারবিহীন সরকার। তরুণদেরকে টার্গেট করে ধারাবাহিকভাবে হত্যা করা হচ্ছে। গতকালও চট্টগ্রামের সদরঘাট থানা যুবদলের যুগ্ম আহবায়ক হারুন চৌধুরীকে নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে গুলি করে নির্মমভাবে হত্যা করেছে ছাত্রলীগের সন্ত্রাসীরা।

আজ সোমবার সকালে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘সম্পূর্ণ পরিকল্পিতভাবে সরকারের নীলনকশা অনুযায়ী এই হত্যাকান্ডের ঘটনাটি ঘটানো হয়েছে। যুবসমাজের কন্ঠকে স্তব্ধ করে দিতেই মরণ খেলায় মেতেছে সরকারি দল ও তাদের অঙ্গ সংগঠনগুলো। দেশটাকে যেন তারা নরমুন্ডের অরণ্য বানিয়ে ছাড়বেন। আওয়ামী লীগ সবসময় অসত্য বলা এবং খুন ও সন্ত্রাসের আশ্রয়প্রার্থী। আমি বিএনপির পক্ষ থেকে যুবদল নেতা হারুন চৌধুরীকে হত্যাকারী সন্ত্রাসীদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানাচ্ছি। মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করে শোকাহত পরিবারবর্গের প্রতি জানাচ্ছি গভীর সমবেদনা।’

রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এই সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা আবদুস সালাম, হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, হাবিবুল ইসলাম হাবিব, আব্দুস সালাম আজাদ, মুনির হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

রোহিঙ্গা ইস্যুতে প্রধানমন্ত্রী ঘর থেকে এক পা ফেলেননি মন্তব্য করে রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘পেঁয়াজের কেজি ১০ টাকা থেকে এখন ১২০ টাকা কেজি, চালের দাম ১০ টাকা থেকে ৭০ টাকা কেজি, বিদ্যুতের দাম বর্তমান সরকারের আমলে আট বার বাড়ানো হয়েছে। নানা ট্যাক্সের চাপে মানুষের জীবন বিপন্ন এবং অশান্তি আগুনে ভিতরে ভিতরে মানুষ দগ্ধ হচ্ছে।’

রিজভী বলেন, ‘ভুল নীতির কারণে আওয়ামী সরকার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কাছ থেকে জিএসপি সুবিধা ফিরিয়ে নিতে পারছে না। বিদেশী অনুদান প্রায় বন্ধ হয়ে যাওয়ায় গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়ন তছনছ হয়ে গেছে। সরাদেশের সড়ক-মহাসড়কগুলোর বেহাল দশায় সড়কে মৃত্যুর মিছিল থামছেই না। লন্ডভন্ড সড়কে মানুষের জীবনযাত্রা প্রায় থমকে গেছে। আজকেও পত্রিকার হেডলাইন ব্যাংকগুলোর মূলধন খেয়ে ফেলা হয়েছে। সরকারি ও বেসরকারি সাত ব্যাংকের মূলধন ঘাটতি সতেরো হাজার কোটি টাকা। ক্ষমতাসীনদের লুটপাট-দুর্নীতি আর স্বেচ্ছাচারিতায় বাংলাদেশে এখন সর্বকালের সর্বোচ্চ বিষাদ ঘনঘোর নৈরাজ্য বিরাজ করছে। কারণ এর ভুক্তভোগী হচ্ছে সাধারণ জনগণ।’

‘প্রধানমন্ত্রী চাইলে আগাম নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত আওয়ামী লীগ’ এবং সিইসি সমস্বরে বলেছেন-সরকার চাইলে আগাম নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত ইসি’ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের এমন প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, “আমরা বারবার বলেছি-বর্তমান সিইসি আওয়ামী সরকারের কৃপাধন্য। ওবায়দুল কাদের সাহেবের বক্তব্যের সাথে সাথে সিইসির একই সুর প্রমাণিত হয় সিইসি সরকারের নির্মিত সেই পুরনো পথেই হাঁটবেন। একটি স্বাধীন সার্বভৌম নির্বাচন কমিশনের সাংবিধানিক দায়িত্ব দেশে অবাধ-সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন আয়োজন করা। কিন্তু অবস্থাদৃষ্টে মনে হচ্ছে চাকরি রক্ষার্থে বর্তমান সিইসি অবাধ-সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের বিষয়টি আমলে নিবেন না। আমি বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি’র পক্ষ থেকে আবারো দ্ব্যর্থহীন কন্ঠে বলতে চাই-প্রধান নির্বাচন কমিশনার মহোদয় আপনি আওয়ামী সরকারের অশুভ ইচ্ছা পূরণের ‘খাঁচায় বন্দী তোতা পাখী হবেন না’। কেননা ষড়যন্ত্র চক্রান্ত আর বড় বড় বুলির মায়াজাল সৃষ্টি করে গণতন্ত্রের ঘাতক প্রতিহিংসাপরায়ণ শেখ হাসিনা ও তাঁর সরকারের অধীনে জাতীয় নির্বাচন এদেশের জনগণ মেনে নেবে না।”

এছাড়া বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমূলক মামলায় গ্রেফতারী পরোয়ানা জারির প্রতিবাদে বিএনপির কেন্দ্র ঘোষিত বিক্ষোভ কর্মসূচি পালনকালে গতকাল শান্তিপূর্ণ মিছিলে হামলা ও মিছিল থেকে নেতাকর্মীদের গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা জানিয়ে অবিলম্বে তাদের মুক্তি দাবি করেন রিজভী।

একইসাথে গত ১ ডিসেম্বর ধানমন্ডির ১নং রোডে অবস্থিত বিভিন্ন বাসায় সিকিউরিটি গার্ডদের নিয়ে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল মান্নানের সহধর্মীনি মরহুমা নিলুফার মান্নানের কুলখানি ও দোয়া মাহফিল শেষে তার বাসায় হামলার নিন্দা এবং অভিযুক্তদের গ্রেফতারের দাবি জানান রিজভী।

 

  • সর্বশেষ
  • পঠিত

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫