ঢাকা, শনিবার,১৬ ডিসেম্বর ২০১৭

শিক্ষা

জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষায় আরো ৪ শিক্ষক ও ৯৯ পরীক্ষার্থী বহিষ্কার

নিজস্ব প্রতিবেদক

০৬ নভেম্বর ২০১৭,সোমবার, ২১:০৭


প্রিন্ট

জেএসসির চতুর্থ এবং জেডিসির পঞ্চম দিনের পরীক্ষায় বহিষ্কারের সংখ্যা বিগত কয়েকদিনের রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে।

আজ ইংরেজি দ্বিতীয়পত্র পরীক্ষায় সারাদেশে জেএসসিতে ৯৯ জন পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে। অসদুপায় অবলম্বনে সহায়তার অভিযোগে কুমিল্লা বোর্ডে চার শিক্ষককেও বহিষ্কার করা হয়। এদিন পরীক্ষায় ৬২ হাজারেরও বেশি পরীক্ষার্থী কেন্দ্রে উপস্থিত হয়নি।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কেন্দ্রীয় পরীক্ষা মনিটরিং সেল আজ সোমবার বিকেলে এসব তথ্য জানিয়েছে।

ইংরেজি প্রথম ও দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষায় মোট শিক্ষার্থী বহিষ্কার হয়েছে ২২১ জন। আর শিক্ষক বহিষ্কার হয়েছেন পাঁচজন।

নিন্ম-মাধমিকের শুধু ইংরেজি পরীক্ষায়ই এত বেশি শিক্ষার্থী নকলের দিকে ঝুকেছে। আর এসবের সহায়তায় শিক্ষকরাও সঙ্গী হয়েছেন।

আজ জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেটের (জেএসসি) ইংরেজি দ্বিতীয়পত্র এবং ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেটের (জেডিসি) তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ পরীক্ষায় সবকয়টি বোর্ডে মোট ২৩ লাখ ৯০ হাজার ১৩৪ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণের কথা থাকলেও ৬২ হাজার ২৫৫ জন শিক্ষার্থী অনুপস্থিত ছিল।

নিয়ন্ত্রণ ও মনিটরিং কেন্দ্র সূত্রে জানা গেছে, জেএসসি পরীক্ষায় ঢাকা শিক্ষা বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ছয় লাখ ৮৪ হাজার ৫৪৫ জন। এর মধ্যে আজকের পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে ছয় লাখ ৬৯ হাজার ৬৯০ জন। আর অনুপস্থিত পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ১৪ হাজার ৮৫৫ জন। এর মধ্যে পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বনের জন্য ঢাকা বোর্ডে বহিষ্কার হয়েছে ৩৮ জন শিক্ষার্থী।

রাজশাহী বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থী ছিল দুই লাখ ৪০ হাজার ৩১৭ জন। আজকের পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে দুই লাখ ৩৫ হাজার ৭৮৩ জন। অনুপস্থিত ছিল চার হাজার ৫৩৫ জন। বহিষ্কার হয়েছে তিনজন শিক্ষার্থী।

কুমিল্লা বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থী ছিল দুই লাখ ৪১ হাজার ৪২৭ জন। পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে দুই লাখ ৩৭ হাজার ২৩৩ জন। অনুপস্থিত পরীক্ষার্থীর সংখ্যা চার হাজার ১৯৪ জন। বহিষ্কার হয়েছে ১৮ জন শিক্ষার্থী। এছাড়াও অসাধু কাজের জন্য জারজন শিক্ষককে বহিষ্কার করা হয়েছে।

যশোর শিক্ষা বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থী ছিল দুই লাখ ২০ হাজার ৪৮০ জন। পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে দুই লাখ ১৫ হাজার ৩২১ জন। অনুপস্থিত ছিল পাঁচ হাজার ১৫৯ জন শিক্ষার্থী। একজন পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল এক লাখ ৭৯ হাজার ৩০৯ জন। পরীক্ষায় অংশ নেয় এক লাখ ৭৬ হাজার ১৩৭ জন। অনুপস্থিত ছিল তিন হাজার ১৭২ জন। বহিষ্কার হয়েছে তিনজন পরীক্ষার্থী।

সিলেট শিক্ষা বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থী ছিলে এক লাখ ৩৫ হাজার ২১২ জন। পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে এক লাখ ৩২ হাজার ৫১৪ জন। অনুপস্থিত ছিল দুই হাজার ৪৯৮ জন পরীক্ষার্থী।

বরিশাল বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থী সংখ্যা ছিল এক লাখ ২১ হাজার ৯৪ জন। পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে এক লাখ ১৭ হাজার ৬৪৬ জন। অনুপস্থিত পরীক্ষার্থীর সংখ্যা তিন হাজার ৪৪৮ জন। এ বোর্ডে বহিষ্কার হয়েছে ১৩ জন পরীক্ষার্থী।

দিনাজপুর বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল দুই লাখ ২৮ হাজার ৪৬৭ জন। পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে দুই লাখ ২৫ হাজার ১৪৫ জন। অনুপস্থিত ছিল তিন হাজার ২২২ জন। বহিষ্কার হয়েছে পাঁচজন।

আর মাদরাসায় জেডিসিতে মোট পরীক্ষার্থী ছিল তিন লাখ ৬৬ হাজার ৯৭২ জন। পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে তিন লাখ ৪৫ হাজার ৮৯৯ জন। এই বোর্ডে অনুপস্থিত ছিল ২১ হাজার ৭০ জন। বহিষ্কার হয়েছে ২১ জন পরীক্ষার্থী।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫