ঢাকা, বৃহস্পতিবার,১৪ ডিসেম্বর ২০১৭

অর্থনীতি

বেসিক ব্যাংকের ঋণ জালিয়াতি : আব্দুল হাই বাচ্চুকে তলব করেছে দুদক

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৩ নভেম্বর ২০১৭,বৃহস্পতিবার, ১৮:১৫


প্রিন্ট

বেসিক ব্যাংকের ঋণ জালিয়াতির ঘটনায় ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হাই বাচ্চুকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। আগামী ৪ ডিসেম্বর দুদকের প্রধান কার্যালয়ে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।
আজ বৃহস্পতিবার দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

দুদক সূত্র জানায়, বেসিক ব্যাংকে ২০১২-১৩ সালে আর্থিক খাতে সবচেয়ে বড় কেলেঙ্কারি ঘটে। তৎকালীন ব্যাংকটির চেয়ারম্যান আবদুল হাই বাচ্চুর নেতৃত্বাধীন ব্যাংকটির তখনকার পরিচালনা পর্ষদ কোনো কিছুর তোয়াক্কা না করেই ইচ্ছেমতো প্রায় সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকা ঋণ দিয়ে দেয় বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে। টাকা লোপাটের এমন কেলেঙ্কারির ঘটনায় ২০১৫ সালের সেপ্টেম্বরে ১২০ জনের বিরুদ্ধে ৫৬টি মামলা দায়ের করে দুদক।

এসব মামলায় ব্যাংক কর্মকর্তা এবং বিভিন্ন নামি-বেনামি প্রতিষ্ঠানের মালিককে আসামি করা হলেও অনেকটা দায়মুক্তি পান ব্যাংকটির চেয়ারম্যান আবদুল হাই বাচ্চুসহ গোটা পরিচালনা পর্ষদ। মূল হোতাদের বাদ দিয়ে মামলা দায়ের করায়, দুদকের তদন্ত নিয়ে প্রশ্ন তোলে উচ্চ আদালত। সংসদীয় কমিটি, টিআইবিসহ বিভিন্ন পক্ষ থেকেও সমালোচনা হয় দুদকের। অপরাধ প্রমাণিত হলে আবদুল হাই বাচ্চুসহ পরিচালনা পর্ষদের সদস্যদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ।

দুদক সূত্র জানায়, বেসিক ব্যাংক থেকে দুই হাজার নয় কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ৫৬টি মামলা দায়ের করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। এসব মামলায় ব্যাংকটির কর্মকর্তা, ঋণগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠান প্রধান ও সার্ভেয়ারসহ ১৮৫ জনকে আসামি করা হয়েছে। তবে কোনো মামলাতেই ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যান শেখ আবদুল হাই বাচ্চুকে আসামি করা হয়নি।

দুদকের দায়ের করা ৫৬ মামলার মধ্যে একটি মামলায় চলতি বছরে ২৬ জুলাই হাইকোর্ট বেসিক ব্যাংকের সাবেক চেয়ারম্যান আবদুল হাই বাচ্চু এবং পরিচালনা পর্ষদের সদস্যদের বিরুদ্ধে দুদককে তদন্তের নির্দেশ দেন। এতে আদেশ প্রাপ্তির ৬০ দিনের মধ্যে মামলার তদন্ত সম্পন্ন করে আদালতে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়।

ফলে তদন্তের অংশ হিসেবে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করবে দুদক। এর পর পরই এ-সংক্রান্ত মামলার তদন্ত সম্পন্ন করা হবে। হাইকোর্টের ওই আদেশের পরিপ্রেক্ষিতে এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫